ঢাকা, রোববার 7 January 2018, ২৪ পৌষ ১৪২৪, ১৯ রবিউস সানি ১৪৩৯ হিজরী
Online Edition

জামিন পেলেন ইসরাইলী সেনাকে লাথি মারা সেই তরুণী

 

৬ জানুয়ারি, আল জাজিরা:  ফিলিস্তিনের ২০ বছর বয়সী সাহসী তরুণী নূর তামিমির কথা মনে আছে? ইসরায়েলের দুজন সেনাকে গত মাসে লাথি, চড় মেরে আলোচনায় এসে অল্প সময়েই স্টার হয়ে গেছেন তিনি।নূর ও তার চাচাতো বোন আহেদ তামিমি চড়-থাপ্পড়সহ ইসরায়েলি সেনাদের লাথি মেরেছিলেন। অধিকৃত পশ্চিম তীরে দুজন সেনাকে হয়রানির পর আটক হয়েছিলেন তারা। নূরের মাকেও আটক করেছিল ইসরায়েলি সেনারা। বর্তমানে তারা জামিনে ছাড়া পেয়েছেন।নূর ইসরায়েলি সেনাদের লাথি মেরেছিলেন গত বছরের ডিসেম্বরে। ১৫ ডিসেম্বর সেই ঘটনার ভিডিও ছড়িয়ে পড়ে ভাইরাল হয়ে যায়। নূরের বাড়ির সামনে গিয়ে ইসরায়েলি সেনারা বাগবিত-ায় জড়ালে চড় এবং লাথি মারেন নূর।শুক্রবার নূরের বাবা নাজিম তামিমি বার্তা সংস্থা এএফপিকে বলেন, এক হাজার চার শ ডলারের মাধ্যমে তাদের জামিন করিয়ে নেওয়া হয়েছে।নূর তামিমি গণযোগাযোগ ও সাংবাদিকতা বিভাগে পড়াশোনা করছেন আল কুদস ইউনিভার্সিটিতে। তাকে প্রতি শুক্রবার বিকেলে ইসরায়েলের পুলিশ স্টেশনে গিয়ে স্বাক্ষর করে আসতে হবে।তার বিরুদ্ধে অভিযোগ হলো, ইসরায়েলি সেনাদের দায়িত্ব পালনে বিঘ্ন ঘটিয়েছেন নূর। আগামী ১২ ফেব্রুয়ারি পরবর্তী শুনানির দিন ধার্য করা হয়েছে।এই মামলা ছাড়া আরো ১২টি অভিযোগ করা হয়েছে নূরের বিরুদ্ধে। সেনাদের শারীরিকভাবে নির্যাতন, পাথরনিক্ষেপের মতো মামলাও রয়েছে। তার মায়ের বিরুদ্ধে করা হয়েছে পাঁচটি মামলা। 

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ