ঢাকা, বৃহস্পতিবার 28 September 2017, ১৩ আশ্বিন ১৪২8, ০৭ মহররম ১৪৩৮ হিজরী
Online Edition

সব টাকা না পাওয়া পর্যন্ত তদন্ত প্রতিবেদন প্রকাশ করা হবে না

স্টাফ রিপোর্টার : রিজার্ভ চুরির পুরো অর্থ ফেরত পেতে ফিলিপিন্সের বর্তমান সরকারের প্রতি বাংলাদেশ আস্থা রাখছেন বলে জানিয়েছেন অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আবদুল মুহিত। একইসঙ্গে সব অর্থ ফেরত না পাওয়া পর্যন্ত সাবেক গর্বনর মোহাম্মদ ফরাসউদ্দিনের নেতৃত্বে গঠিত এ সংক্রান্ত তদন্ত প্রতিবেদনও প্রকাশ করা হবে না বলেছেন তিনি।
গতকাল বুধবার সচিবালয়ের সরকারি ক্রয় সংক্রান্ত মন্ত্রিসভা কমিটির বৈঠক শেষে সাংবাদিকদের প্রশ্নে মুহিত বলেন, প্রতিবেদন জলদি বেরুবে না। কারণ আই ওয়ান্ট টু মেক শিউর যে টাকাটা আমরা পাই। তিনি বলেন, আমরা এই সরকারকে বিশ্বাস করছি এবং সেভাবেই চলছি। ফিলিপাইনের প্রেসিডিন্টও এ নিয়ে কথা বলেছে, এজন্য আশা করছি সব টাকাই পাব। গত বছরের ফেব্রুয়ারিতে সাইবার জালিয়াতির মাধ্যমে যুক্তরাষ্ট্রের ফেডারেল রিজার্ভ ব্যাংক অব নিউ ইয়র্কে রাখা বাংলাদেশের রিজার্ভের ৮ কোটি ১০ লাখ ডলার ফিলিপিন্সের রিজল ব্যাংক হয়ে বেহাত হয়। ওই অর্থের অধিকাংশ চলে যায় জুয়ার টেবিলে।
রিজার্ভের পুরো অর্থ ফেরতে বাংলাদেশ ব্যাংকের বেশ কয়েকটি প্রতিনিধি দল কয়েক দফা ফিলিপিন্স সফর করেছে। নতুন একটি দল ফের দেশটিতে যাবে বলে জানান অর্থমন্ত্রী মুহিত। তিনি বলেন, এখন বোধহয় একটা টিম যাচ্ছে। তারা ৪০ মিলিয়নের মত পাবে। ৮১ মিলিয়নের পুরোটাই আমরা পাব। সব টাকা না পাওয়া পর্যন্ত প্রতিবেদন প্রকাশ করা হবে না। তবে এবার কাদের নিয়ে গঠিত দল ফিলিপিন্স যাবে সেবিষয়ে কিছু বলেননি মুহিত।
চলতি অর্থবছরে ৬ দশমিক ৪ শতাংশের বেশি প্রবৃদ্ধি হবে না বলে বিশ্ব ব্যাংক পূর্বাভাস দিলেও তা মানছেন না অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আবদুল মুহিত। তিনি বলেন, এটা প্রত্যেক বছরই তারা করে, প্রত্যেক বছরই আমি একই মার্ক দেই, এবারও তাই দিচ্ছি। তাদের স্টেটমেস্টস আর ওলয়েজ লোয়ার দেন হোয়াট হ্যাপেন্স। এটা জাস্টিফাইড... এজন্য যে তারা নিজেদের সূত্রে এসব খবর দেয়। সরকার ৭ দশমিক ৪ শতাংশ প্রবৃদ্ধি অর্জনের লক্ষ্য ঠিক করেছে জানিয়ে মুহিত বলেন, বিশ্ব ব্যাংক, এডিবিসহ পুরো বিশ্ব সেটাই গ্রহণ করে নেয়।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ