ঢাকা, রোববার 19 May 2019, ৫ জ্যৈষ্ঠ ১৪২৬, ১৩ রমযান ১৪৪০ হিজরী
Online Edition

জেএসসিতে ৮৩.১০ ভাগ পাস, জেডিসিতে ৮৬.৮০ ভাগ পাস

সংগ্রাম অনলাইন ডেস্ক: জুনিয়র স্কুল সার্টিফিকেট (জেএসসি) ও জুনিয়র দাখিল সার্টিফিকেট (জেডিসি) পরীক্ষার ফলাফল প্রকাশ করা হয়েছে। এ দুটি পরীক্ষায় গড় পাস করেছে ৮৩ দশমিক ৬৫ ভাগ শিক্ষার্থী।

আজ শনিবার সকালে শিক্ষামন্ত্রী নুরুল ইসলাম নাহিদ এবং প্রাথমিক ও গণশিক্ষামন্ত্রী মোস্তাফিজুর রহমান শিক্ষা প্রশাসনের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তাদের সঙ্গে নিয়ে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার হাতে ফলাফলের অনুলিপি তুলে দেন।

বার্তা সংস্থা ইউএনবি জানিয়েছে, জেএসসিতে গড় পাসের হার ৮৩ দশমিক ১০ শতাংশ। আর এতে জিপিএ ৫ পেয়েছে এক লাখ ৮৪ হাজার ৩৯৭ জন।

অপরদিকে জেডিসিতে গড় পাসের হার ৮৬. ৮০ শতাংশ এবং জিপিএ ৫ পেয়েছে সাত হাজার ২৩১ জন।

জেএসসি ও জেডিসিতে গড় জিপিএ ৫ পেয়েছে এক লাখ ৯১ হাজার ৬২৮ শিক্ষার্থী।

গত ১ নভেম্বর সারা দেশে একযোগে জেএসসি ও জেডিসি পরীক্ষা শুরু হয়ে শেষ হয় ১৮ নভেম্বর। এর মধ্যে জেএসসিতে মোট পরীক্ষার্থীর সংখ্যা ২০ লাখ ৯০ হাজার ২৭৭ জন এবং জেডিসিতে পরীক্ষার্থী তিন লাখ ৭৮ হাজার ৫৪৩ জন। এই দুই পরীক্ষায় মোট পরীক্ষার্থীর সংখ্যা ছিল প্রায় ২৪ লাখ ৬৯ হাজার।

যেভাবে জানা যাবে ফলাফল

প্রাথমিক শিক্ষা সমাপনী ও ইবতেদায়ি শিক্ষার ফল www.dpe.gov.bd এবং http://dperesults.teletalk.com.bd থেকে পাওয়া যাবে বলে সরকারের পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে।

এ ছাড়া যেকোনো মোবাইল ফোন থেকে DPE লিখে স্পেস দিয়ে শিক্ষার্থীর আইডি লিখে স্পেস দিয়ে বর্ষ লিখে ফল পাওয়া যাবে।

আর ইবতেদায়ি শিক্ষার ফলাফলের জন্য EBT স্পেস শিক্ষার্থীর আইডি নম্বর লিখে স্পেস দিয়ে বর্ষ লিখে ১৬২২২ নম্বরে এসএমএস করলে ফল আসবে।

জেএসসি-জেডিসি পরীক্ষার ফল পাওয়া যাবে www.educationboardresults.gov.bd ছাড়াও শিক্ষাবোর্ডগুলোর ওয়েবসাইটে।

মোবাইল ফোনের মেসেজ অপশনে JSC/JDC লিখে স্পেস দিয়ে বোর্ড লিখে স্পেস দিয়ে রোল নম্বর লিখে স্পেস দিয়ে ২০১৭ লিখে এসএমএস করলেও ফল পাওয়া যাবে।

গত ১ নভেম্বর সারা দেশে একযোগে জেএসসি ও জেডিসি পরীক্ষা শুরু হয়ে শেষ হয় ১৮ নভেম্বর। এর মধ্যে জেএসসিতে মোট পরীক্ষার্থীর সংখ্যা ২০ লাখ ৯০ হাজার ২৭৭ জন এবং জেডিসিতে পরীক্ষার্থী তিন লাখ ৭৮ হাজার ৫৪৩ জন। এই দুই পরীক্ষায় মোট পরীক্ষার্থীর সংখ্যা ছিল প্রায় ২৪ লাখ ৬৯ হাজার।

অন্যদিকে ১৯ থেকে ২৬ নভেম্বর পর্যন্ত প্রাথমিক ও ইবতেদায়ি শিক্ষা সমাপনী পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হয়। প্রাথমিক শিক্ষা সমাপনীতে ২৮ লাখ চার হাজার ৫০৯ জন এবং ইবতেদায়িতে দুই লাখ ৯১ হাজার ৫৬৬ জন শিক্ষার্থী পরীক্ষায় বসে। দুটো মিলিয়ে প্রায় ৩১ লাখ পরীক্ষার্থী অংশ নেয়।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ