ঢাকা, শুক্রবার 5 January 2018, ২২ পৌষ ১৪২৪, ১৭ রবিউস সানি ১৪৩৯ হিজরী
Online Edition

ত্রিদেশীয় সিরিজে আমাদের ভালো করার সম্ভাবনাই বেশি -সাকিব

স্পোর্টস রিপোর্টার : আগামী ১৫ জানুয়ারি থেকে মিরপুর শেরে বাংলা ক্রিকেট স্টেডিয়ামে শুরু হচ্ছে ত্রিদেশীয় ওয়ানডে সিরিজ। এই সিরিজে স্বাগতিক বাংলাদেশের অপর দুই প্রতিপক্ষ শ্রীলংকা ও জিম্বাবুয়ে। ২০১০ সালে বাংলাদেশে অনুষ্ঠিত সর্বশেষ ত্রিদেশীয় সিরিজে অংশ নিয়েছিল শ্রীলংকা ও ভারত। সেই টুর্নামেন্টে সাকিব আল হাসানের নেতৃত্বে চার ম্যাচের চারটিতেই হার মেনেছিল বাংলাদেশ। তবে ৮ বছর পর ত্রিদেশীয় এই টুর্নামেন্টে এবার নিজেদেও সেরা মনে করেন বাংলাদেশের টেস্ট ও টি-টোয়েন্টি অধিনায়ক সাকিব আল হাসান। গতকাল মিরপুরের সেন্টার উইকেটে বাংলাদেশ দল অনুশীলন করেছে। খালেদ মাহমুদ সুজনের তত্ত্বাবধানে মুশফিক-তামিম-মাহমুদউল্লাহ অনেকক্ষণ ব্যাটিং করেছেন। সাকিব-মাশরাফি বোলিংয়ের ওপরই জোর দিলেন বেশি। আরও কয়েকদিন টাইগাররা সেন্টার উইকেটে অনুশীলন করবে। অনুশীলন শেষে সাকিব আল হাসান এই টুর্নামেন্টে নিয়ে বলেন,‘আমার তো মনে হয় আমাদের খুব ভালো সম্ভাবনাই আছে এই সিরিজে। কিন্তু দুইটা দলই ভালো। দুটি দলই আমাদের খেলোয়াড় এবং কন্ডিশন সম্পর্কে ভালো জানে। তাই আমার মনে হয় কঠিন প্রতিদ্বন্দ্বিতায় পড়তে হবে। তবে যেহেতু আমরা অনেক ভালো একটা দলে পরিণত হয়েছি। সেই হিসেবে আমাদের ভালো করার সম্ভাবনাই অনেক বেশি।’ হাথুরুসিংহের বিদায়ের পর খালেদ মাহমুদ সুজন টেকনিক্যাল ডিরেক্টরের পদ নিয়েই কোচিংয়ের কাজটা চালিয়ে নিচ্ছেন। এছাড়া ওয়ানডে অধিনায়ক মাশরাফি এবং টেস্ট ও টি-টোয়েন্টি অধিনায়ক সাকিবকে কোচের অবর্তমানে বাড়তি দায়িত্ব নিয়েই খেলতে হবে। সাকিবকে এই বিষয়টি নিয়ে বলেন, ‘সবাই সবার দায়িত্ব সম্পর্কে খুব ভালো করেই জানে। সবাই সবার কাজটা ঠিকমতো করলে আমরা সাফল্য পাবো। যেহেতু আমরা অধিনায়ক, স্বাভাবিকভাবেই আমাদের ওপর একটি বেশি দায়িত্ব থাকে। তাই সেগুলো আমরা করতে প্রস্তুত।’ ত্রিদেশীয় সিরিজের দল নিয়ে জানতে চাইলে বলেন, ‘দল নির্বাচনের আগ পর্যন্ত এ আলোচনা প্রতিদিনই হতে থাকে। একটা দুইটা জায়গা নিয়ে সবসময়ই আলোচনা হয়।’ আর উইকেট কেমন হবে এটা নিয়ে জানতে চাইলে সাকিব বলেন, ‘পিচ কেমন হবে, আবহাওয়া কেমন থাকবে-এসব আসলে চিন্তার বিষয় হওয়া উচিৎ না। যেটা হবে দুই দলের জন্য একই থাকবে। সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ হচ্ছে ভালো খেলতে হবে। আমাদের ওেফাকাস থাকবে দল হিসেবে ভালো খেলা।’ ২০১১ সাল থেকে কলকাতা নাইট রাইডার্সের হয়ে আইপিএলে খেলছেন সাকিব। নাইট রাইডার্সেও জার্সিতে ৪৩ ম্যাচ খেলে দুটি হাফসেঞ্চুরিসহ ৪৯৮ রান করেছেন। ছিল ৪৩টি উইকেট। এবার কলকাতা ধরে না রাখলেও টি-টোয়েন্টির সেরা অলরাউন্ডারের ঠিকানা হতে পারে অন্য কোনও দল। তবে সেটা জানতে অপেক্ষা করতে হবে ২৮ জানুয়ারি পর্যন্ত। এ ব্যাপারে জানতে চাইলে সাকিব বলেন, ‘এখানে কেমন লাগার কোনও বিষয় নেই। নিলামে নাম থাকবে। যদি কেউ পিক করে তাহলে ভালো। আর না করলে কোনও ব্যাপার না।’

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ