ঢাকা, মঙ্গলবার 17 October 2017, ২ কার্তিক ১৪২8, ২৬ মহররম ১৪৩৮ হিজরী
Online Edition

বিএনপিকে নির্বাচনে আনার কৌশল হিসেবেও বলতে পারেন ---কাদের

 

স্টাফ রিপোর্টার: আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের বলেছেন, প্রধান নির্বাচন কমিশনার জিয়াউর রহমানকে বহুদলীয় গণতন্ত্রের প্রবক্তা বলেছেন কিনা সেটি নিশ্চিত হতে হবে। তবে বিএনপিকে নির্বাচনে আনার কৌশল হিসেবেও তিনি এটি বলতে পারেন।

গতকাল সোমবার বিকালে রাজধানীর কৃষিবিদ ইনস্টিটিউটে এক অনুষ্ঠান শেষে সাংবাদিকদের সঙ্গে আলাপকালে ওবায়দুল কাদের এই মন্তব্য করেন। এর আগে বিশ্ব খাদ্য দিবসের সেমিনারে যোগ দেন সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী। অনুষ্ঠানে আরও উপস্থিত ছিলেন কৃষিমন্ত্রী মতিয়া চৌধুরী।

 রোববার নির্বাচন কমিশনের সঙ্গে সংলাপে অংশ নেয় বিএনপি। সংলাপের সূচনা বক্তব্যে সিইসি কেএম নুরুল হুদা বলেন, জিয়াউর রহমানের নেতৃত্বে বিএনপি প্রতিষ্ঠিত হয়। তাতে অনেক রাজনৈতিক ব্যক্তিত্ব যুক্ত হন। এর মধ্য দিয়ে দেশে বহুদলীয় গণতন্ত্র পুনঃপ্রতিষ্ঠা লাভ করে।

জিয়া ও বিএনপির প্রশংসা করে সিইসি বলেন, প্রেসিডেন্ট ও দলনেতা হিসেবে জিয়াউর রহমান ছয় বছর রাষ্ট্র পরিচালনা করেছেন। ১৯৮১ সালের ৩০ মে জিয়াউর রহমানের মৃত্যুর পর বিএনপি প্রায় নয় বছর আন্দোলন সংগ্রাম চালিয়েছে। পরে ১৯৯১ সালে সংসদ নির্বাচনে বিএনপি জয়লাভ করে সরকার গঠন করে। বিএনপির চেয়ারপার্সন খালেদা জিয়া দেশের প্রথম নারী প্রধানমন্ত্রী হিসেবে দায়িত্ব পালন করেন। ২০০১ সালের সংসদ নির্বাচনে ২১০ আসনে জয়ী হয়ে খালেদা জিয়ার নেতৃত্বে বিএনপি দ্বিতীয়বারের মতো সরকার গঠন করে।

ওবায়দুল কাদের বলেন, বিএনপিকে নির্বাচনে আনতে এটি সিইসির একটি কৌশল হতে পারে। বিএনপির এখন খুশি খুশি ভাব। এটা যেন নির্বাচন পর্যন্ত বজায় থাকে। আমরা নির্বাচন কমিশনের কাছে নিরপেক্ষতা প্রত্যাশা করি, অনুগ্রহ নয়।

সিইসির মন্তব্যের বিষয়ে আওয়ামী লীগ জানতে চাইবে জানিয়ে তিনি বলেন, তিনি (সিইসি) এটি প্রেস ব্রিফিং এ বলেননি, বলেছেন ভেতরে। আমরাও মিটিংয়ে যাবো। তখন আমরা জানতে চাইবো তিনি আসলে কী বলেছেন।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ