ঢাকা, বুধবার 30 August 2017, ১৫ ভাদ্র ১৪২8, ০৭ জিলহজ্ব ১৪৩৮ হিজরী
Online Edition

টার্গেটটা ৩০০ রানে দিতে পরলে সুবিধা হতো -তামিম

ম্পোর্টস রিপোর্টার : ঢাকা টেস্টে প্রথম দুই দিন নিয়ন্ত্রণ করেছে বাংলাদেশ। তৃতীয় দিনে ভালো একটি শুরুর পরও ২২১ রানে অলআউট বাংলাদেশ। তাতে জয়ের জন্য অস্ট্রেলিয়ার সামনে টার্গেট দাঁড়িয়েছে ২৬৫ রানের। তৃতীয় দিনশেষে তামিম ইকবাল জানিয়েছেন রানটা ৩০০ হলে ভালো হতো । ইতিমধ্যে ডেভিড ওয়ার্নার ও স্টিভেন স্মিথ মিলে ১০৯ রান তুলে এগিয়ে রেখেছেন দলকে। জয়ের জন্য তাদের আর করতে হবে ১৫৬ রান। তবে ২৬৪ রানকে তিনি কম বলতে রাজি নন। আর এ জন্য চতুর্থ দিনে ভালো বোলিং করতে হবে। গতকাল সংবাদ সম্মেলনে টেস্ট নিয়ে তামিম বলেন, ‘কম না। একটা দিন আগে হলেও ২৬৪ রানে আমরা খুশি থাকতাম। কিন্তু আজকে আমাদের কাছে সুযোগ ছিল। লিড বাড়িয়ে ৩০০ এর বেশি করার সুযোগ ছিল। ওইদিক কিছুটা হতাশ। ৩০০ হলে সুবিধা হতো। উইকেটের কথা বলব যে, এটা আনপ্রেডিক্টেবল। যে কোনো সময় যে কোনো কিছু হতে পারে। ধৈর্য্য ধরে আমাদের থাকতে হবে। আগের ইনিংসগুলোতে দেখছেন যে, একটা উইকেট পড়লে দুই তিনটা উইকেট পড়ে যায়। খুবই আনপ্রেডিক্টেবল। আমাদের এখন ভালো জায়গায় বল করতে হবে। আজও আমরা আরো ভালো জায়গায় বল করতে পারতাম। ওদের দুটি উইকেট পড়ার পর যদি আরো টাইট বল করতে পারতাম, দিনটা আরো ভালো হতে পারতো।’ ইংল্যান্ডের বিপক্ষে একই অবস্থা থেকে ম্যাচ জিতেছিল বাংলাদেশ। সেটা থেকে কোনো অনুপ্রেরণা পাচ্ছে কিনা জানতে চাইলে তামিম বলেন, ‘ইংল্যান্ডের ম্যাচটার মতোই পরিস্থিতি। কাল আমাদের যে জিনিসটা করতে হবে, ভালো জায়গায় বোলিং করে যেতে হবে। উইকেটের জন্য নয়। ডট বলের জন্য বল করি, চাপ দিতে থাকলে উইকেট আসবে। ১৫৬ রান খুব বেশি মনে হচ্ছে না। উইকেটটাই এমন। যে দুজন আছে, তাদের একজন আউট হয়ে গেলে কী হবে ইউ নেভার নো। এ রকম অনেক ম্যাচ দেখেছি। ইংল্যান্ডের বিপক্ষে খেলেছিও। ইতিহাস দেখে চিন্তা করলে চলবে না। কাজটা করতে হবে আমাদের। যে দুজন উইকেটে আছে, তারা ওদের সেরা ব্যাটসম্যান। যত দ্রুত ওদের আউট করতে পারবো, ততো সুযোগ থাকবে আমাদের। ’ তামিমের বলেন, ‘আমাদের পুঁিজ কম না। একটা দিন আগে হলেও ২৬০ রানে আমরা খুশি থাকতাম। কিন্তু আজকে আমাদের কাছে সুযোগ ছিলো। লিড বাড়িয়ে ৩০০এর বেশি করার। সেদিক দিয়ে কিছুটা হতাশ। ৩০০ হলে সুবিধা হতো। ’ অস্ট্রেলিয়ার বিপক্ষে ঢাকা টেস্টের দুই ইনিংসে ৭১ ও ৭৮ রানে আউট হন তামিম। আজও সেঞ্চুরির সম্ভাবনা জাগিয়ে খালি হাতেই ফিরেন তিনি। তাই সেঞ্চুরি না পারার হতাশায় তামিম, ‘আজ যেভাবে আউট হয়েছি, সেটা নিয়ে প্রশ্ন নিয়ে থাকা উচিত নয়। কারণ আমার নিয়ন্ত্রণে ছিলো না। প্রথম ইনিংসেরটাও। তবে আমি যেভাবে ব্যাটিং করেছি, সেঞ্চুরি পেলে অবশ্যই খুশি হতাম। যেভাবে আমি ব্যাটিং করেছি, আমি একটা সেঞ্চুরি পেতেই পারতাম। কিন্তু এই উইকেটে কিছুই নিশ্চিত নয়। ’ দ্বিতীয় ইনিংসে অস্ট্রেলিয়া ভালো ব্যাটিং করছে বলে জানান তামিম। তিনি বলেন, ‘অস্ট্রেলিয়া আজ ভালো ব্যাটিং করেছে। আমরা দুইটা উইকেট নিয়ে খুব ভালো বোলিং করেছি। তবে দুইটা উইকেট নেয়ার পর আমরা আরো ভালো বোলিং করতে পারতাম। আসলে এখানকার উইকেট খুবই আনপ্রেডিক্টেবল। যে কোনো কিছু ঘটতে পারে। অস্ট্রেলিয়ার সেরা দুই ব্যাটসম্যান কাল খেলতে নামবে। আমরা যদি দ্রুত তাদের আউট করতে পারি ১৫০ রান খুব কম নয়।’

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ