ঢাকা, শনিবার 7 October 2017, ২২ আশ্বিন ১৪২8, ১৬ মহররম ১৪৩৮ হিজরী
Online Edition

বিমান বন্দরে শেখ হাসিনার সংবর্ধনা আজ

স্টাফ রিপোর্টার: প্রধানমন্ত্রী ও আওয়ামী লীগ সভাপতি শেখ হাসিনাকে আজ ব্যাপক গণসংর্ধনা দেয়া হবে। আওয়ামী লীগের নেতাকর্মীরা সকালে বিমানবন্দর থেকে গণভবন পর্যন্ত সড়কের দুই পাশে অবস্থান নিয়ে শেখ হাসিনাকে গণসংবর্ধনা ও শুভেচ্ছা জানাবেন। এ উপলক্ষে দলের পক্ষ থেকে সকল প্রস্তুতি ইতোমধ্যেই সম্পন্ন করা হয়েছে। জাতিসংঘের সাধারণ পরিষদের ৭২তম অধিবেশনে যোগদান শেষে প্রধানমন্ত্রী আজ শনিবার দেশে ফিরছেন।

সকাল ৯টা ২৫ মিনিটে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার দেশে ফেরার কথা রয়েছে। এই দিন বিমান বন্দর থেকে গণভবন পর্যন্ত রাস্তার দুই পাশে দাঁড়িয়ে দলীয় নেতাকর্মীরা তাকে শুভেচ্ছা জানাবেন।

 রোহিঙ্গাদের প্রতি প্রধানমন্ত্রীর মানবিক আচরণের জন্য ব্রিটিশ পত্রপত্রিকা শেখ হাসিনাকে ‘মাদার অব হিউম্যানিটি’ আখ্যায়িত করেছে। সংযুক্ত আরব আমীরাতের (ইউএই) সর্বাধিক প্রচারিত দৈনিক (খালিজ টাইমস) রোহিঙ্গা সংকটেরপ্রতি মানবিক আবেদনের জন্য বাংলাদেশেরপ্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে উচ্ছ্বসিত প্রসংসা করে তাঁকেপ্রাচ্যের নতুন তারকা হিসাবে অভিহিত করেছে। এছাড়াও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা জাতিসংঘের সাধারণ পরিষদের ৭২তম অধিবেশনে রোহিঙ্গাদের নিরাপত্তা ও তাদের ফেরত নিতে জাতিসংঘ সাধারণ পরিষদে তাঁর দেয়া ৫ দফা প্রস্তাব বিশ্ব নেতৃবৃন্দের কাছে ব্যাপক গ্রহণযোগ্যতা পায়। এসব কারণে আওয়ামী লীগ প্রধানমন্ত্রীকে সংবর্ধনা দেয়ার সিদ্ধান্ত গ্রহণ করে।

আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের এক বিবৃতিতে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে বরণ করতে দলের সকল নেতাকর্মীকে সকাল সাড়ে ৮টার মধ্যে স্ব-স্ব স্থানে অবস্থান নিয়ে সংবর্ধনা অনুষ্ঠান সফল করার আহ্বান জানিয়েছেন।

সংবর্ধনার প্রস্তুতি বিষয়ে আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মাহবুব উল আলম হানিফ বলেন, লাখ লাখ মানুষের উপস্থিতি থাকবে ফুলেল শুভেচ্ছা জানানোর জন্য। দলের পক্ষ থেকে আমরা ইতোমধ্যেই সকল সহযোগী সংগঠন এবং সকল নেতাকর্মীদের অনুরোধ করেছি যে, তারা যেন রাস্তার দু’পাশে ফুটপাতে দাঁড়িয়ে থেকেই শুভেচ্ছা জানান, কেউ যাতে রাস্তার মধ্যে না দাঁড়ান এবং এতে যানজট তৈরি না হয়। ইতোমধ্যে দলের সব ধরনের প্রস্তুতি শেষ হয়েছে বলেও জানান তিনি।

আওয়ামী লীগের ঢাকা বিভাগীয় সাংগঠনিক সম্পাদক ব্যারিস্টার মুহিবুল হাসান চৌধুরী নওফেল সংবর্ধনার প্রস্তুতির বিষয়ে বলেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে সংবর্ধনা জানানোর জন্য প্রয়োজনীয় সকল প্রস্তুতি সম্পন্ন করা হয়েছে।

সংবর্ধনা সফল করার লক্ষ্যে গত কয়েক দিন ধরেই ধারাবাহিকভাবে পৃথক পৃথক প্রস্তুতি সভা করেছে আওয়ামী লীগ, কেন্দ্রীয় ১৪ দল, ঢাকা মহানগর উত্তর ও দক্ষিণ আওয়ামী লীগ, আওয়ামী যুবলীগ, আওয়ামী স্বেচ্ছাসেবক লীগ, ছাত্রলীগসহ বিভিন্ন সংগঠন।

সংবর্ধনা অনুষ্ঠানে দলীয় নেতাকর্মীদের অবস্থানের বিষয়ে আওয়ামী লীগের উপদপ্তর সম্পাদক ব্যারিস্টার বিপ্লব 

বড়–য়া জানান, ঢাকা মহানগর আওয়ামী লীগ উত্তরের নেতাকর্মীরা বিমানবন্দর হোটেল রেডিসন পর্যন্ত, হোটেল রেডিসন থেকে কাকলী পর্যন্ত আওয়ামী স্বেচ্ছাসেবক লীগ, কাকলী থেকে মহাখালী-জাহাঙ্গীর গেট পর্যন্ত বাংলাদেশ ছাত্রলীগ, জাহাঙ্গীর গেট থেকে প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয় পর্যন্ত আওয়ামী যুবলীগ, প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয় থেকে গণভবন পর্যন্ত ঢাকা মহানগর আওয়ামী লীগ দক্ষিণের নেতাকর্মীরা অবস্থান গ্রহণ করবেন।

জাতিসংঘের সাধারণ অধিবেশনে যোগ দিতে গত ১৬ সেপ্টেম্বর যুক্তরাষ্ট্র সফরে যান প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা এবং ১৭ সেপ্টেম্বর নিউউয়র্কে পৌঁছান। ২১ সেপ্টেম্বর জাতিসংঘের সাধারণ অধিবেশনে বাংলায় বক্তব্য দেন তিনি। পাশাপাশি বিভিন্ন গুরুত্বপূর্ণ সভা ছাড়াও বেশ কয়েকজন সরকার ও রাষ্ট্রপ্রধানের সঙ্গে দ্বিপক্ষীয় বৈঠকে অংশ নেন প্রধানমন্ত্রী। সাধারণ অধিবেশনে বক্তৃতায় মিয়ানমারের রোহিঙ্গা সংকট মোকাবেলায় ৫ দফা প্রস্তাব বিশ্ব সম্প্রদায়ের কাছে তুলে ধরেন শেখ হাসিনা। সাধারণ অধিবেশন শেষে ২২ সেপ্টেম্বর নিউইয়র্ক থেকে ভার্জিনিয়ায় যান তিনি। সেখানে যাওয়ার পর হঠাৎ অসুস্থ হয়ে পড়লে ২৫ সেপ্টেম্বর একটি হাসপাতালে তার পিত্তথলিতে অস্ত্রোপচার হয়। সেখান থেকে শেখ হাসিনা গত ৩ অক্টোবর লন্ডনে যান।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ