ঢাকা, বুধবার 17 January 2018, ৪ মাঘ ১৪২৪, ২৯ রবিউস সানি ১৪৩৯ হিজরী
Online Edition

অপহরণের ৪ দিনেও উদ্ধার হয়নি আব্দুল মাবুদ

সোনাইমুড়ী (নোয়াখালী) সংবাদদাতা : নোয়াখালীর সোনাইমুড়ীতে অপহরণের ৪ দিনেও আবদুল মাবুদকে উদ্ধার করতে পারেনি থানা পুলিশ। জানা যায়, উপজেলার নাটেশ্বের গ্রামের মৃত শামছল হকের পুত্র আবদুল মাবুদ তার মালিকীয় ও দখলীয় ১ শতাংশ জমিন বিক্রি করতে গত ১০ জানুয়ারি সকাল ১০টার দিকে উপজেলা সাবরেজিস্ট্রি অফিসে আসে। গ্রহিতাকে জমি রেজিস্ট্রি করে দিয়ে ২ লক্ষ টাকাসহ বাড়ি রওয়ানা দিলে সাবরেজিস্ট্রি অফিসের সামনে থেকে সিএনজি জোগে অজ্ঞাত ৫/৬ জন লোক জোরপূর্বক টেনে হেচড়ে গাড়িতে তুলে মাবুদকে অপহরণ করে।
এ ঘটনার অপহৃতার বড় বোনের জামাই মোঃ ইসমাইল বাদী হয়ে অপহরণের অভিযোগ এনে সোনাইমুড়ী থানায় একটি মামলা দায়ের করেন।
মামলা দায়েরের ৪ দিনেও পুলিশ অপহৃতাকে উদ্ধার করতে সক্ষম হয়নি। অপহৃতার ভগ্নিপতি ইসমাইল রোববার সকাল ১০টার দিকে সোনাইমুড়ী প্রেসক্লাবে এসে সাংবাদিকদের জানান, আবদুল মাবুদ তার স্ত্রীর ছোট ভাই। সে সাবরেজিস্ট্রি অফিস থেকে বিগত ৪ দিন পূর্বে অপহৃত হয়।
এখনো সে উদ্ধার না হওয়ায় তার পরিবার হতাশায় ভুগছে।
সোনাইমুড়ী থানার ওসি ইসমাইল মিঞা জানান, অপহৃতাকে উদ্ধারের চেষ্টা চলছে।
আদালতে মামলা
নোয়াখালীর সোনাইমুড়ীতে নবজাতককে হত্যার অভিযোগে ডাক্তারসহ একটি বেসরকারি হাসপাতালের ব্যবস্থাপনা পরিচালকের বিরুদ্ধে আদালতে মামলা হয়েছে।
এ ঘটনায় উপজেলার সোনাইমুড়ী গ্রামের মৃত মনছুর আলীর পুত্র মোঃ শফিক উল্যা বাদী হয়ে বিজ্ঞ সিনিয়র বিচারিক ম্যাজিস্ট্রেট নোয়াখালীর ৩ নং আমলী আদালতে এ মামলা দায়ের করেন।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ