ঢাকা, বৃহস্পতিবার 21 December 2017, ৭ পৌষ ১৪২৪, ২ রবিউস সানি ১৪৩৯ হিজরী
Online Edition

নবাবগঞ্জ সংবাদ

নবাবগঞ্জ (দিনাজপুর) সংবাদদাতা: দিনাজপুরের নবাবগঞ্জ উপজেলার কর্মরত আইন সহায়তা কেন্দ্র (আসক) ফাউন্ডেশন এর দিনাজপুর জেলা কমিটি সাধারণ সম্পাদক উপজেলার শিবরামপুর গ্রামের আব্দুল মান্নানের পুত্র রফিক সরকার (৩৭) কে দুষ্কৃতিকারীরা রাস্তায দেশীয় অস্ত্রের মুখে জিম্মি করে নগদ ১৩ হাজার টাকা ক্যামেরা, মুঠোফোন, ছিনতাই করে নিয়ে যায়। ওই সময় আসক কর্মীকে হত্যার উদ্দেশ্যে বেদম মারপিট করে। এ ঘটনায় আসক কর্মী রফিক সরকার অভিযুক্তকে চিনতে পেরে নাম উল্লেখ করে নবাবগঞ্জ থানায় গত ১৩ই ডিসেম্বর ২০১৭ ইং এজাহার দাখিল করেছেন। আসক কর্মী অভিযোগ করে জানান, বাড়ি যাবার সময় ২৫-২৬ জনের দুষ্কৃতিকারী দলের প্রধান শিবরামপুর গ্রামের হাছেন আলীর পুত্র ছানোয়ার হোসেন (৩৮)। এ বিষয়ে নবাবগঞ্জ থানায় যোগাযোগ করা হলে অফিসার ইনচার্জ (ওসি) সুব্রত কুমার সরকার জানান, অভিযুক্তকে গ্রেফতার করে জেলহাজতে প্রেরণ করা হয়েছে। আসক কর্মী জানান, ক্যামেরা ও মুঠোফোন ফেরত দিলেও অটোবাইক ও ছিনতাইকৃত টাকা উদ্ধার হয়নি।
হুইল চেয়ার বিতরণ
দিনাজপুরের নবাবগঞ্জে বাধ্যতামূলক প্রাথমিক শিক্ষা বাস্তবায়নে একিভূত শিক্ষার অংশ হিসেবে বিশেষ চাহিদা সম্পন্ন ৭ শিশুর মধ্যে উপকরণ হিসেবে হুইল চেয়ার বিতরণ করেন দিনাজপুর ৬ আসনের সংসদ সদস্য মো. শিবলী সাদিক। এ সময় উপস্থিত ছিলেন উপজেলা নির্বাহী অফিসার মো. মশিউর রহমান, উপজেলা সহকারি কমিশনার (ভূমি) মো. আরাফাত হোসেন, উপজেলা পরিষদের মহিলা ভাইস চেয়ারম্যান মোছা. পারুল বেগম, উপজেলা আ.লীগের সহ-সভাপতি ডা. মোশারফ হোসেন, আমির হোসেন, ভারপ্রাপ্ত সাধারন সম্পাদক শাহ জিয়াউর রহমান মানিক প্রমুখ। উপজেলা প্রাথমিক শিক্ষা কর্মকর্তা মো. আমিরুল ইসলাম জানান, পর্যায়ক্রমে ২১ জন শিক্ষার্থীকে ওই উপকরণ দেয়া হবে।
বই বিতরণ
সরকারিভাবে বিনামূল্যে বিতরণের জন্য দিনাজপুরের নবাবগঞ্জে অগ্রিমভাবে শিক্ষা দপ্তরে এসে পৌঁছেছে ১ লাখ ৯৬ হাজার ৭৫০ কপি পাঠ্যপুস্তক বলে তথ্যটি নিশ্চিত করেছেন প্রাথমিক শিক্ষা কর্মকর্তা মো. আমিরুল ইসলাম। তিনি জানান, বিনামূল্যে  পাওয়া বইগুলো দেশের একযোগে ১লা জানুয়ারি বই উৎসবের দিনে বিতরণ করা হবে। এ উপলক্ষ্যে বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে বইগুলো বরাদ্দ অনুযায়ী বিতরণ করা হচ্ছে। সহকারি শিক্ষা কর্মকর্তা মো. অহিদুজ্জামান জানান, শিক্ষার্থীদের পাঠ্যপুস্তকগুলো মানসম্মত।
কর্মসংস্থান কর্মসূচি
দিনাজপুরের নবাবগঞ্জ, বিরামপুর ২০১৭-১৮ অর্থবছরে দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণ মন্ত্রণালয়ের অধীনে অতি দরিদ্রদের জন্য কর্মসংস্থান কর্মসূচির ১ম পর্যায়ে উপজেলার ৩৮টি প্রকল্পের বিপরীতে ২ কোটি ৩৯ লাখ ৪ হাজার টাকা বরাদ্দে প্রতিদিন ১৯২৬ জন শ্রমিক কাজ করবে বলে উপজেলা উপ-সহকারি প্রকৌশলী (প্রকল্প) মো. মশফিকুর রহমান জানান দুই উপজেলা প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকর্তা মো. রেফাউল আজম জানান বিরামপুর উপজেলায় ২৫টি প্রকল্পের বিপরীতে ৮৪ লাখ ২০ টাকা বরাদ্দ পাওয়া গেছে এবং প্রকল্পের কাজও শুরু হয়েছে। প্রকল্পের মধ্যে উপজেলার বিভিন্ন ইউনিয়নে শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের মাঠ, কবরস্থান, রাস্তা নির্মাণ, মসজিদ, মন্দির, গির্জার মাঠ ভরাট প্রকল্প উল্লেখযোগ্য। উপজেলা নির্বাহী অফিসার মো. মশিউর রহমান জানান, প্রকল্পের কাজ সুষ্ঠুভাবে বাস্তবায়নের জন্য তিনি সার্বক্ষনিক মনিটরিং করছেন।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ