ঢাকা, বৃহস্পতিবার 14 September 2017, ৩০ ভাদ্র ১৪২8, ২২ জিলহজ্ব ১৪৩৮ হিজরী
Online Edition

খুলনায় কোচিং শিক্ষা ব্যবস্থায় হস্তক্ষেপের প্রতিবাদে মানববন্ধন

খুলনা অফিস: খুলনা মহানগরীতে কোচিং শিক্ষা ব্যবস্থায় হস্তক্ষেপের প্রতিবাদে মানববন্ধন কর্মসূচি পালিত হয়েছে। গতকাল সোমবার সকাল ১১টায় নগরীর শিববাড়ি মোড়ে এ মানববন্ধন কর্মসূচি পালিত হয়। 

মানববন্ধন কর্মসূচির আহবায়ক শ্যামল কুমার রায় এর সভাপতিত্বে ও কেএমএ জলিলের সঞ্চালনায় মানববন্ধনে একাত্মতা প্রকাশ করে বক্তব্য রাখেন খুলনা সদর থানা আওয়ামী লীগের সভাপতি এডভোকেট মো. সাইফুল ইসলাম, খুলনা মহানগর ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক এস,এম আসাদুজ্জামান রাসেল। 

এতে অন্যান্যের মধ্যে বক্তব্য দেন-সিনিয়র সহ-সভাপতি শ্যামা প্রসাদ রায়, সহ-সভাপতি অসিত রায়, দায়িত্বপ্রাপ্ত সাধারণ সম্পাদক মো. জাহাঙ্গীর আলম, সহ-সাধারণ সম্পাদক মুকুল রায়, কোষাধ্যক্ষ নির্মল কুমার রায়,  সাংগঠনিক সম্পাদক শাহরিয়ার শামীম রাজা, সহ-সাংগঠনিক সম্পাদক রতন পাল, প্রচার সম্পাদক সরোজিত মন্ডল শুভ, দৌলতপুর শাখার সভাপতি মো. রাবিউল ইসলাম ও সাধারণ সম্পাদক নাজমুল হুদা, খালিশপুর শাখার সভাপতি মো. জাহাঙ্গীর হোসেন ও সাধারণ সম্পাদক এ এইচ এম ডালিম প্রমুখ। কর্মসূচিতে খুলনা শহরের সচেতন অভিভাবক ও বিভিন্ন কোচিং এর পরিচালক ও শিক্ষক বৃন্দসহ স্থানীয় গণ্যমান্য রাজনীতিবিদ ও পেশাজীবী সংগঠনের নেতৃবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন। 

মানববন্ধনে বলা হয়, স্কুল-কলেজ শিক্ষকদের কোচিং বাণিজ্য বন্ধের নীতিমালা-২০১২ বাস্তবায়ন না করে, শুধুমাত্র খুলনার শিক্ষিত বেকার যুবকদের একমাত্র আত্মকর্মসংস্থান কোচিং-এ পাঠদানের উপর হস্তক্ষেপ করা হয়েছে। এজন্য  কোচিংয়ে পাঠদানকারী শিক্ষক ও অভিভাবকদের মধ্যে মিশ্র প্রতিক্রিয়া ও ক্ষোভের সৃষ্টি হয়েছে। তারই ফলশ্রুতিতে উক্ত মানববন্ধনের মাধ্যমে তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানানো হয়।

 বর্তমান প্রবর্তিত সৃজনশীল শিক্ষা ব্যবস্থা পদ্ধতিতে কোচিং ব্যবস্থার কোনো বিকল্প নেই। বছরে যেখানে ২২৮ দিন শিক্ষা প্রতিষ্ঠান বন্ধ থাকে, সেখানে কোচিং সেন্টারগুলো ঈদ, পূজা ও জাতীয়  দিবসগুলো ব্যতীত সারা বছর নিরলস পরিশ্রম করে শিক্ষার্থীদের ভালো ফলাফল করতে সহায়তা করে থাকে।

বক্তারা জোর দিয়ে বলেন, কোচিং সেন্টার কখনোই স্কুলের প্রতিপক্ষ নয়, বরং একটি সহায়ক ছায়া শিক্ষাকেন্দ্রে। পিইসি, জেএসসি, এসএসসি, এবং বার্ষিক পরীক্ষার পূর্ব মুহুর্তে কোনো প্রকার আত্মপক্ষ সমর্থনের সুযোগ না দিয়ে খুলনায় কোচিং ব্যবস্থায় হস্তক্ষেপের কারণে শিক্ষার্থী, শিক্ষার্থী, শিক্ষক  ও অভিভাবকরা উৎকন্ঠা ও উদ্ধেগের মধ্যে দিয়ে দিন কাটাচ্ছে। উক্ত মানববন্ধনে উপস্থিত সকলে কোচিং ব্যবস্থায় হস্তক্ষেপ না করার জন্য স্থানীয় প্রশাসনের প্রতি জোর আবেদন জানান।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ