ঢাকা, রোববার 27 August 2017, ১২ ভাদ্র ১৪২8, ০৪ জিলহজ্ব ১৪৩৮ হিজরী
Online Edition

বাঁধ উপচানো পানিতে খুলনার নিম্নাঞ্চল তলিয়ে যাচ্ছে

খুলনা অফিস: অমাবশ্যার জোয়ারে খুলনা ও রূপসার বাঁধ উপচে পানি ঢুকছে লোকালয়ে। ইতোমধ্যে জোয়ারে পানিতে তলিয়ে গেছে খুলনার রূপসা উপজেলার শ্রীফলতলা, আইচগাতি, সেনেরবাজারসহ বেশকিছু গ্রাম। এছাড়া গত ৩-৪ ধরে প্রতিদিন দুই বেলা পানিতে তলিয়ে যাচ্ছে মহানগরীর ভেতরের নিম্নাঞ্চলের সড়ক।
জোয়ারের সময় জেলখানা ঘাটের ওপারে গিয়ে দেখা গেছে, জোয়ারে পানির উচ্চতা বেড়ে নদী ও সড়ক একাকার হয়ে যাচ্ছে। পানির উচ্চতা এতোই বেড়েছে যে, জোয়ারের সময় দেখে বোঝার উপায় থাকে না, কোথায় নদী, কোথায় সড়ক। নিকট অতীতে নদীর এমন আগ্রাসী রূপ দেখেনি খুলনার মানুষ।
খুলনা পানি উন্নয়ন বোর্ড ও খুলনা সিটি করপোরেশনের (কেসিসি) বর্জ্য ব্যবস্থাপনা বিভাগের কর্মকর্তারা বলছেন, নানা কারণে রূপসা নদীর তলদেশ দিন দিন ভরাট হচ্ছে। অন্যদিকে ষাটের দশকে তেরি শহর রক্ষা বাঁধ হয়ে গেছে অনেক নিচু। এজন্য বর্ষা মওসুমের পানির চাপ বেড়ে গেলে বাঁধ উপচে পানি শহরের ভেতরে চলে আসছে। ঠিক একইভাবে নদীর ওপারের আইচগাচী, সেনেরবাজারসহ বিভিন্ন গ্রাম তলিয়ে যাচ্ছে। এ অবস্থায় জার্মান ডেভেলপমেন্ট ব্যাংকের অর্থায়নে শহরক্ষা বাঁধ পুনঃনির্মাণের প্রকল্প হাতে নিচ্ছে কেসিসি।
পানি উন্নয়ন বোর্ডের (পাউবো) তথ্য অনুযায়ী, রূপসা নদীতে পানির স্বাভাবিক উচ্চতা ২ দশমিক ৫০ মিটার। সমুদ্রের ঢেউয়ের গড় উচ্চতাকে শূন্য ধরে নদীর পানি পরিমাপ করে পাউবো। তারা জানান, গত শনিবার রূপসা নদীতে পানির উচ্চতা ছিলো ৩ দশমিক ২৩ মিটার। রোববার যা বেড়ে দাঁড়ায় ৩ দশমিক ৪১ মিটার। সোমবার ও মঙ্গলবার তা’ সাড়ে ৩ মিটার ছাড়িয়ে যায়। সাধারণত ২ দশমিক ৫৯ মিটারকে বিপদসীমা ধরা হয়ে থাকে।
পাউবোর এক কর্মকর্তা জানান, খুলনার নদীগুলোয় চলতি সপ্তাহে পানির গড় উচ্চতা ছিলো প্রায় সাড়ে ৩ মিটার। যা এ অঞ্চলের বেড়িবাঁধের সমান।
পানির চাপ যেদিন বেড়ে যায়, সেদিন বাঁধ উপচে উপকূলের নিম্নাঞ্চল প্লাবিত হয়। এখন বেড়িবাঁধ উঁচু করে পুনঃনির্মাণ ছাড়া অন্য কোনো সমাধান তাদের হাতে নেই।
পাউবো থেকে জানা গেছে, গত এক সপ্তাহ ধরে রূপসা নদীর পানি বিপদসীমার ওপর দিয়ে প্রবাহিত হচ্ছে। প্রতি বর্ষা মওসুমেই এটা হয়ে থাকে। কিন্তু চলতি সপ্তাহে পানির উচ্চতা বিগত বছরগুলোর চাইতে বেশি।
এ কারণেই জোয়ারের সময় তলিয়ে যাচ্ছে নগরীর দক্ষিণ টুটপাড়া, চাঁনমারী, লবণচরা, শিপইয়ার্ড, রূপসা স্ট্র্যান্ড রোড, জিন্নাহপাড়া, রূপসা ট্রাফিক মোড়, আলুতলা বাঁধ, গ্লাক্সিার মোড়সহ নদীর আশপাশের এলাকা।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ