ঢাকা, শুক্রবার 3 November 2017, ১৯ কার্তিক ১৪২8, ১৩ সফর ১৪৩৯ হিজরী
Online Edition

লগি-বৈঠার মাধ্যমে মানুষ হত্যার বিচার হবেই

 

২০০৬ সালের ২৮ অক্টোবর ঢাকার পল্টনে প্রকাশ্য দিবালোকে মানুষ হত্যার বিচার এদেশে হবেই হবে ইন্শা-আল্লাহ্। ২৮ অক্টোবর বাংলাদেশের ইতিহাসে একটি কলংকজনক অধ্যায়। 

এ দিনে ঢাকার পল্টন ময়দানে জামায়াতের জনসভায় আওয়ামী সন্ত্রাসীদের প্রকাশ্য দিবালোকে সশস্ত্র হামলায় ৬জন নেতা-কর্মীকে হত্যা করে মৃত লাশের উপর নৃত্য করার দৃশ্য গোটা বিশ্ব বিবেক প্রত্যক্ষ করেছিল। 

সে দিন শুধু মানুষ হত্যা করা হয়নি হত্যা করা হয়েছিল মানবাধিকার ও গণতন্ত্রকে। জামায়াত নেতৃবৃন্দ বলেন, ২৮ অক্টোবর ২০০৬ সালের খুনীদের রক্ষা করার জন্য সেই হত্যা মামলা প্রত্যাহার করা হয়েছে। খুনীদের এখনও বিচার হয়নি। বক্তারা অবিলম্বে ২৮ অক্টোবর ২০০৬ সালের পল্টন হত্যা কান্ডের খুনীদের বিচারের জোর দাবী জানান।

জামায়াতে ইসলামী চট্টগ্রাম মহানগরীর থানায় থানায় আলোচনা সভা ও দোয়া মাহফিলে নেতৃবৃন্দ উপরোক্ত আহবান জানান।

২৮ অক্টোবর ২০০৬ ঢাকার পল্টনে আওয়ামী সন্ত্রাসীদের লগি-বৈঠার সশস্ত্র হামলায় নিহত জামায়াত-

শিবিরের নেতা-কর্মীদের স্মরণে আয়োজিত পতেঙ্গা, ই.পি.জেড, বন্দর, হালিশহর, ডবলমুরিং, আকবর শাহ, পাঁচলাইশ, চান্দগাঁও ও বায়েজিদ থানার উদ্যোগে জামায়াত নেতা মাওলানা আবুল হাসনাত, মাওলানা মাসুম, এস.এম. হক, আবু শাফয়াত,অধ্যক্ষ এম.এইচ চৌধুরী, এম.বি.রহমান, আবু জাওয়াদ ও এম.জে হোসেন এর সভাপতিত্বে আলোচনা সভা ও দোয়া মাহফিল অনুুষ্ঠিত হয়।

সভায় নেতৃবৃন্দ বলেন, সেই জঘণ্য হত্যা কান্ডের পর আজো খুন, গুম ও অপহরণ, চাঁদাবাজি, টেন্ডারবাজি অব্যাহত আছে। 

পুরো দেশ আজ কারাগারে পরিণত হয়েছে। নেতৃবৃন্দ ২৮ অক্টোবর ২০০৬ সালে ঢাকার রাজ পথে যে চরম মানবতা বিরোধী অপরাধ সংঘটিত হয়েছে তার সুষ্ঠু বিচার করার দাবী জানান। প্রেস বিজ্ঞপ্তি।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ