ঢাকা, রোববার 24 December 2017, ১০ পৌষ ১৪২৪, ৫ রবিউস সানি ১৪৩৯ হিজরী
Online Edition

বেতন বৈষম্যের অবসানের দাবিতে প্রাথমিক  সহকারী শিক্ষকদের অনশন শুরু

 

স্টাফ রিপোর্টার : প্রধান শিক্ষকদের পরের ধাপে বেতনের দাবিতে আমরণ অনশন শুরু করছেন সারাদেশের প্রাথমিক শিক্ষকরা। শহীদ মিনার পাদদেশে  গতকাল শনিবার সকাল ১০টা থেকে এ অনশন শুরু করেন হাজার হাজার শিক্ষক। বাংলাদেশ প্রাথমিক সহকারী শিক্ষক মহাজোটের ব্যানারে দাবি আদায় না হওয়া পর্যন্ত এই অনশন চলবে বলে জানিয়েছেন অনশনে অংশ নেয়া শিক্ষক নেতারা।

জানা যায়, ২০১৫ সালে ঘোষিত ৮ম জাতীয় পে-স্কেল অনুযায়ী প্রশিক্ষণপ্রাপ্ত প্রধান শিক্ষকরা (২য় শ্রেণি) ১১তম গ্রেড অর্থাৎ ১২ হাজার ৫০০ টাকা এবং প্রশিক্ষণ ছাড়া প্রধান শিক্ষকরা ১২তম গ্রেডে বেতন পাচ্ছেন ১১ হাজার ৫০০ টাকা। 

প্রশিক্ষণপ্রাপ্ত সহকারী শিক্ষকরা ১৪তম গ্রেডে অর্থাৎ ১০ হাজার ২০০ টাকা বেতন পাচ্ছেন আর প্রশিক্ষণ ছাড়া সহকারী শিক্ষকদের বেতন গ্রেড ১৫তম গ্রেডে ৯ হাজার ৭০০। কিন্তু বর্তমানে নতুন স্কেলে প্রশিক্ষণপ্রাপ্ত প্রধান শিক্ষকরা ১০ম গ্রেড এবং প্রশিক্ষণ ছাড়া প্রধান শিক্ষকরা পাবেন ১১তম গ্রেডে, যা অর্থ মন্ত্রণালয়ে প্রক্রিয়াধীন। সহকারী শিক্ষকরা, প্রশিক্ষণপ্রাপ্ত পধান শিক্ষক ও প্রশিক্ষণ ছাড়া প্রধান শিক্ষকরা যে বেতন পাবেন তার পরের ধাপে তারা বেতন চান। অর্থাৎ প্রধান শিক্ষকদের এক ধাপ নিচে বেতন চান সহকারী শিক্ষকরা।

অনশনে অংশ নেয়া বাংলাদেশ প্রাথমিক শিক্ষক সমিতির মোহনগঞ্জ শাখার সভাপতি ও গলগলি মল্লিকপুর সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষক মো. নজরুল ইসলাম খান খোকন বলেন, ১৯৭২ সালে প্রাথমিক বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষক ও প্রধান শিক্ষকদের বেতন বৈষম্য ছিল এক ধাপ। কিন্তু এখন সেটা বেড়ে হচ্ছে ৩ ধাপ।

তিনি বলেন, একজন সহকারী শিক্ষক ১৬ বছর শিক্ষকতা করার পর যখন এখন একজন প্রধান শিক্ষক চাকরিতে প্রথম যোগদান করেন তখন তাদের বেতন হয় সমান সমান। তাহলে কি হল, প্রধান শিক্ষকদের ১ দিনের সমান সহকারী শিক্ষকদের ১৬ বছরের সমান। আর বেতনের পার্থক্য হয় প্রায় ১১ হাজার টাকা। তাই এই বৈষম্য দূর করে প্রধান শিক্ষকদের নিচের বেতন স্কেলে আমরা বেতন চাই। দাবি আদায় না হওয়া পর্যন্ত আমাদের এই অনশন চলবে।

বাংলাদেশ প্রাথমিক বিদ্যালয় সহকারী শিক্ষক সমিতির, বাংলাদেশ প্রাথমিক সহকারী শিক্ষক সমাজ, জাতীয় প্রাথমিক সহকারী শিক্ষক ফাউন্ডেশন, সহকারী শিক্ষক ফ্রন্ট, সহকারী শিক্ষক সমিতি, বাংলাদেশ প্রাথমিক শিক্ষক সমিতিসহ ১০টি সংগঠনের সমন্বয়ে গঠিত বাংলাদেশ প্রাথমিক সহকারী শিক্ষক মহাজোটের ব্যানারে হাজার শিক্ষক উপস্থিত রয়েছেন। এছাড়া প্রধান শিক্ষকদের চারটি সংগঠন এই কর্মসূচিতে সংহতি প্রকাশ করেছে।

আমাদের দাবি আমাদের দাবি, মানতে হবে মানতে হবে, বিজয় না নিয়ে আমরা ফিরে যাব না প্রভৃতি স্লোগানে মুখরিত করে শহীদ মিনার প্রাঙ্গণ। এর মাঝে বক্তব্য ও সঙ্গীত পরিবেশন করা হচ্ছে। অনশনে অংশ নেয়ার আগে শিক্ষকরা তাদের এই দাবি পূরণের জন্য উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা, সংসদ সদস্য, জেলা প্রাথমিক শিক্ষা অফিসার, জেলা প্রশাসক, বিভাগীয় পর্যায়ে প্রাথমিক শিক্ষা উপ-পরিচালকদের কাছে স্মারকলিপি দিয়েছেন। প্রাথমিক শিক্ষা অধিদফতরের মহাপরিচালক, প্রাথমিক ও গণশিক্ষামন্ত্রী এবং প্রাথমিক ও গণশিক্ষা সচিবের সঙ্গে আলোচনা করা করেছে। জাতীয় প্রেস ক্লাবে সংবাদ সম্মেলনসহ সারাদেশে জেলা পর্যায়ে সাংবাদিক সম্মেলন করেছে।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ