ঢাকা, বৃহস্পতিবার 07 September 2017, ২৩ ভাদ্র ১৪২8, ১৫ জিলহজ্ব ১৪৩৮ হিজরী
Online Edition

পাতাকুঁড়ি বিনোদন পার্কের ম্যানেজারকে আটকের পর ছেড়ে দেয়া হলো

সৈয়দপুর (নীলফামারী) সংবাদদাতা : নীলফামারীর সৈয়দপুরের বাইপাস সড়কের পাশে বিনোদন পার্ক ‘পাতাকুঁড়ি’র ম্যানেজার জিকরুল হককে (৫৫) আটক করেছে পুলিশ।  মঙ্গলবার (৫ সেপ্টেম্বর) সন্ধ্যায় বিনোদন পার্ক থেকে তাকে আটক করা হয়। পরে তাঁকে ছেড়ে দেয়া হয়।
সূত্র মতে, সৈয়দপুর শহরের পৌর এলাকায় জনৈক জয়নাল আবেদীন নিজের কৃষি জমিতে গড়ে তোলে ওই বিনোদন পার্কটি। বিগত প্রায় তিন মাস থেকে পৌরসভা কিংবা সংশ্লিষ্ট মন্ত্রণালয়ের অনুমোদন ছাড়াই প্রতি দর্শনার্থীদের কাছে ৩০ টাকা হারে প্রবেশ মূল্য নিয়ে প্রশাসনকে বৃদ্ধাঙ্গলী দেখিয়ে পার্কটি পরিচালিত হয়ে আসছিল।
সূত্র জানায়, ঈদুল আযহার দিন থেকে পার্কের ভিতরে যাদু প্রদর্শনীর নামে অশ্লীল নৃত্য প্রদর্শন করা হয়। এতে পরিবার-পরিজন নিয়ে বেড়াতে আসা দর্শনার্থীরা বিব্রতবোধ করায় বিষয়টি সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের হস্তক্ষেপ কামনা করেন। অপরদিকে দিনের বেলায় কটেজগুলোতে তরুন-তরুনীদের অবাধ বিচরনে এলাকাবাসীদের মাঝে ক্ষোভের সৃষ্টি হয়।
পুলিশের একটি সূত্র জানায়, গোপন সংবাদের ভিত্তিতে অনুমোদনহীন এই পার্কের ভিতরে যাদু প্রদর্শনীর নামে অশ্লীল নৃত্যের এমন খবর পেয়ে অভিযান চালানো হয়। এ সময় ওই পার্কের ব্যবস্থাপকের দায়িত্বে থাকা জিকরুল হককে আটক করা হয়।
সৈয়দপুর থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) আমিরুল ইসলাম ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে জানান, পার্কের ব্যবস্থাপককে আটকের পর স্থানীয় এমপির মুচলেকায় ছেড়ে দেওয়া হয়েছে। তবে মালিকের বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হচ্ছে। পার্কের জন্য অনুমোদনের কাগজপত্র প্রদর্শন না করা পর্যন্ত দর্শনার্থীদের জন্য ওই পার্কটি  বন্ধ থাকবে।
ডিবি পুলিশ আটক : নীলফামারীর সৈয়দপুর ১০০ শয্যা হাসপাতাল থেকে মঙ্গলবার বিকেলে সবুজ (৩২) নামে একজন ভুয়া ডিবি পুলিশকে কে আটক করে পুলিশের হাতে সোপার্দ করেছে হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ। সে রংপুরের সিও বাজারের সুমন আহমেদের পুত্র।
সৈয়দপুর ১০০ শয্যা হাসপাতালের দায়িত্বরত চিকিৎসক রেবেকা সুলতানা জানান, ওই ব্যক্তি নিজেকে ডিবি অফিসার পরিচয় দিয়ে হাসপাতালের জরুরী বিভাগে আসেন। সেখানে তিনি হাত কেটে সেলাইয়ের কথা বলেন। এতে অস্বীকৃতি জানানো হলে গালিগালাজ করেন। এ অবস্থায় বিষয়টি থানা পুলিশকে জানানো হলে তাকে আটক করে নিয়ে যায়। 
সৈয়দপুর থানার অফিসার ইনচার্জ আমিরুল ইসলাম বিষয়টি নিশ্চিত করে জানান, বিষয়টি তদন্ত করে দেখা হচ্ছে।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ