ঢাকা, শুক্রবার 20 April 2018, ৭ বৈশাখ ১৪২৫, ৩ শাবান ১৪৩৯ হিজরী
Online Edition

সংসদে প্রধানমন্ত্রীর মিথ্যাচার এক ধরনের রাষ্ট্রদ্রোহিতা: ফখরুল

সংগ্রাম অনলাইন ডেস্ক: বিএনপির মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর মনে করেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা জাতীয় সংসদে দাঁড়িয়ে মিথ্যাচার ও বিভ্রান্তি ছড়ানোর চেষ্টা করেছেন, যা এক ধরনের রাষ্ট্রদ্রোহিতা; কারণ, জাতীয় সংসদে মিথ্যাচার করে তিনি শপথভঙ্গ করেছেন।

আজ বৃহস্পতিবার দুপুরে রাজধানীর নয়াপল্টনে দলের কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে এক সংবাদ সম্মেলনে মির্জা ফখরুল এসব কথা বলেন। গতকাল বুধবার সংসদে প্রধানমন্ত্রীর বক্তব্যের প্রতিক্রিয়ায় তিনি এসব বলেন।

উল্লেখ্য, গত ৭ ডিসেম্বর গণভবনের এক সংবাদ সম্মেলনে সাংবাদিকের প্রশ্নের জবাবে খালেদা জিয়া ও তাঁর পরিবারের সদস্যদের বিদেশে বিপুল পরিমাণ সম্পদ থাকার কথা বলেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। গতকালও জাতীয় সংসদে প্রধানমন্ত্রী তার প্রশ্নোত্তর পর্বে এই বিষয়টি আবারো উপস্থাপন করেন। তার ভাষ্য অনুযায়ী, বিএনপি চেয়ারপারসনের বেলজিয়ামে ৭৫০ মিলিয়ন ডলার, মালয়েশিয়ায় ২৫০ মিলিয়ন ডলার, দুবাইয়ে কয়েক মিলিয়ন ডলার মূল্যের বাড়ি ও সৌদি আরবে মার্কেটসহ অন্যান্য সম্পত্তি রয়েছে।

মির্জা ফখরুল বলেন, বিএনপি চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়াকে নিয়ে জাতীয় সংসদে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার দেয়া বক্তব্য মিথ্যাচারে ভরপুর। প্রধানমন্ত্রী যা বলেছেন সবই ভিত্তিহীন। তিনি মানুষকে বিভ্রান্ত করতেই বিএনপি চেয়ারপারসনের বিরুদ্ধে প্রতিনিয়ত মিথ্যাচার করছেন।

মির্জা ফখরুল আরো বলেন, সংসদে প্রধানমন্ত্রীর বক্তব্য যেন গণতন্ত্রের ওপর বিষাক্ত তীর নিক্ষেপ। এর ফলে আগামী সংসদ নির্বাচন নিয়ে মানুষের মধ্যে সংশয় ও সন্দেহের সৃষ্টি হবে।

মির্জা ফখরুল বলেন, “সংসদে দাঁড়িয়ে তিনি যে বিভ্রান্ত করবার চেষ্টা করছেন, এটা এক ধরনের রাষ্ট্রদ্রোহিতাও বটে।'

তিনি মনে করেন, 'প্রধানমন্ত্রীর বক্তব্য অশ্রাব্য, হিতাহিত কাণ্ডজ্ঞানহীন, বিবেচনাহীন, সভ্যতা-ভব্যতা ও সুরুচির ওপর হিংস্র আগ্রাসন।”

তিনি দলীয় নেত্রীর সম্পদ নিয়ে প্রধানমন্ত্রীর বক্তব্যের নিন্দা, প্রতিবাদ ও ধিক্কার জানান।

বিএনপি মহাসচিব প্রধানমন্ত্রী সম্পর্কে বলেন, ‌‌শপথ নিয়েছেন যে উনি প্রধানমন্ত্রীর দায়িত্ব পালন করবেন, সত্য কথা বলবেন, মিথ্যা কথা বলবেন না। সংসদে দাঁড়িয়ে তিনি মিথ্যা কথা বলতে পারেন না, সারা জাতিকে বিভ্রান্ত করতে পারেন না। অথচ সংসদে তিনি এই মিথ্যাচার করছেন। এখনো বলছি এই সমস্ত বন্ধ করুন, মিথ্যাচার বন্ধ করুন। জাতিকে বিভ্রান্ত করার অপচেষ্টা বন্ধ করুন। জাতি কখনো বিভ্রান্ত হবে না, কোনোদিন হয়নি।’

সংসদে প্রধানমন্ত্রীর অভিযোগ প্রসঙ্গে মির্জা ফখরুল বলেন, ‘প্রধানমন্ত্রী বলেছেন যে, খালেদা জিয়া তাঁর বিরুদ্ধে আনীত অভিযোগগুলোর প্রতিবাদ করেননি। এটা সম্পূর্ণভাবে মিথ্যাচার। আমরা এখানে (নয়াপল্টন কার্যালয়) থেকে সংবাদ সম্মেলন করেছি। শুধু তাই নয়, আমরা উকিল নোটিশ পাঠিয়েছি,। তার জবাব তিনি (প্রধানমন্ত্রী) এখন পর্যন্ত দেননি। তিনি এই উকিল নোটিশের জবাব না দিয়ে প্রমাণ করে দিয়েছেন যে তাঁর বক্তব্য সম্পূর্ণ ভিত্তিহীন ও বানোয়াট।’

ডি.স/আ.হু

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ