ঢাকা, বৃহস্পতিবার 8 February 2018, ২৬ মাঘ ১৪২৪, ২১ জমদিউল আউয়াল ১৪৩৯ হিজরী
Online Edition

আগৈলঝাড়া ও চকরিয়ায় ভয়াবহ অগ্নিকান্ড ১৬ লক্ষাধিক টাকার ক্ষতি

আগৈলঝাড়া (বরিশাল) সংবাদদাতা : বরিশালের আগৈলঝাড়ায় অগ্নিকান্ডে দুটি ব্যবসা প্রতিষ্ঠান ভস্মীভূত হয়েছে। এতে প্রায় ৮ লাখ টাকার ক্ষতি হয়েছে। পুলিশ ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছে। সরেজমিন গিয়ে জানা গেছে, উপজেলার রতœপুর ইউনিয়নের মোহনকাঠী-মোল্লাপাড়া সড়কের দক্ষিণ মোল্লাপাড়া গ্রামের বেসরকারি এনজিও ব্রেভ অফিসের সামনে মুদি ব্যবসায়ী কামাল হাওলাদার ও হাবিবুর রহমানের কম্পিউটার ও লাইব্রেরীর দোকানে শনিবার গভীর রাতে আগুনে ভস্মিভূত হয়ে পুড়ে যায়। দুটি দোকান ভস্মীভূত হওয়ায় প্রায় ৮ লাখ টাকার ক্ষতি হয়েছে বলে প্রাথমিকভাবে ধারণা করা হচ্ছে। গত রোববার সকালে আগৈলঝাড়া থানা পুলিশের এসআই জাহিদুল ইসলাম ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছে।
চকরিয়া
চকরিয়া পৌরসভার বাসটার্মিনালে জমজম টেলিকম ও কুলিং কর্ণার নামের মালিকানাধীন একটি দোকাঘর পুড়ে ছাই হয়েছে। রোববার ভোররাতে ভয়াবহ এ অগ্নিকান্ডের ঘটনা ঘটে। এতে বিকাশের টাকা ও নগদ টাকাসহ অন্তত ৮লক্ষাধিক টাকার ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে। গত রোববার ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছেন চকরিয়া পৌরসভার মেয়র আলমগীর চৌধুরী। এদিকে দোকানের মালিক মো. জসীম উদ্দিন প্রত্যক্ষদর্শীদের বরাত দিয়ে জানান, পার্শ্ববর্তী দোকানি ও স্থানীয়রা রাত সাড়ে ৩টার দিকে আমাকে ফোন দিয়ে আগুনে দোকানঘর পুড়ে যাওয়ার খবর দেয়। সাথেসাথে আমি ঘটনাস্থলে পৌঁছে এবং ফায়ার সার্ভিসের একটি দল ঘটনাস্থলে এসে পৌঁছে। পরে অগ্নি নির্বাপক কর্মীরা আগুন নিয়ন্ত্রণে আনে। ততক্ষণে দোকানের সব মালামাল পুড়ে ছাই হয়ে যায়। তিনি সাংবাদিকদের জানান, দোকানে পানিয় পণ্য ছাড়াও মোবাইলের যাবতীয় অপারেটরের ব্যালেন্স লোডিং মোবাইল, বিকাশ, নগদ টাকা ও ২টি রেফ্রিজারেটরসহ সর্বস্ব আগুনে পুড়ে যায়। তবে তিনি আগুনের সূত্রপাত কোত্থেকে হয়েছে তা নিশ্চিত করতে পারেননি। এতে অন্তত ৮লক্ষাধিক টাকার মালামাল পুড়ে ব্যাপক ক্ষতিগ্রস্ত হয়। তিনি এব্যাপারে সংশ্লিষ্ট প্রশাসনের আশু হস্তক্ষেপ কামনা করেন।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ