ঢাকা, সোমবার 8 January 2018, ২৫ পৌষ ১৪২৪, ২০ রবিউস সানি ১৪৩৯ হিজরী
Online Edition

জয়নুল আবেদীন ও মাহবুব উদ্দিন খোকনের আগাম জামিন

স্টাফ রিপোর্টার : বিএনপির চেয়ারপার্সন বেগম খালেদা জিয়ার বিচারিক আদালত থেকে ফেরার পথে নেতাকর্মীদের সঙ্গে পুলিশের সংঘর্ষের ঘটনায় করা দুই মামলায় সুপ্রিম কোর্ট বার এসোসিয়েশনের সভাপতি জ্যেষ্ঠ আইনজীবী জয়নুল আবেদীন ও সম্পাদক ব্যারিস্টার মাহবুব উদ্দিন খোকনকে ছয় মাস বা মামলার পুলিশ প্রতিবেদন যেটি আগে হয় সে সময় পর্যন্ত আগাম জামিন দিয়েছেন হাইকোর্ট।
গতকাল রোববার আগাম জামিন চেয়ে করা আবেদনের শুনানি প্রাথমিক শুনানি শেষে বিচারপতি মো. মিফতাহ উদ্দিন চৌধুরী ও বিচারপতি আবু তাহের মো. সাইফুর রহমান সমন্বয়ে গঠিত হাইকোর্ট ডিভিশন বেঞ্চ এই আদেশ দেন।
আদালতে জামিন আবেদনের পক্ষে শুনানি করেন সুপ্রিম কোর্ট বারের সহ-সভাপতি মো. অজি উল্লাহ। সরকার পক্ষে ছিলেন ডেপুটি এটর্নি জেনারেল এ কে এম মনিরুজ্জামান কবির। মো. ওজি উল্লাহ আওয়ামী লীগের মনোনয়নে সহ-সভপতি নির্বাচিত হন। সুপ্রিম কোর্ট বারের পক্ষে সভাপতি-সম্পাদক সাংবাদিক সম্মেলন করলে মো. অজি উল্লাহর নেতৃত্বে আওয়ামী লীগ সমর্থক নেতারা পাল্টা সাংবাদিক সম্মেলন করে থাকেন। যা নিয়মে পরিণত হয়েছে।
জিয়া অরফানেজ ট্রাস্ট মামলায় বিচারিক আদালতে বিএনপি চেয়ারপার্সন খালেদা জিয়ার হাজিরার সময় গত বছরের ৩ জানুয়ারি সুপ্রিম কোর্টের মাজার গেট ভেঙে দলটির নেতাকর্মীরা সুপ্রিম কোর্টের ভেতরে অবস্থান  নেয়। পরে তারা পুলিশের সঙ্গে সংঘর্ষেও লিপ্ত হয়। এ ঘটনায় শাহবাগ থানার উপ-পরিদর্শক (এসআই) আনোয়ার হোসেন বাদী হয়ে ওইদিন রাতে বেআইনি সমাবেশ, সরকারি কাজে বাধাদান ও সরকারি কর্মচারীকে আঘাত, নাশকতা-সংঘর্ষ ও সরকারি কাজে বাধার অভিযোগে দুটি মামলা করেন। ওই দুটি মামলায় ৩৮ জনকে আসামী করা হয়। এই মামলায় জামিন আবেদন করা হলে আদালত তা মঞ্জুর করেন।
ডেপুটি এটর্নি জেনারেল এ কে এম মনিরুজ্জামান কবির জানান, আপিল বিভাগের সিদ্ধান্ত মোতাবেক চার সপ্তাহের বেশি আগাম জামিন দেয়া যায় না। কিন্তু হাইকোর্ট এ ক্ষেত্রে এ দু’ জনকে ছয় মাসের আগাম জামিন দিয়েছে। এটা এখতিয়ার বহির্ভূত। আমরা হাইকোর্টের এ আদেশের বিরুদ্ধে আপিল করবে।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ