ঢাকা, শনিবার 13 January 2018, ৩০ পৌষ ১৪২৪, ২৫ রবিউস সানি ১৪৩৯ হিজরী
Online Edition

মহাকাশে উপগ্রহ উৎক্ষেপণে সেঞ্চুরি ভারতের

১২ জানুয়ারি, এনডিটিভি :  ফের একবার ইতিহাসের সাক্ষী থাকল ভারতবাসী। ভারতীয় মহাকাশ গবেষণা সংস্থা ইসরো এবার একসঙ্গে ৩১টি কৃত্রিম উপগ্রহকে মহাকাশে পাঠাল। একই সঙ্গে ১০০তম উপগ্রহ পাঠিয়ে সেঞ্চুরি হাঁকাল তারা। শুক্রবার সকাল ৯.২৯  মিনিট নাগাদ উৎক্ষেপণ করা হয় ১০০তম কৃত্রিম উপগ্রহ। পিএসএলভি ( পোলার স্যাটেলাইট লঞ্চ ভেহিকল) সি৪০/কার্টোস্যাট২ সিরিজের মাধ্যমেই কৃত্রিম উপগ্রহগুলি মহাকাশে পাড়ি দেয়।

২০১৭ সালের ৩১ আগস্টে এই রকেট ব্যবহার করে ব্যর্থতার সম্মুখীন হয়েছিল ইসরো। এবারে তাই প্রস্তুতি আরও জোরদার। মহাকাশে নজরদারি চালানোর জন্য ভারত পাঠাবে কার্টোস্যাট-২ সিরিজের স্যাটেলাইট। এই অভিযানের বিষয়ে চূড়ান্ত পর্যায়ের আলোচনার জন্য বৈঠকে বসেছিল অভিযান সংক্রান্ত কমিটি (এমআরআর) ও কর্তৃপক্ষ (এলএবি)। অভিযানে সম্মতি মিলতেই ইসরোজুড়ে ব্যস্ততা তুঙ্গে। এই অভিযানে পিএসএলভি ২৫ মিনিটের বদলে ১ ঘণ্টা পর্যন্ত কর্মক্ষম থাকবে। দুটি পৃথক অভিযানের কর্মক্ষমতা ব্যয় হবে একটি অভিযানেই। ইতিমধ্যেই পিএসএলভি-র সাহায্যেই প্রায় ২৫০টি কৃত্রিম উপগ্রহ মহাকাশে সাফল্যের সঙ্গে পাঠিয়েছে ইসরো।

পিএসএলভি এখন আরও বেশি উন্নত। এই নিয়ে মোট ৪২ বার মহাকাশে পাড়ি দিচ্ছে এই রকেটটি। ৪র্থ পর্যায়ের এই ইঞ্জিনটিতে রয়েছে ‘মাল্টিপল বার্ন টেকনোলজি’। অর্থাৎ ৩১টি কৃত্রিম উপগ্রহকে (স্যাটেলাইট) মহাকাশে পাঠানোর সময়ে ইঞ্জিনটি আট মিনিট ধরে কাজ করবে, আবার পরবর্তী আট মিনিট তা বন্ধ হয়ে যাবে। কৃত্রিম উপগ্রহগুলাইক কক্ষপথে স্থাপন করে ফের চালু হবে। অভিযানের অধিকর্তা আর হিউটন বলেন, ২০১৭ সালের আগস্টের অভিযানে পিএসএলভি-র যে কর্মক্ষমতা ছিল, শুক্রবারের অভিযানেও সেই একই কর্মক্ষমতা থাকবে রকেটটির। 

 

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ