ঢাকা, মঙ্গলবার 9 January 2018, ২৬ পৌষ ১৪২৪, ২১ রবিউস সানি ১৪৩৯ হিজরী
Online Edition

বিএনপি নেতা ব্যারিস্টার কায়সার কামালের আগাম জামিন

স্টাফ রিপোর্টার : বিএনপির আইন বিষয়ক সম্পাদক ব্যারিস্টার কায়সার কামালের বিরুদ্ধে পুলিশের কর্তব্যকাজে বাধা ও বেআইনি সমাবেশের অভিযোগে দায়ের করা ছয় মামলায় তিনি আগাম জামিন পেয়েছেন। পুলিশ প্রতিবেদন দাখিল না করা পর্যন্ত তাকে আগাম জামিন দিয়েছেন হাইকোর্ট।
জামিন চেয়ে করা আবেদনের শুনানি শেষে গতকাল সোমবার বিচারপতি ওবায়দুল হাসান ও বিচারপতি কৃষ্ণা দেব নাথ সমন্বয়ে গঠিত হাইকোর্ট বেঞ্চ এ আদেশ দেন। মামলায় উল্লেখিত ঘটনার সময় তিনি বিদেশে অবস্থান করছিলেন বলে হাইকোর্টকে অবহিত করেন তার আইনজীবীরা।
আদালতে কায়সার কামালের পক্ষে শুনানিতে করেন জ্যেষ্ঠ আইনজীবী ব্যারিস্টার জমির উদ্দিন সরকার ও জয়নুল আবেদীন। সঙ্গে ছিলেন আইনজীবী আসাদুজ্জামান আসাদ, রুকুনুজ্জামান সুজা, গোলাম আকতার জাকির, কে আর খান পাঠান, ব্যারিস্টার আতিকুর রহমান, ব্যারিস্টার মীর হেলাল উদ্দিন, এ এম আফতাব উদ্দিন ও ফাইয়াজ জিবরান।
জিয়া অরফানেজ ট্রাস্ট মামলায় বিচারিক আদালতে বিএনপি চেয়ারপার্সন বেগম খালেদা জিয়ার হাজিরা শেষে ফেরার পথে বিএনপি নেতাকর্মীরা বিভিন্ন সড়কে অবস্থান নেন। এ সময় শিক্ষাভবন এলাকায় পুলিশের সঙ্গে বিএনপি নেতাকর্মীদের সংঘর্ষ হয়। পরে এ ঘটনায় গত ডিসেম্বরের শেষ সপ্তাহে ছয়টি মামলা দায়ের করে পুলিশ। মামলায় কায়সার কামালকে আসামী করা হয়।
পরে ব্যারিস্টার আতিকুর রহমান বলেন, এর আগে নাশকতার অভিযোগে কায়সার কামালের বিরুদ্ধে গত ২০, ২১, ২৬ ডিসেম্বর পৃথক তিনটি মামলা ও ২৮ ডিসেম্বর দুটি এবং চলতি বছরের ৩ জানুয়ারির আরো একটি মামলা দায়ের করা হয়। কিন্তু ওই সময় তিনি থাইল্যান্ডে অবস্থান করছিলেন। এসব মামলায় জামিনের আবেদন করা হলে এই ছয় মামলায় পুলিশ প্রতিবেদন না দেয়া পর্যন্ত তার জামিন মঞ্জুর করেন হাইকোর্ট।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ