ঢাকা, মঙ্গলবার 29 August 2017, ১৪ ভাদ্র ১৪২8, ০৬ জিলহজ্ব ১৪৩৮ হিজরী
Online Edition

খুলনায় সড়ক দুর্ঘটনায় পুলিশের দুই ছেলেসহ তিনজন নিহত

খুলনা অফিস : খুলনায় সড়ক দুর্ঘটনায় পুলিশের দুই ছেলেসহ তিনজন নিহত হয়েছে। রোববার বিকেলে খানজাহান আলী (র.) ব্রিজ সংলগ্ন নগরীর লবণচরা থানার শুড়িখালি ও ডুমুরিয়ার চুকনগরে পৃথক দু’টি স্থানে এ দুর্ঘটনা দু’টি ঘটে। নিহতরা হলো-নগরীর বয়রা পূজাখোলা এলাকার অবসরপ্রাপ্ত উপ-পরিদর্শক (এসআই) ইউসুফ আলীর ছেলে আকাশ (২০) ও গোয়েন্দা পুলিশের (ডিবি) কনস্টেবল নজরুল ইসলামের ছেলে শাহীন (২২) এবং বাসচালক রবিন বসু (৫০)।  নিহত আকাশ নগরীর মডেল স্কুল এন্ড কলেজের এইচএসসি’র ছাত্র আকাশ ও শাহীন পলিটেকনিক ইনস্টিটিউটের দ্বিতীয় বর্ষের ছাত্র।
লবণচরা থানার উপ-পরিদর্শক (এসআই) রত্নেশ্বর জানান, বিকেল সাড়ে ৫টার দিকে আকাশ ও ফাইম একটি মোটরসাইকেলে দ্রুতগতিতে রূপসা ব্রিজের দিকে যাচ্ছিল। রূপসা ব্রিজ সংলগ্ন শুড়িখালি নামক স্থানে একটি ট্রাককে ওভারটেক করার সময় নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে মোটরসাইকেলটি একটি আইল্যান্ডে ধাক্কা খেয়ে ট্রাকের তলে পড়ে। এতে মোটরসাইকেল আরোহি আকাশ ও শাহীন গুরুতর আহত হয়। তাদেরকে উদ্ধার করে খুলনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক মৃত ঘোষণা করেন। লবণচরা থানার ওসি শফিকুল ইসলাম সড়ক দুর্ঘটনায় দু’জনের নিহতের সত্যতা স্বীকার করেছেন।
রোববার দুপুর ১টার দিকে খুলনা-পাইকগাছা সড়কের মাগুরাঘোনা জেলা পুলিশ ক্যাম্পের সন্নিকটে আরশনগর নামক স্থানে দুই বাসের মুখোমুখি সংঘর্ষে বাস চালক রবিন বসু (৫০) এর ঘটনাস্থলেই নিহত হয়েছে। আহত হয় অন্তত ৪০ জন বাস যাত্রী। স্থানীয় লোকজন আহতদেরকে উদ্ধার করে মুমূর্ষু অবস্থায় খুলনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালসহ ডুমুরিয়া ও তালা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে পাঠিয়েছে।
স্থানীয় ও প্রত্যক্ষদর্শী সূত্রে জানাযায়, খুলনা থেকে ছেড়ে আসা খুলনা-ব-৯৮৯ নম্বর যাত্রীবাহী বাসটি পাইকগাছা অভিমুখে যাচ্ছিল। এ সময় বিপরীত দিক থেকে আসা দ্রুত গতির ঢাকা-মেট্রো-চ- ৯১৭৮ নম্বর যাত্রীবাহী বাসের সাথে মুখোমুখি সংঘর্ষ হয়। এ ঘটনায় উভয় বাসের যাত্রীদের মধ্যে অন্তত ৪০জন যাত্রী গুরুতর আহত হয়।
এ ব্যাপারে ডুমুরিয়া থানা অফিসার ইনচার্জ হাবিল হোসেন জানান, লাশ ময়না তদন্তের জন্য খুলনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল মর্গে পাঠানোর হয়েছে।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ