ঢাকা, বুধবার 24 January 2018, ১১ মাঘ ১৪২৪, ৬ জমদিউল আউয়াল ১৪৩৯ হিজরী
Online Edition

মামলার বাদীকে হুমকি

নেত্রকোনা সংবাদদাতা: সদর উপজেলার কামালগাতী গ্রামের মায়া রানীকে আসামি পক্ষের লোকজন নানা ভয়ভীতি ও হুমকি প্রদান করছে। এতে করে মামলার বাদী জীবনের নিরাপত্তাহীনতায় ভুগছেন। বিষয়টি বাদী গত শনিবার স্থানীয় সাংবাদিকদের জানান।  অভিযোগে জানা গেছে, সদর উপজেলার কামালগাতী গ্রামের রতন চন্দ্র বিশ্বশর্মার স্ত্রী মায়া রানীর সাথে বেশ কিছুদিন ধরে পৌর সভার নাগড়া এলাকার আবুল কাসেমের স্ত্রী সেলিনা আক্তারের বিরোধ চলছিল। সেলিনা আক্তার তার লোকজন নিয়ে মায়া রানীকে নানাভাবে অত্যাচার নির্যাতন করে আসছিল। এরই জের ধরে গত রোববার বাদীর বাড়িতে গিয়ে অকথ্য ভাষায় গালাগাল শুরু করে। এক পর্যায়ে আবুল কাসেম, সাগর মিয়া, শাওন মিয়াসহ ১৪-১৫জন মায়া রানীর ওপর হামলা চালায় এবং মাটিতে ফেলে মারধর করে এবং শ্লীলতাহানি ঘটায়। মায়া রানী দৌড়ে বাড়ি সংলগ্ন কালী মন্দিরে আশ্রয় নেন। হামলাকারীরা তাকে ধাওয়া করে মন্দিরের দরজা, জানালা ভাংচুর এবং মন্দিরের বিগ্রহ ভাংচুরের চেষ্টা চালায়। বাদীর ডাক চিৎকারে আশপাশের লোকজন এগিয়ে গেলে হামলাকারীরা চলে যায়। এ সময় বাদীর গলায় থাকা প্রায় ৩০ হাজার টাকা মূল্যের স্বর্ণের চেইন তারা নিয়ে যায়। এ থানায় মায়া রানী বাদী হয়ে গত বুধবার আবুল কাসেম, সেলিনা আক্তারসহ ১০জনের নাম উল্লেখ ও অজ্ঞাত ৪-৫জনের বিরুদ্ধে বিজ্ঞ অতিরিক্ত চীফ জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে মামলা করেন। বিজ্ঞ আদালত নেত্রকোনা মডেল থানার ওসিকে বিষয়টি তদন্ত করে আগামী ২২ জানুয়ারী আদালতে প্রতিবেদন দেয়ার নির্দেশ দেন। এ দিকে মামলা করায় আসামিরা মায়া রানীকে নানা ভয়ভীতি ও হুমকি প্রদর্শণ করছে।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ