ঢাকা, রোববার 10 September 2017, ২৬ ভাদ্র ১৪২8, ১৮ জিলহজ্ব ১৪৩৮ হিজরী
Online Edition

সিলেটে দিনভর বৃষ্টিতে জনদুর্ভোগ 

সিলেট ব্যুরোঃ গত শুক্র ও গতকাল শনিবার দু’দিনের টানা বৃষ্টিতে সিলেটবাসীর মধ্যে প্রচন্ড গরমে স্বস্থি আসলেও চরম ভোগান্তিতে পড়েছেন মহানগরবাসী। রাস্তায় পানি জমে চলাচলে দুর্ভোগ পোহাতে হচ্ছে মানুষকে। গতকাল শনিবার সিলেটে থেমে থেমে, কখনও হালকা, কখনো ভারি বৃষ্টিপাত হয়েছে। গত শুক্রবারও সিলেটে প্রচুর বৃষ্টি হয়। এতে চলাচলে ভোগান্তিতে পড়েন স্কুল-কলেজের শিক্ষার্থী ও বিভিন্ন শ্রেণী পেশার মানুষকে। তবে সিলেটে অন্তত আরো ১০ দিন বৃষ্টিপাত হতে পারে বলে আবহাওয়া অফিস সূত্রে জানা যায়। 

নগরীর প্রায় অধিকাংশ ভাঙাচুড়া সড়কের গর্তে পানি জমে যানবাহন চলাচলেও ব্যাঘাত ঘটছে। বিভিন্ন স্থানে সৃষ্টি হয়েছে জলাবদ্ধতা। ড্রেনের ময়লা পানির সঙ্গে বৃষ্টির পানি মিশে মানুষের বাসা-বাড়িতে ঢুকছে। দূষিত এই পানিতেই যাতায়াত করছেন নারী-শিশুসহ সব বয়সের মানুষ। দিনভর গুড়িগুড়ি বৃষ্টি উপেক্ষা করেও অনেকেই বাসা থেকে বের হয়ে নিজ নিজ কর্মস্থলে গেছেন। তবে অন্যদিনের  তুলনায় শনিবার সরকারি ছুটির দিন হওয়ায় নগরীতে লোকজনের সংখ্যা কম ছিল। বিশেষ প্রয়োজনে যারা বের হয়েছেন তাদেরকে অতিরিক্ত রিকশা ভাড়া বহন করতে হয়েছে। বৃষ্টির অজুহাতে যাত্রীদের কাছ থেকে অতিরিক্ত ভাড়া আদায় করে নেয় রিকশা ও সিএনজি অটোরিক্সা চালকরা। নগরীর  সোবহানীঘাট পয়েন্ট তথা ইবনে সিনা হাসপাতালের সামনে থেকে বন্দরবাজারস্থ কুদরত উল্লাহ মার্কেটের সামনে এসে রিকশা চালককে ২০ টাকা দিতে হয়েছে বলে শোনা গেল দক্ষিণ সুরমার হাসান মিয়ার কাছ থেকে। এ ধরনের অভিযোগ অনেক যাত্রী সাধারণের।

এ বিষয়ে সিলেট আবহাওয়া অফিসের আবহাওয়াবিদ সাঈদ আহমদ গণমাধ্যমকে বলেন, শনিবার থেকে ১০ দিন হালকা বৃষ্টি অথবা গুঁড়িগুঁড়ি বৃষ্টিপাতের সম্ভাবনা রয়েছে।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ