ঢাকা, শনিবার 14 October 2017, ২৯ আশ্বিন ১৪২8, ২৩ মহররম ১৪৩৮ হিজরী
Online Edition

কাপাসিয়ায় ৯ ডাকাতকে গণপিটুনি দিয়ে পুলিশে সোপর্দ

গাজীপুর সংবাদদাতা : গাজীপুরের কাপাসিয়ায় ডাকাতি করে পালানোর সময় ৯ ডাকাতকে আটক করেছে গ্রামবাসী। পরে তাদেরকে গণপিটুনি দিয়ে পুলিশে সোপর্দ করা হয়েছে। এ সময় ডাকাতদের হামলায় গৃহকর্তা চাঁন মিয়া ওরফে চানু বেপারী (৬৫), তার ভাই হেলাল মিয়া (৪৭) ও তার স্ত্রী মনোয়ারা বেগম (৪৫) আহত হন। আহতদের হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।
কাপসিয়া থানার ওসি মো আবু বকর সিদ্দিক ও এলাকাবাসী জানান, কাপাসিয়া উপজেলার বড়জোনা গ্রামে বৃহষ্পতিবার গভীর রাতে একদল ডাকাত গাড়ি নিয়ে হানা দেয়। ডাকাতরা ওই গ্রামের চানু বেপারীর বাড়ির কলাপসিবল গেইট কেটে এবং দরজা ভেঙ্গে ভিতরে প্রবেশ করে। এসময় বাধা দিলে ডাকাতদের ধারালো অস্ত্রের আঘাতে ও এলোপাতাড়ি মারধরে গৃহকর্তা চান মিয়া ওরফে চানু বেপারী (৬৫), তার ভাই হেলাল মিয়া (৪৭) ও তার স্ত্রী মনোয়ারা বেগম (৪৫) আহত হন। পরে ডাকাতরা বাড়ির লোকজনকে অস্ত্রের মুখে জিম্মি করে বাড়ি থেকে বিভিন্ন মালামাল লুট করে পালিয়ে যেতে থাকে। এসময় বাড়ির লোকজনের ডাক-চিৎকারে আশেপাশের লোকজন এগিয়ে আসে। পরে এলাকাবাসী তিলসুনিয়া এলাকায় সড়কে বেরিকেড দিয়ে ডাকাতদের গাড়ির গতিরোধ করে। এসময় ডাকাতরা গাড়ি থেকে নেমে পালানোর চেষ্টা করলে গ্রামবাসী ডাকাত দলের তাজুল ইসলাম (২৫), সফিকুল ইসলাম (৩৫), সুলতান (২৫), মিলন (২৬), কবির (২৫), আলম (২৩) ও আলী হোসেন (২৬)সহ ৯ ডাকাতকে আটক করে গণপিটুনি দেয়। খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে পৌঁছে আটককৃতদের জনরোষ থেকে উদ্ধার করে এবং উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে চিকিৎসার জন্য নিয়ে যায়। এ সময় ডাকাতদের ব্যবহƒত গাড়ি এবং ডাকাতির মালামাল জব্দ করা হয়। এদিকে ডাকাতদের হামলায় আহত চানু মিয়া, তার স্ত্রী ও ভাই হেলালকে একই হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। 
কাপাসিয়া উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা আব্দুস সালাম সরকার জানান, আহতদের মধ্যে গৃহকর্তা চানু বেপারীর বাম হাতে ধারলো অস্ত্রের আঘাত রয়েছে। আর ডাকাত সদস্য তাজুল ইসলাম (২৫), সফিকুল ইসলাম (৩৫), সুলতান (২৫), মিলন (২৬), কবির (২৫), আলম (২৩) ও আলী হোসেনকে (২৬) প্রাথমিক চিকিৎসার পর পুলিশ থানায় নিয়ে গেছে।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ