ঢাকা, সোমবার 23 October 2017, ৮ কার্তিক ১৪২8, ২ সফর ১৪৩৯ হিজরী
Online Edition

সাতক্ষীরাতে জামায়াতের চার নেতাসহ আটক ৪৩ ॥ মামলা দায়ের

সাতক্ষীরা সংবাদদাতা : সাতক্ষীরার আশাশুনিতে জামায়াতের কথিত  গোপন বৈঠক করার সময় চার নেতা কর্মীকে আটক বলে দাবি করেছে পুলিশ। এ সময় সেখান থেকে ১৯ টি জিহাদি বই, চাঁদা আদায়ের রশিদ, রেজিষ্ট্রার খাতা ও বিভিন্ন খাতাপত্র উদ্ধার করা হয় বলে পুলিশ গণমাধ্যমকে জানায়। রোববার ভোরে আশাশুনি উপজেলার শ্রীউলা ইউনিয়নের হাড়িভাঙ্গা গ্রাম থেকে তাদেরকে আটক করা হয় বলে পুলিশের দাবী।
আটককৃতরা হলেন, আশাশুনি উপজেলা হাড়িভাঙ্গা গ্রামের মৃত জনাব আলির ছেলে আফছার উদ্দিন, বুধহাটা ইউনিয়নের বেউলা গ্রামের নজর উদ্দিন গাজীর ছেলে নজরুল গাজী, বাটরা গ্রামের বাবর আলী সরদারের ছেলে ইসমাইল সরদার ও শ্রীউলা গ্রামের ইমদাদ আলীর ছেলে আব্দুর রহমান।
 গ্রেফতার কৃতদের বিভিন্ন স্থান থেকে আটক করা হয় বলে জানা যায়। আফছার উদ্দিনের স্ত্রী রহিমা বেগম জানান,রাতে তাদের বাড়িতে এসে পুলিশ তার স্বামীকে আটক করে। পরে বিভিন্ন আলমারি থেকে ইসলামী সাহিত্য ও মূল্যবান কাগজ পত্র নিয়ে যায় পুলিশ। আব্দুর রহমানের স্ত্রী তানজিলা বেগম জানান,তার স্বামীকে বাড়ি থেকে গ্রেফতার করে পুলিশ। আটক চার জনকেই বিভিন্ন স্থান থেকে আটক করা হয়েছে। এছাড়া এরা প্রত্যেকই মুরব্বি। আব্দুর রহমানের বয়স ৭০ এর উপর। নাশকতা করতে পারে এমন লোক এলাকার সাধারণ লোক তা বিশ্বাস করতে পারছে না। তবে পুলিশের দাবী তারা নাশকতার চেষ্টা ও ষড়যন্ত্র করতে বঠৈক করছিল। আটককৃতদের বিরুদ্ধে এসআই আব্দুর রাজ্জাক বাদী হয়ে একটি মামলা দায়ের করেছে।
আশাশুনি থানার এসআই আব্দুর রাজ্জাক জানান, গোপন সংবাদের ভিত্তিতে পুলিশ শ্রীউলা গ্রামের আফছার উদ্দিনের বাড়িতে অভিযান চালায়। এ সময় উপজেলা পর্যায়ে জামায়াত নেতারা সেখানে গোপন বৈঠক করছিল। পুলিশের উপস্থিতি টের পেয়ে অনেকেই পালিয়ে যায়। এরপর সেখান থেকে উক্ত চার জামায়াত নেতাকে আটক করা হয়। এবং সেখান থেকে জিহাদি বই, লিফলেট ও রেজিষ্ট্রার খাতা উদ্ধার করা হয়েছে। বাকিদের গ্রেফতারের চেষ্টা চলছে বলে তিনি জানান। 
এদিকে জেলাব্যাপী পুলিশের বিশেষ আভিযানে ৪৩ জানকে আটক করা হয়েছে। 
শনিবার সন্ধ্যা থেকে  রোববার সকাল পর্যন্ত জেলার আটটি থানার বিভিন্ন স্থানে অভিযান চালিয়ে তাদের আটক করা হয় এবং বিভিন্ন অভিযোগে ১৮টি মামলা দায়ের করা হয়েছে।
পুলিশ জানান,সাতক্ষীরা সদর থানা থেকে ১২ জন,কলারোয়া থানা ০৬ জন,তালা থানা ০৪ জন,কালিগঞ্জ থানা ০২ জন,শ্যামনগর থানা ০২ জন,আশাশুনি থানা ০২ জন,দেবহাটা থানা ১০ পাটকেলঘাটা থানা থেকে ০২ জন ও জেলা গোয়েন্দা পুলিশ (ডিবি) ০৩ জনকে আটক করেছে।
সাতক্ষীরা জেলা পুলিশের বিশেষ শাখার পরিদর্শক মিজানুর রহমান বিষয়টি নিশ্চিত করে বলেন-আটককৃতদের বিরুদ্ধে নাশকতা ও মাদকসহ বিভিন্ন অভিযোগে মামলা রয়েছে।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ