ঢাকা, রোববার 15 October 2017, ৩০ আশ্বিন ১৪২8, ২৪ মহররম ১৪৩৮ হিজরী
Online Edition

বগুড়ায় মাড়োয়ারী ধর্মশালার নামে দখল করা শত কোটি টাকার সম্পত্তি দখলমুক্ত

বগুড়া অফিস : বগুড়া শহরের জিরোপয়েন্ট সাতামথায় শত কোটি টাকা মূল্যের ২৮ শতাংশ জমি রাতের আঁধারে জবর দখলকারী মাড়োয়ারী ধর্মশালার কবল থেকে উদ্ধার করেছে জেলা প্রশাসন। তথাকথিক ধর্মশালার সাাইনবোর্ড খুলে ফেলে সেখানে জেলা প্রশাসনের সাইনবোর্ড টানানো হয়েছে। শনিবার দুপুরে বগুড়া সদরের সহকারী কমিশনার (ভূমি) হাবিবুল হাসান রুমির নেতৃত্বে অভিযান চালিয়ে এসব উচ্ছেদ করা হয়।
অভিযান পরিচালনাকারী কর্মকর্তা হাবিবুল হাসান রুমি জানান, বগুড়া শহরের সাতমাথায় বৃহস্পতিবার গভীর রাতে যুবলীগ ক্যাডারদের সহায়তায় মাড়োয়ারী ধর্মশালার নামে শতকোটি টাকা মূল্যের  যে ২৮ শতক জায়গা দখল কাগজপত্র পর্যালোচনার পর অবৈধ বলে  ঘোষণা করা হয়েছে। তিনি বলেন, মাড়োয়ারী ধর্মসভার নেতৃবৃন্দ তাদের দখলের স্বপক্ষে কোন কাগজপত্র দেখাতে পারেনি। ওই সম্পত্তি এখনও অর্পিত 'ক' তালিকাভুক্ত। তাই শনিবার সকাল ১০টার মধ্যে দখল সরিয়ে নিতে বলা হয়েছিল। তারা স্থাপনা সরিয়ে না নেওয়ায় জেলা প্রশাসকের নির্দেশে অবৈধ স্থাপনা উচ্ছেদ করা হয়েছে। এসময় বগুড়া অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (রাজস্ব) আমিনুল ইসলাম, বগুড়া সদর থানার ইন্সপেক্টর (অপারেশন) আবুল কালাম আজাদসহ প্রশাসনের বিভিন্ন পর্যায়ের কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।
উল্লেখ্য, বৃহস্পতিবার গভীর রাতে যুবলীগের শতাধিক নেতাকর্মী মাড়োয়ারী ধর্মশালার নামে শত কোটি টাকা মূল্যের এই সম্পত্তি জোরপূর্বক দখল করে সেখানে প্রাচীর নির্মাণ করে নিজেদের সাইনবোর্ড ঝুলিয়ে দেয়। এরপরই বিষয়টি সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ভাইরাল হয়ে যায়। বিভিন্ন মিডিয়া খবরটি গুরুত্বের সাথে প্রকাশের পর প্রশাসনের টনক নড়ে। অভিযোগ রয়েছে, জায়গাটি দখলের সময় জেলা যুবলীগের সভাপতি এবং সাবেক সাধারণ সম্পাদক সেখানে উপস্থিত ছিলেন। এমনকি পুলিশ প্রশাসনের সামনেই জবর দখলের ঘটনা ঘটলেও তারা রহস্যজনক নিরবতা পালন করেছেন বলেও অভিযোগ উঠেছে।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ