ঢাকা, বুধবার 4 October 2017, ১৯ আশ্বিন ১৪২8, ১৩ মহররম ১৪৩৮ হিজরী
Online Edition

চিরিরবন্দরে স্বামীর নির্যাতনে আহত হয়ে স্ত্রী হাসপাতালে

চিরিরবন্দর (দিনাজপুর) সংবাদদাতা: দিনাজপুরের চিরিরবন্দরে সিনিগ্ধা রাণী সেন (৩০) নামের এক গৃহবধূ যৌতুকের দাবিতে পাষন্ড স্বামীর নির্যাতনের শিকার হয়ে গুরুতর আহত অবস্থায় রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি হয়ে হাসপাতালের বিছানায় কাতরাচ্ছে। সিনিগ্ধা রাণী উপজেলার নশরতপুর বালাপাড়ার রণজিত কুমার রায়ের স্ত্রী ও একই এলাকার ধীজেন্দ্র নাথ সেনের মেয়ে। এ ঘটনায় সিনিগ্ধা রাণীর ভাই দীপক চন্দ্র সেন গত ১৬ আগষ্ট শনিবার বাদী হয়ে চিরিরবন্দও থানায় একটি অভিযোগ দায়ের করেছেন।
অভিযোগ সূত্রে জানা গেছে, সিনিগ্ধার বিয়ের পর অল্প কিছুদিন ভালোভাবে তাদের দিন কাটলেও যৌতুকের দাবিতে রণজিত তাকে প্রতিনিয়ত মারপিট ও শারিরীক নির্যাতন করতো। ঘটনার দিন গত ১১ আগষ্ট সোমবার রণজিত  একটি মোটর সাইকেল দুই ভরি স্বর্ণ নগদ ৫ লক্ষ টাকা তার পিতার কাছ থেকে নিয়ে আসার জন্য ভীষনভাবে চাপ শুরু করে। তার এ দাবী পূরণ না হলে অন্যত্র আরেকটি বিয়ে করলে ৮ লক্ষ টাকা যৌতুক পাবে বলেও  হুমকি দেয়। তার এ হুমকির প্রতিবাদ করায় তাকে এলোপাতাড়ি মারপিঠ শুরু করে ও মাথার চুল ধরে মাটিতে ফেলে টানা হেচড়া শুরু করলে সিনিগ্ধা জ্ঞান হারিয়ে ফেলে। পরিস্থিতি বেগতিক দেখে রণজিত নিজেই সঙ্গে সঙ্গে সিনিগ্ধাকে গুরত্বর আহত অবস্থায় দিনাজপুর এম আব্দুর রহিম মেডিকেল হাসপাতালে ভর্তি করায়। অবস্থার কোন উন্নতি না হলে কর্তব্যরত চিকিৎসক উন্নত চিকিৎসার জন্য রংপুর মেডিকেল হাসপাতালে রেফার্ড করে।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ