ঢাকা, মঙ্গলবার 17 October 2017, ২ কার্তিক ১৪২8, ২৬ মহররম ১৪৩৮ হিজরী
Online Edition

চার বছরে গুম ও বিচারবহির্ভুত হত্যাকাণ্ড ১১৭০

স্টাফ রিপোর্টার : চলতি বছরের জুন মাস পর্যন্ত গত চার বছরে ১ হাজার ১৭০টি গুম ও বিচার বহির্ভূত হত্যাকান্ডের ঘটনা ঘটেছে। এর মধ্যে বিচার বহির্ভুত হত্যাকাণ্ড ৮২৩টি। আর ৩৪৭ জন ব্যক্তি গুমের শিকার হয়েছেন বলে জানিয়েছে বেসরকারি মানবাধিকার সংস্থা আইন ও সালিশ কেন্দ্র (আসক)।
গতকাল সোমবার সকালে রাজধানীর ব্র্যাক ইন সেন্টারে সংস্থাটি আয়োজিত ‘ডায়লগ উইথ জার্নালিস্ট অ্যান্ড হিউম্যান রাইটস ডিফেন্ডারস’ শীর্ষক কর্মশালায় এ তথ্য জানানো হয়। এ কর্মশালায় বিভিন্ন পর্যায়ের গণমাধ্যম ও মানবাধিকার কর্মীরা অংশ নেন।
আসক’র সমন্বয়ক আবু আহমেদ ফজলুল করিম বলেন, এসব ঘটনার সুষ্ঠু তদন্ত, অপরাধীর শাস্তি প্রদান ও ক্ষতিগ্রস্ত ব্যক্তিকে ক্ষতিপূরণের জন্য একটি স্বাধীন  কমিশন গঠনের সুপারিশ করা হলেও এক্ষেত্রে কোনো অগ্রগতি হয় নি।  
গুম ও বিচার বর্হ্ভিূত হত্যাকান্ড বন্ধে কয়েকটি সুপারিশ তুলে ধরে তিনি বলেন, গুম ও বিচার বহির্ভূত হত্যাকান্ডের ঘটনা অপরাধ হিসেবে শিকার করে নিতে হবে। অতি দ্রুত এ ধরনের মানবাধিকার লঙ্ঘনের বিষয়ে প্রয়োজনীয় আইনি সংস্কারের ব্যবস্থা করতে হবে।
মানবাধিকার রক্ষায় সাংবাদিকদের ভূমিকা তুলে ধরে আসক’র নির্বাহী পরিচালক শীপা হাফিজা বলেন, গণমাধ্যম হচ্ছে গণতান্ত্রিক রাষ্ট্রের অন্যতম স্তম্ভ। সাংবাদিকরা রাষ্ট্রের জবাবদিহিতা নিশ্চিত করেন। একটি দেশের সমাজের জবাবদিহিতার ব্যবস্থা না থাকলে সে দেশ ও সমাজে অন্যায় বেড়ে যায়। খুন, অপহরণ ও দুর্নীতিসহ সব রকমের অন্যায় ঘটে। জবাবদিহিতার মত দুরূহ বিষয়ে সাংবাদিকরা কাজ করে যাচ্ছে।
তিনি বলেন, সাংবাদিক ও গণমাধ্যমের কাছেই আমরা মানবাধিকার লঙ্ঘনের ঘটনাগুলো জানতে পারি। এমনকি তাদের প্রচারিত সংবাদের কারণে অনেক ঘটনার বিচার করা সম্ভব হয়েছে।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ