ঢাকা, বৃহস্পতিবার 21 December 2017, ৭ পৌষ ১৪২৪, ২ রবিউস সানি ১৪৩৯ হিজরী
Online Edition

শ্রীপুরে পুলিশী হস্তক্ষেপে বাল্য বিয়ে বন্ধ

গাজীপুর সংবাদদাতাঃ গাজীপুরের শ্রীপুরে সপ্তম শ্রেণীর ছাত্রী এক কিশোরীর বাল্য বিয়ে বন্ধ করে দিয়েছে পুলিশ। গাজীপুরের শ্রীপুরে তেলিহাটি ইউনিয়নের গোদারচালা গ্রামে রবিবার দুপুরে এ ঘটনা ঘটে।
শ্রীপুর মডেল থানার এসআই জামিল রাশেদ ও তেলিহাটি ইউনিয়ন পরিষদের ২নং ওয়ার্ড সদস্য হাসান হাফিজুর রহমান দীপক জানান, শ্রীপুরের গোদারচালা গ্রামের ওই কিশোরী স্থানীয় একটি বিদ্যালয়ের সপ্তম শ্রেণীর ছাত্রী। স্থানীয় এক কম্পিউটারের দোকান থেকে ভুয়া জন্ম সনদের মাধ্যমে বয়স বাড়িয়ে কিশোরীর পরিবার বাল্য বিয়ের আয়োজন করে। কিশোরীর বিয়ে উপলক্ষ্যে রবিবার সকাল থেকে তার বাড়িতে বিয়ের আয়োজন শুরু হয়। রবিবার আত্মীয় স্বজন ও অতিথিরা ওই বিয়ে বাড়িতে আসতে থাকে। বাল্য বিয়ের খবর পেয়ে দুপুরে স্থানীয় ইউপি সদস্যসহ একাধিক গণ্যমাণ্য ব্যক্তি বিয়ে বাড়িতে গিয়ে কিশোরীর বাল্য বিয়ে বন্ধের অনুরোধ জানান। এতে অপারগতা প্রকাশ করে কিশোরী স্বজনরা। পরে খবর পেয়ে শ্রীপুর মডেল থানা পুলিশ সেখানে যায়। এ সময় তারা কিশোরীর পরিবারের সদস্যদের বাল্য বিয়ের কূফল সম্পর্কে অবগত করলে তারা নিজেদের ভূল বুঝতে পেরে বিয়ে বন্ধ করেন। পরে কিশোরীর বিয়ের বয়স হওয়ার আগে বিয়ে দিবে না বলে মুচলেকা প্রদান করেন।
পুলিশের কর্মকর্তা আরো জানান, স্থানীয় এক কম্পিউটারের দোকান থেকে ভুয়া সনদের মাধ্যমে বয়স বাড়িয়ে কিশোরীর পরিবার বাল্য বিয়ের আয়োজন করছিল। পরে যাচাই করে দেখা গেছে প্রকৃতপক্ষে কিশোরীর বিয়ের বয়স হয়নি।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ