ঢাকা, সোমবার 6 November 2017, ২২ কার্তিক ১৪২8, ১৬ সফর ১৪৩৯ হিজরী
Online Edition

সব পাওনা পরিশোধ করে মৃত্যুর জন্য তৈরি থাকতে হবে

প্রফেসর ড. মীর আকরামুজ্জামান অত্যন্ত কর্মঠ ও জনপ্রিয় মানুষ ছিলেন উল্লেখ করে বিশিষ্ট শিক্ষাবিদ, বাংলাদেশ সরকারের সাবেক সচিব ও মানারাত ইন্টারন্যাশনাল ইউনিভার্সিটি ট্রাস্টের চেয়ারম্যান শাহ আবদুল হান্নান বলেছেন, পৃথিবীর সব রোগেরই ওষুধ আছে। কিন্তু একমাত্র রোগ যার কোন ওষুধ নেই তা হলো মৃত্যু। সুতরাং আমাদের সবাইকে এই মৃত্যুর জন্য তৈরি থাকতে হবে।

তিনি বলেন, মৃত্যুর আগে নিজের কাজগুলো ঠিকভাবে করে যেতে হবে। নামায, রোজা, হজ্জ, জাকাত যা কিছুই আমাদের পাওনা রয়েছে মৃত্যুর আগে পরিশোধ করে যেতে হবে। এই পরিশোধটা হলো মৃত্যুর জন্য তৈরি থাকা। 

তিনি মানারাত ইন্টারন্যাশনাল ইউনিভার্র্সিটিতে বিশিষ্ট শিক্ষাবিদ, মানারাত ইন্টারন্যাশনাল ইউনিভার্সিটি ট্রাস্টের সদস্য, জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ের সাবেক অধ্যাপক ও বাংলাদেশ সেনাবাহিনীর মেজর (অব.) প্রফেসর ড. মীর আকরামুজ্জামানের রুহের মাগফেরাত কামনায় দোয়া অনুষ্ঠান এবং তার জীবন ও কর্ম নিয়ে এক আলোচনায় এসব কথা বলেন। 

গতকাল রোববার বিশ্ববিদ্যালয়ের গুলশান ক্যাম্পাসে এ আলোচনা ও দোয়া অনুষ্টিত হয়। বিশ্ববিদ্যালয়ের ভারপ্রাপ্ত ভাইস চ্যান্সেলর প্রফেসর ড. এম. উমার আলীর সভাপতিত্বে আলোনা ও দোয়া অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন শাহ আবদুল হান্নান। 

এতে অন্যান্যের মাধ্যে বক্তৃতা করেন মানারাত ইন্টারন্যাশনাল ইউনিভার্সিটি ট্রাস্টেও সদস্য ও সাবেক সচিব মুহাম্মদ ইসমাইল হোসেইন, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের সাবেক অধ্যাপক প্রফেসর এ.টি.এম. ফজলুল হক, মানারাত ইন্টারন্যাশনাল ইউনিভার্সিটির ট্রেজারার হাফিজুল ইসলাম মিয়া, স্কুল অব বিজিনেস অ্যন্ড ইকোনোমিকসের ডিন প্রফেসর সিরাজুদ্দৌলা শাহীন, স্কুল অব আর্টস অ্যান্ড হিউম্যানিটিসের ডিন প্রফেসর হেমায়েত হোসাইন খান, রেজিস্ট্রার মো. মনিররুল ইসলাম, কন্ট্রোলার ও পাবলিক রিলেশন্স ও স্টুডেন্টস অ্যাফেয়ার্সের ভারপ্রাপ্ত পরিচালক এ এইচ আবু সায়ীদ, ডিবিএ-র প্রধান রোকেয়া সুলতানা প্রমুখ। 

বক্তারা প্রফেসর ড. মীর আকরামুজ্জামানকে একজন সৎ, নির্ভীক, নির্মোহ, কর্মঠ ও নি:স্বার্থ ব্যক্তি ছিলেন উল্লেখ করে তার রেখে যাওয়া অসমাপ্ত কাজগুলো সমাপ্ত করে মানারাত ইন্টারন্যাশনাল ইউনিভার্সিটিকে দেশ শীর্ষ বিশ্ববিদ্যালয়ে পরিণত করার দৃঢ় প্রত্যয় ব্যক্ত করেন। প্রেস বিজ্ঞপ্তি।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ