ঢাকা, রোববার 22 October 2017, ৭ কার্তিক ১৪২8, ১ সফর ১৪৩৯ হিজরী
Online Edition

এরশাদ আমলের আইন এত বছর পর টেনে না এনে পূর্বের ন্যায় হোল্ডিং ট্যাক্স নির্ধারণ করুন

চট্টগ্রাম অফিস: চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশন কর্তৃক অস্বাভাবিক হোল্ডিং ট্যাক্স বাতিল করে পূর্বের নিয়মে আদায় করার দাবীতে বন্দর এলাকার ইপিজেড চত্ত্বরে এক বিশাল প্রতিবাদ সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়। বর্ধিত গৃহকর প্রত্যাহার নাগরিক পরিষদ ৩৮ ও ৩৯ নং ওয়ার্ড শাখার যৌথ উদ্যোগে আয়োজিত এই প্রতিবাদ সভায় সভাপতিত্ব করেন সংগঠনের ৩৯ নং ওয়ার্ড শাখার আহবায়ক আনোয়ার আহমদ মামুন।
সমন্বয়কারী স্বরূপ দত্ত রাজুর সঞ্চালনায় উক্ত প্রতিবাদ সভায় প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন চট্টগ্রাম মহানগর আওয়ামী লীগের ধর্ম বিষয়ক সম্পাদক জহুর আহমদ কোম্পানী, বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন যথাক্রমে বন্দর থানা আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি শাহনেওয়াজ চৌধুরী, ইপিজেড থানা আওয়ামী লীগের যুগ্ম-আহবায়ক মোঃ আবু তাহের, বন্দর থানা আওয়ামী লীগের যুগ্ম-সাধারণ সম্পাদক হাজী মোঃ ইলিয়াছ, ৩৮ নং ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক হাজী মোঃ হাসান।সভায় প্রধান অতিথি বলেন, আপনার পূর্ববর্তী মেয়রগণের পথ অনুসরণ করে নগরীর গৃহকরকে যৌক্তিক পর্যায়ে নিয়ে আসুন। এই বর্ধিত করের বোঝা নগরীর দালান থেকে শুরু করে কুঁড়েঘর পর্যন্ত সবখানে বিস্মৃত হওয়ায় নগরীর পাড়া মহল্লায় অসন্তোষ ছড়িয়ে পড়ার সম্ভাবনা দেখা দিয়েছে বিধায় শুধু একজন মেয়র বা প্রশাসক হিসেবে নয় বরং একজন রাজনীতিবিদ হিসেবে আপনার সিদ্ধান্তের দিকে আমরা সবাই তাকিয়ে আছি। যে সিদ্ধান্ত হবে নাগরিক বান্ধব সিদ্ধান্ত।
 সভায় অন্যান্য বক্তারা বলেন, হুসাইন মুহম্মদ এরশাদের শাসনামলে প্রণীত আইনের কফিনটি এতো বছর পর এসে তাজা করার প্রয়োজন নাই। চট্টগ্রাম সিটি কর্পোরেশন একটি স্বায়ত্বশাসিত প্রতিষ্ঠান হওয়ায় আগের মেয়রগণ এই আইনটি বাস্তবায়ন করেননি। তাই এটি ডেড ল হিসেবে পরিচিত। নগরবাসী এই অস্বাভাবিক হোল্ডিং ট্যাক্সের বোঝা বইতে পারবেন না। এরশাদ সাহেবের ফেলে দেওয়া মরিচা ধরা গৃহকরের তলোয়ার দিয়ে মাননীয় প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনা সরকারের ঈর্ষনীয় অর্জনকে জবাই করে না দেওয়ার জন্য মান্যবর মেয়র মহোদয়ের প্রতি আহবান জানাচ্ছি।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ