ঢাকা, বুধবার 8 November 2017, ২৪ কার্তিক ১৪২8, ১৮ সফর ১৪৩৯ হিজরী
Online Edition

পর্যটক আকর্ষণে বিশ্বের দীর্ঘতম ভাসমান রাস্তা

শাহরীয়া : বিশ্বের সপ্তাশ্চর্যের অন্যতম চীনের প্রাচীর। বিভিন্ন দেশের বহুসংখ্যক পর্যটক এই প্রাচীর দেখার জন্য দেশটিতে প্রতি বছর ভ্রমণ করে থাকে। এবার পর্যটকদের আকর্ষণ করতে চীন তৈরি করেছে বিশ্বের সবচেয়ে দীর্ঘ ভাসমান রাস্তা। ৫৪,০০০ বর্গমিটার বা ১৩.৩ একর আয়তনের ওপর নির্মিত এই রাস্তা দেশটির দক্ষিণ-পশ্চিমাঞ্চলীয় গুইঝু প্রদেশে অবস্থিত। ৫১২৭ মিটার বা ৫.২ মাইল দীর্ঘ রাস্তাটি গুইঝু প্রদেশের গুয়াংঝুয়াং অঞ্চলের হংসু নদীর ওপর নির্মিত। পানির ওপর নির্মিত এই রাস্তা দেখতে প্রজাপতির মত, যা বিশ্বের সবচেয়ে দীর্ঘ ভাসমান রাস্তা হিসেবে গিনেস বুকে স্থান পেয়েছে।
গত ১ অক্টোবর চীনের জাতীয় দিবস উপলক্ষে ‘নিউ সিনিক পার্ক’র এই পর্যটন সাইটটি উদ্বোধন করা হয়। ২ লাখ ২২ হাজার ৫০০ প্লাস্টিকের ব্লকের ওপর রাস্তাটি নির্মাণ করা হয়েছে। প্রতি চারটি প্লাস্টিক ব্লকের পরিমাপ এক বর্গ মিটার বা ১০.৮ বর্গ ফুট এবং প্রতি বর্গ মিটার রাস্তার ধারণ ক্ষমতা ৩৫০ কেজি বা ৭৭২ পাউন্ড। পুরো রাস্তার উভয়ধারে বসানো হয়েছে নেট বা নিরাপত্তা জাল। পর্যটকদের আকর্ষণ করতে প্রতি ২০০ থেকে ৩০০ মিটার পরপর বসানো হয়েছে পানির ফুয়ারা। এর মধ্যবর্তী স্থানে স্থাপন করা হয়েছে ৫ হাজার বর্গমিটারের একটি স্টেজ, যেখানে বিভিন্ন ধরনের অনুষ্ঠান আয়োজন করা যাবে। পুরো রাস্তাটি পায়ে হেঁটে পরিদর্শন করতে চাইলে একজন দর্শনার্থীর সময় লাগবে ৩০ মিনিট।
সেখানে শিশু-বৃদ্ধ সকল দর্শনার্থীদের জন্য রয়েছে পানিতে ভেসে বেড়ানোর বয়া। এসব দর্শনার্থীরা নদীর পানিতে নামতে চাইলে তাদের সরবরাহ করা হয় সুইমিং পোশাক। সেখানে রয়েছে সুইমিং পুল ও বৃক্ষ উদ্যান। এছাড়া অত্যাধুনিক এই পার্কের চারপাশ তালগাছ ঘেরা।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ