ঢাকা, বুধবার 22 November 2017, ৮ অগ্রহায়ণ ১৪২8, ২ রবিউল আউয়াল ১৪৩৯ হিজরী
Online Edition

অবৈধ সম্পদ অর্জনের মামলা থেকে অব্যাহতি পেলেন কুসিক মেয়র সাক্কু

কুমিল্লা অফিস : জ্ঞাত আয় বহির্ভূত সম্পদ অর্জন ও তথ্য গোপনের মামলা থেকে অব্যাহতি পেয়েছেন কুমিল্লা সিটি করপোরেশনের মেয়র ও বিএনপি নেতা মনিরুল হক সাক্কু। মঙ্গলবার ঢাকা মহানগর সিনিয়র বিশেষ জজ তাকে মামলার অভিযোগ থেকে অব্যাহতি দেন। এর আগে ৯ মে ওই মামলায় ঢাকা মহানগর সিনিয়র বিশেষ জজ কামরুল হোসেন মোল্লা আদালতে আত্মসমর্পণ করে জামিন আবেদন করেন তিনি। এরপর শুনানি নিয়ে ২৪ মে পর্যন্ত আদালত তার জামিন মঞ্জুর করেন। এর আগে গত ১৮ এপ্রিল মামলায় দুর্নীতি দমন কমিশনের (দুদক) দেয়া অভিযোগপত্র আমলে নিয়ে ঢাকা মহানগর সিনিয়র বিশেষ জজ কামরুল হোসেন মোল্লার আদালত সাক্কুর বিরুদ্ধে গ্রেফতারি পরোয়ানা জারি করেন। একইসঙ্গে সাক্কুর স্থাবর-অস্থাবর সম্পত্তি জব্দেরও নির্দেশ দেয়া হয়। তবে মামলার অভিযোগ থেকে ওই সময় সাক্কুর স্ত্রী আফরোজা জেসমিনকে অব্যাহতি দেয়া হয়। ২০০৮ সালের ৭ জানুয়ারি দুদকের সহকারী পরিচালক শাহীন আরা মমতা বাদী হয়ে সাক্কু ও তার স্ত্রী আফরোজা জেসমিনের বিরুদ্ধে জ্ঞাত আয়বহির্ভূত সম্পদ অর্জন ও তথ্য গোপন করার অভিযোগে রমনা থানায় মামলা করেন। দীর্ঘ কয়েক বছর তদন্ত শেষে গত বছরের ৪ ফেব্রুয়ারি দুদকের সহকারী পরিচালক নুরুল হুদা আদালতে অভিযোগপত্র জমা দেন। তবে মামলা থেকে সাক্কুর স্ত্রীকে অব্যাহতি দেয়ার আবেদন জানানো হয়। অভিযোগপত্রে সাক্কুর বিরুদ্ধে বলা হয়, ১ কোটি ১২ লাখ ৪০ হাজার ১২০ টাকার তথ্য গোপনের অভিযোগ প্রাথমিকভাবে প্রমাণিত হয়েছে। ৪ কোটি ৫৭ লাখ ৭৩ হাজার ৯৩৩ টাকা জ্ঞাত আয়বহির্ভূত সম্পদ অর্জনের অভিযোগ আনা হয়েছে। গত ৩০ মার্চ কুমিল্লা সিটি করপোরেশন নির্বাচনে জয়ী হয়ে টানা দ্বিতীয়বারের মত মেয়র হন বিএনপি নেতা সাক্কু। অবৈধ সম্পদ অর্জনের মামলা থেকে অব্যাহতি পেলেন কুসিক মেয়র সাক্কু।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ