ঢাকা, বৃহস্পতিবার 8 February 2018, ২৬ মাঘ ১৪২৪, ২১ জমদিউল আউয়াল ১৪৩৯ হিজরী
Online Edition

ফরিদপুরে সড়ক দুর্ঘটনায় নিহত ৬ ॥ আহত ৩০

ফরিদপুর সংবাদদাতা : ফরিদপুরে পৃথক সড়ক দুর্ঘটনায় ৬ নিহত হয়েছেন। এদের মধ্যে সদর উপজেলার ধুলদী রেলগেটে বাস দুর্ঘটনায় চালকসহ ৩ জন নিহত হয়েছেন। এদের মধ্যে একজন ভারতীয় নাগরিকও রয়েছেন। এছাড়া অপর এক দুর্ঘটনায় ভাঙ্গা উপজেলার আজিমনগর ইউনিয়নে নিহত হয়েছেন আরো ৩ জন।
ধুলদী রেলক্রসিংয়ে দুর্ঘটনায় নিহতরা হলেন, দুর্ঘটনাকবলিত ঈগল পরিবহনের চালক রাজবাড়ি জেলা ভবানীপুরের জনৈক আব্দুস সাত্তার মোল্যার ছেলে মাসুদ রানা (৩৮), বাসের সুপারভাইজার সাভারের এফ/৪৪ উত্তরপাড়ার মোঃ হাশেম আলীর ছেলে এমদাদুল হক ও পশ্চিমবঙ্গের বারাসাতের নাগরিক সুকান্ত মল্লিক।
দুর্ঘটনাকবলিত বাসটিতে ভারতের পশ্চিমবঙ্গের কনস্ট্রাকশন কেমিকেল স্পেশালিষ্ট নামের একটি কোম্পানির প্রায় ৪৫ জন কর্মী থ্যালাসেমিয়া রোগের প্রচারাভিযানে যশোর থেকে ঢাকায় যাচ্ছিলেন।
ফরিদপুর কোতয়ালী থানার এসআই শামীম ও পুলিশ লাইনের নায়েক জহুরুল জানান, আজ মঙ্গলবার বেলা সাড়ে ১০টার দিকে ধুলদী রেলগেটে বেনাপোল থেকে ছেড়ে আসা ঈগল পরিবহনের একটি বাস রেলক্রসিং অতিক্রম করার সময় দুর্ঘটনার কবলে পরে। এতে বাস চালক ও সুপার ভাইজারসহ একজন ভারতীয় নাগরিক নিহত হন।
ফরিদপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের ইমার্জেন্সি চিকিৎসক ডা. ফরিদউদ্দিন জানান, আহতদের মধ্যে ২৮ জনকে সার্জারী ওয়ার্ডে এবং তিনজনকে ট্রমা সেন্টারে ভর্তি করা হয়েছে।
প্রত্যক্ষদর্শী রাকিব হাসান জানান, প্রচন্ড গতিতে ঈগল পরিবহনের বাসটি ডান সাইড দিয়ে রেল ক্রসিং করছিলো। এসময় বিপরীত দিক থেকে অপর একজন মোটর সাইকেল চালিয়ে আসছিলো। বাসচালক রং সাইড দিয়ে দ্রুত গতিতে রেলক্রসিং অতিক্রম করার সময় মোটর সাইকেলটিকে চাপা দিয়ে পাশের একটি গাছের সাথে ধাক্কা খায়।
ঈগল পরিবহনে থাকা কনস্ট্রাকশন কেমিকেল স্পেশালিষ্ট নামে পশ্চিমবঙ্গের ওই কোম্পানির কর্মী সুপ্রভাত কর্মকার (৪৮) জানান, বাস চালক শুরু থেকেই বেপরোয়াভাবে গাড়ি চালাচ্ছিলো। রেলক্রসিং অতিক্রম করার সময়ও গতি কমায়নি সে। দুর্ঘটনার জন্য বাস চালকই সম্পূর্ণভাবে দায়ি । একই কথা জানান ট্রমা সেন্টারে ভর্তি বারাসাতের নাগরিক মর্তুজা মোল্যা (২৬) ও আল আমীন (২৫)।
অপরদিকে আজ মঙ্গলবার সকাল ৯টার দিকে উপজেলার ঢাকা-খুলনা মহাসড়কের ভাঙ্গা উপজেলার আজিমনগর ইউনিয়নের ব্রাহ্মনপাড়া নামক স্থানে পৃথক সড়ক দুর্ঘটনায় তিনজন নিহত হয়েছেন। প্রত্যক্ষদর্শী সূত্রে জানা গেছে, রাস্তায় দাঁড়িয়ে থাকা পাথর বোঝাই একটি বড় ট্রাকের সাথে শিবচরগামী ইট বোঝাই একটি ট্রাকের সংঘর্ষ হলে ৩ জন নিহত হন।
পুলিশ জানায়, এ সংঘর্ষে ঘটনাস্থলেই ট্রাক চালকের সাহায্যকারী মাদারীপুর জেলার শিবচর উপজেলার গুপ্তেরচর গ্রামের আলাপ শেখের ছেলে চাঁন মিয়া শেখ (২০) নিহত হয়। ভাঙ্গা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে আনার পর মারা যায় ট্রাকের অপর হেলপার একই গ্রামের নিলু মোল্যার ছেলে মিলন মোল্যা (২২)। ফরিদপুর মেডিকেলে নেওয়ার পথে মারা যায় লেবার নারায়নগঞ্জের রূপগঞ্জ উপজেলার গাওছিয়া গ্রামের রিংকু (৩০)। ভাঙ্গা হাইওয়ে থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা এজাজুল ইসলাম ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করেছেন।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ