ঢাকা, বুধবার 25 October 2017, ১০ কার্তিক ১৪২8, ৪ সফর ১৪৩৯ হিজরী
Online Edition

ক্ষমতাসীন আ’লীগ নিষ্ঠুরতার ভয়াবহ পথে অগ্রসর হচ্ছে -মির্জা ফখরুল

 

স্টাফ রিপোর্টার: বর্তমান শাসকগোষ্ঠী ভয়াবহ দুঃশাসন ও নিষ্ঠুরতার কারণে জনবিচ্ছিন্ন হয়ে নিষ্ঠুরতার আরো ভয়াবহ পথে অগ্রসর হচ্ছে বলে অভিযোগ করেছেন বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর। গতকাল এক বিবৃতিতে একথা বলেন। তিনি বলেন, সাধারণ মানুষসহ বিএনপি এবং দেশের বিরোধী দলগুলোকে আর দমিয়ে রাখা যাবে না ভেবেই সরকার এখন নেতাকর্মীদের শান্তিপূর্ণ যেকোন কর্মসূচির ওপর পুলিশ দিয়ে বর্বর হামলার মাত্রা তীব্র থেকে তীব্রতর করেছে। 

বিবৃতিতে বলা হয়, গাইবান্ধা জেলা ছাত্রদল সভাপতি খন্দকার জাকারিয়া জিম এবং ঢাকা জেলা ছাত্রদল সাধারণ সম্পাদক জাহিদুল হক জুয়েলকে পুলিশ কর্তৃক গ্রেফতারের ঘটনায় তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানিয়েছেন বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর। বিবৃতিতে বিএনপি মহাসচিব বলেন, ভোাটারবিহীন নির্বাচনের মাধ্যমে জোর করে রাষ্ট্রক্ষমতা দখলকারী বর্তমান শাসকগোষ্ঠী নিজেদের অস্তিত্বের প্রশ্নে এখন বিএনপি এবং এর অঙ্গ ও সহযোগী সংগঠনের নেতাকর্মীদের বিরুদ্ধে মিথ্যা মামলা দায়ের করে গ্রেফতারের মাধ্যমে কারান্তরীণ করতে নিষ্ঠুর আচরণের মাত্রাকে সীমাহীন পর্যায়ে নিয়ে গেছে। দেশে বিএনপিসহ বিরোধী দলীয় নেতাকর্মীদেরকে ধারাবাহিকভাবে গ্রেফতারের অংশ হিসেবেই গতরাতে গাইবান্ধা জেলা ছাত্রদল সভাপতি খন্দকার জাকারিয়া জিম এবং ঢাকা জেলা ছাত্রদল সাধারণ সম্পাদক জাহিদুল হক জুয়েলকে গ্রেফতার করা হয়েছে। সরকার দেশের সাধারণ মানুষসহ বিরোধী দলের নেতাকর্মীদের জীবন নিয়ে যে বর্বর খেলায় মেতেছে, সেটির অবসান ঘটাতে জনগণের ঐক্যের কোন বিকল্প নেই। 

অপর এক বিবৃতিতে বিএনপি চেয়ারপার্সন ও সাবেক প্রধানমন্ত্রী বেগম খালেদা জিয়া এবং সিনিয়র ভাইস চেয়ারম্যান তারেক রহমানের বিরুদ্ধে দায়েরকৃত মিথ্যা মামলায় গ্রেফতারী পরোয়ানা জারীর প্রতিবাদে এবং অবিলম্বে মিথ্যা মামলা ও গ্রেফতারী পরোয়ানা প্রত্যাহারের দাবিতে আজ কুমিল্লায় শান্তিপূর্ণ বিক্ষোভ মিছিলে পুলিশের বেপরোয়া গুলীবর্ষণ ও নেতাকর্মীদের গুলীবিদ্ধ করে আহত করার বর্বরোচিত ঘটনায় তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানিয়েছেন বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর। বিবৃতিতে বিএনপি মহাসচিব বলেন, ভয়াবহ দু:শাসন ও নিষ্ঠুরতার কারণে জনবিচ্ছিন্ন হয়ে নিষ্ঠুরতার আরো ভয়াবহ পথে অগ্রসর হচ্ছে বর্তমান শাসকগোষ্ঠী। সাধারণ মানুষসহ বিএনপি এবং দেশের বিরোধী দলগুলোকে আর দমিয়ে রাখা যাবে না ভেবেই সরকার এখন নেতাকর্মীদের শান্তিপূর্ণ যেকোন কর্মসূচির ওপর পুলিশ দিয়ে বর্বর হামলার মাত্রা তীব্র থেকে তীব্রতর করেছে। বিএনপি চেয়ারপার্সন ও সাবেক প্রধানমন্ত্রী দেশনেত্রী বেগম খালেদা জিয়া এবং সিনিয়র ভাইস চেয়ারম্যান জনাব তারেক রহমানের বিরুদ্ধে মিথ্যা মামলায় গ্রেফতারী পরোয়ানা জারীর প্রতিবাদে আজ কুমিল্লায় অনুষ্ঠিত শান্তিপূর্ণ বিক্ষোভ মিছিলে পুলিশের নির্মম গুলীবর্ষণ সেটিরই প্রমান বহন করে। দেশে আইনের শাসন নেই বলেই পুলিশ গুলী ছুঁড়ে মানুষকে হত্যা কিংবা আহত করাকে এক ধরনের খেলা হিসেবে গণ্য করছে। কুমিল্লায় পুলিশ নির্মমভাবে গুলী চালিয়ে নেতাকর্মীদের গুলীবিদ্ধ করে আহত করার যে দৃশ্যের অবতারণা করলো তাতে এটি বলতে দ্বিধা নেই যে, বাংলাদেশ নামক স্বাধীন রাষ্ট্রটি এখন পুলিশী রাষ্ট্রে পরিণত হয়েছে। কুমিল্লায় শান্তিপূর্ণ মিছিলের ওপর পুলিশের গুলীবর্ষণের ঘটনায় আমি তীব্র নিন্দা-প্রতিবাদ ও ধিক্কার জানাই। অবিলম্বে দোষী পুলিশদের বিরুদ্ধে আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণের দাবি জানাই। আমি পুলিশের গুলীতে আহত নেতাকর্মীদের আশু সুস্থতা কামনা করছি।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ