ঢাকা, বৃহস্পতিবার 25 January 2018, ১২ মাঘ ১৪২৪, ৭ জমদিউল আউয়াল ১৪৩৯ হিজরী
Online Edition

বাংলাদেশের প্রতিপক্ষ আজ শ্রীলংকা

রফিকুল ইসলাম মিঞা : ত্রিদেশীয় সিরিজের ফিরতি পর্বের শেষ ম্যাচে আজ মাঠে নামছে বাংলাদেশ। বাংলাদেশের প্রতিপক্ষ শ্রীলংকা। প্রথম পর্বে শ্রীলংকাকে রেকর্ড রান ব্যবধানে হারিয়ে জয় পেয়েছিল বাংলাদেশ দল। আজও জয়ের টার্গেট নিয়ে মাঠে নামবে মাশরাফিরা। এর আগে তিনটি ম্যাচ খেলে তিনটি ম্যাচেই জয় পেয়েছে বাংলাদেশ। আর ফাইনার নিশ্চিত করেছে প্রথম দুই ম্যাচে জয় নিয়েই। ফলে এই ম্যাচটিও বাংলাদেশের জন্য নিয়ম রক্ষার ম্যাচই। তার পরও জয়ের ধারাবাহিকতা ধরে রাখতে জয় নিয়েই মাঠ ছাড়তে চায় বাংলাদেশ দল। মিরপুর স্টেডিয়ামে দুপুর বারটায় শুরু হবে বাংলাদেশ-শ্রীলংকা ম্যাচটি।
আজকের ম্যাচটি বাংলাদেশের জন্য নিয়ম রক্ষার ম্যাচ হলেও শ্রীলংকার জন্য খুবই গুরুত্বপূর্ণ। কারণ বাংলাদেশের সাথে ফাইনাল খেলতে হলে আজ জয়টা দরকার লংকানদের। যদিও এই ম্যাচে হারলেও ফাইনালে যাওয়ার সুযোগ থাকছে শ্রীলংকার। কারণ জিম্বাবুয়ে নিজেদের শেষ ম্যাচে বাংলাদেশের বিপক্ষে মাঠে নামার আগে পয়েন্ট টেবিলের তিনে ছিল শ্রীলংকা। তবে ফিরতি পর্বে বাংলাদেশের বিপক্ষে জিম্বাবুয়ের বড় ব্যবধানের হারে পয়েন্ট টেবিলে দুইয়ে উঠে এসেছে লংকানরা। তাই বাংলাদেশের বিপক্ষে শেষ ম্যাচে শ্রীলংকা হারলেও নেট রান রেটের হিসেব-নিকাশে ফাইনালে খেলার সুযোগ থাকছে দলটির। তবে এই ম্যাচে জিতে মানসিকভাবে এগিয়ে থাকতে চায় লংকানরা। ত্রিদেশীয় সিরিজে এবার শুরুটা ভালো হয়নি লংকানদের। নিজেদের প্রথম ম্যাচেই দলটি হারে জিম্বাবুয়ের কাছে। পরের ম্যাচে বাংলাদেশের কাছে হারে শ্রীলংকা। ফলে প্রথম দুই ম্যাচে হেরে ফাইনালে উঠার পথটাই কঠিন করে ফেলে দলটি। তবে তৃতীয় ম্যাচে জিম্বাবুয়েকে হারিয়ে প্রথম জয় পায় তারা। ফলে শ্রীলংকা ৩ ম্যাচ খেলে এক জয়ে আছে ৪ পয়েন্ট নিয়ে রান রেটে এগিয়ে থেকে জিম্বাবুয়ের উপরে আছে। ফলে আজ বাংলাদেশের বিপক্ষে হারলেও শ্রীলংকার ফাইনাল খেলার আশাটাই শেষ হবে যাবেনা। তবে বাংলাদেশকে হারিয়ে ত্রিদেশীয় ওয়ানডে সিরিজের ফাইনালে খেলতে চায় শ্রীলংকা। আর জিম্বাবুয়ে চার ম্যাচ খেলে এক জয়ে ৪ পয়েন্ট নিয়ে রান রেটে শ্রীলংকার নিচে আছে। ফলে ফাইনালে খেলার আশা প্রায় শেষ হয়ে গেছে দলটি। তবে আজ বাংলাদেশ-শ্রীলংকার ম্যাচে যদি শ্রীলংকা বিশাল ব্যবধানে হারে তবে জিম্বাবুয়েরও সুযোগ থাকবে ফাইনালে উঠার। বাংলাদেশের বিপক্ষে ভালো ফল নিয়ে ফাইনালে খেলার ইঙ্গিত দিলেন শ্রীলংকার ভারপ্রাপ্ত অধিনায়ক দিনেশ চান্ডিমাল। তিনি বলেন, ‘এ ধরনের টুর্নামেন্টে প্রথম দুটি ম্যাচ হেরে গেলে সবসময়ই কঠিন। কিন্তু কখনও কখনও এটা আপনাকে শক্তভাবে ফিরতে আত্মবিশ্বাস যোগাবে। দল হিসেবে আমরা ওভাবেই দেখছি এবং ভাল কিছু করে ফিরতে চাইছি। গুরুত্বপূর্ণ ম্যাচের আগে বাংলাদেশ নিয়ে প্রশংসা করেছেন চান্ডিমাল। তিনি বলেন, ‘বাংলাদেশের ইতিহাসে এই দলটা অসাধারণ। ওদের দুর্দান্ত কিছু খেলোয়াড় রয়েছে। মাশরাফি, তামিম, সাকিব, মুশফিক, মাহমুদুল্লাহ। মূল ব্যাপার হলো সিনিয়র খেলোয়াড়রা তাদের দায়িত্ব পালন করছে। ৮-১০ বছর হলো আন্তর্জাতিক ক্রিকেট খেলছে। আমার মনে হয় এটাই তাদের বাড়তি সুবিধা। তারা সবাই অসাধারণ।’ ফাইনাল নিশ্চিত হলেও, লিগ পর্বে নিজেদের শেষ ম্যাচে জয়ের ধারা অব্যাহত রাখতে চায় বাংলাদেশ। এমনটাই বললেন বাংলাদেশের টিম ডিরেক্টর খালেদ মাহমুদ সুজন। তিনি বলেন, ‘টুর্নামেন্টে কোনো ম্যাচ হারতে চাই না, বড় কথা হল এটাই। কালকের ম্যাচটা আমাদের কাছে ফাইনালের মতোই গুরুত্বপূর্ণ। আলাদা একটা ওয়ানডে ম্যাচ। প্রত্যেকটা ম্যাচই আমাদের জন্য গুরুত্বপূর্ণ। আর ফাইনাল তো অবশ্যই ফাইনাল। এ ম্যাচটাও গুরুত্বপূর্ণ।’
বাংলাদেশ দল : মাশরাফি বিন মর্তুজা (অধিনায়ক), সাকিব আল হাসান (সহ-অধিনায়ক), তামিম ইকবাল, এনামুল হক বিজয়, মুশফিকুর রহিম (উইকেটরক্ষক), মাহমুদুল্লাহ রিয়াদ, নাসির হোসেন, সাব্বির রহমান, মোহাম্মদ মিথুন, মুস্তাফিজুর রহমান, রুবেল হোসেন, আবুল হাসান রাজু, মেহেদি হাসান মিরাজ, মোহাম্মদ সাইফুদ্দিন ও সানজামুল ইসলাম।
শ্রীলংকা : দিনেশ চান্ডিমাল (অধিনায়ক), উপুল তারাঙ্গা, দানুশকা গুনাথিলাকা, কুসল মেন্ডিজ, ধনানঞ্জয়া ডি সিলভা, থিসারা পেরেরা, আসেলা গুনারতেœ, নিরোশান ডিকবেলা, সুরঙ্গ লাকমাল, নুয়ান প্রদীপ, দুশমন্ত চামিরা, শেহান মাদুশানাকা, আকিলা ধনঞ্জয়া, লক্ষন সান্দাকান ও বানিদু হাসারাঙ্গা।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ