ঢাকা, বৃহস্পতিবার 03 August 2017, ১৯ শ্রাবণ ১৪২8, ৯ জিলক্বদ ১৪৩৮ হিজরী
Online Edition

তুচ্ছ ঘটনায় ৫৭ ধারার অপপ্রয়োগ হচ্ছে : ওবায়দুল কাদের

 

স্টাফ রিপোর্টার : তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি (আইসিটি) আইনের ৫৭ ধারা প্রণয়ন করা হলেও তুচ্ছ ঘটনায় এর অপপ্রয়োগ হচ্ছে বলে মন্তব্য করেছেন সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের। অপপ্রয়োগ ঠেকাতে তথ্যমন্ত্রীর হস্তক্ষেপ চান তিনি।

গতকাল বুধবার দুপুরে রাজধানীর আগারগাঁওয়ে মেট্রোরেল নির্মাণ প্রকল্পের প্যাকেজ ৩ ও প্যাকেজ ৪-এর আওতায় ভায়াডাক্ট এবং স্টেশন নির্মাণ কাজের উদ্বোধন অনুষ্ঠানে মন্ত্রী এসব কথা বলেন।

আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক কাদের আরো বলেন, ‘আমার কাছে মনে হয় ৫৭ ধারা এটা কিন্তু সাইবার ক্রাইমের এগেইনস্টে একটা ধারা। সাইবার ক্রাইমকে রেজিস্ট (প্রতিরোধ) করার জন্য এটা একটা ধারা। একটা তুচ্ছ কারণে এটার অপপ্রয়োগ করা সঠিক নয়। যদি কোনো মামলা করতে হয় তাহলে যথাযথ ঊর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষের সঙ্গে আলোচনা করা উচিত। তুচ্ছ কারণে, সামান্য কারণে হুট করে একটা মামলা ঠুকে দেয়া এটা সঠিক নয়। আমি মনে করি মাননীয় তথ্যমন্ত্রীর এই বিষয়গুলোতে হস্তক্ষেপ করা উচিত।’

 ফেসবুকে খবর শেয়ার করার কারণে খুলনায় এক সাংবাদিককে গ্রেপ্তারের বিষয়টি উল্লেখ করে মন্ত্রী বলেন, ‘মামলার অপপ্রয়োগটা ঠেকাতে বলছি। অপপ্রয়োগ কেন করা হবে? আমি তো মনে করি খুলনায় যা হয়েছে এটা অপপ্রয়োগ হয়েছে।’

এ সময় আগামী নির্বাচনকে সুষ্ঠু এবং গ্রহণযোগ্য করতে নির্বাচনের সময় সেনা মোতায়েনের বিষয়ে সুশীল সমাজের পরামর্শ এবং বিএনপির দাবির সমালোচনা করেন আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক। তিনি বলেন, ‘এ বিষয়টা একেবারেই অবান্তর, অযৌক্তিক। যেহেতু আমাদের সংবিধানেই নির্দিষ্ট করা আছে নির্বাচন কীভাবে হবে। সেনাবাহিনীকে অহেতুক বিতর্কের মধ্যে টেনে আনা ঠিক হবে না। এই বিষয়টা নিয়ে আলোচনার কোনো প্রয়োজন নেই, বিতর্কের প্রয়োজন নেই। যখন সময় আসবে তখন সময়ই বলে দেবে নির্বাচন কমিশন সরকারের সাথে পরামর্শ করে কীভাবে সেনাবাহিনী নিয়োগ করবে।’

মন্ত্রী জানান, ম্যাস র‌্যাপিড ট্রানজিট বা এমআরটি লাইন সিক্স রুটে রাজধানীর উত্তরা থেকে মতিঝিল পর্যন্ত মোট স্টেশন হবে ১৬টি। ২২ হাজার কোটি টাকা ব্যয়ের এই প্রকল্পে ১৬ হাজার ৬০০ কোটি টাকা অর্থায়ন করবে জাইকা।

হলি আর্টিজান হামলার ঘটনায় জাপানি ৭ নাগরিকের মৃত্যুতে ৮ মাস পিছিয়েছে মেট্রোরেলের নির্মাণ কাজ জানিয়ে ওবায়দুল কাদের বলেন, নির্ধারিত সময়ের মধ্যে কাজ শেষ করে যানজটমুক্ত করা হবে ঢাকাকে।

সড়ক পরিবহনমন্ত্রী বলেন, পদ্মা সেতু এবং মেট্রোরেল, সরকারের এই দুই মেগা প্রকল্পের দিকে তাকিয়ে আছে দেশের জনগণ। ২০১৯ এর মধ্যে প্রকল্প দুটির কাজ শেষ হবে বলেও জানান তিনি।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ