ঢাকা, বৃহস্পতিবার 8 February 2018, ২৬ মাঘ ১৪২৪, ২১ জমদিউল আউয়াল ১৪৩৯ হিজরী
Online Edition

দাউদকান্দি পৌর বাজারে রবি প্রি-পেইড কার্ড বিক্রয় কেন্দ্রে দুর্বৃত্তদের হানা ॥ সিসি ক্যামেরাসহ ৩৪ লাখ টাকার মালামাল চুরি

দাউদকান্দি (কুমিল্লা) সংবাদদাতা : দাউদকান্দি পৌর বাজারে রবি প্রি-পেইড কার্ড বিক্রয় কেন্দ্রে দুর্বৃত্তদের হানা সিসি ক্যামেরাসহ ৩৪ লাখ টাকার মালামাল চুরির ঘটনায় বুধবার পর্যন্ত পুলিশ কোনো মালামাল উদ্ধার ও কাউকে আটক করতে পারেননি। এ ঘটনায় ব্যবসায়ীসহ বিভিন্ন মহলে হতাশা ও ক্ষোভ বিরাজ করছে। গত রোববার দিবাগত গভীর রাতে দাউদকান্দি সদর বাজারে রবি প্রি-পেইড কার্ড বিক্রয় কেন্দ্রে দুর্বৃত্তরা হানা দিয়ে গেইট, আলমারি ও সিন্দুকের তালা ভেঙ্গে নগদ টাকা, প্রে-পেইড কার্ড ও হার্ড-ডিষ্কসহ সিসি ক্যামেরা লুটপাটের অভিযোগ পাওয়া গেছে। আবেদা-হাকিম টাওয়ারের দ্বিতীয় তলায় আরমান চৌধূরী রবিন ও সওগাত চৌধূরী পিটার দুই ভাই মিলে এই ব্যবসা প্রতিষ্ঠানটি পরিচালনা করছেন। সোমবার সকালে সংশ্লিষ্ট কর্মচারীরা প্রতিষ্ঠানে এসে চুরির খবর জানান পিটার চৌধূরীকে। তিনি থানা পুলিশকে খবর দিলে ওসি মো. মিজানুর রহমানসহ বিভিন্ন পর্যায়ের থানা প্রশাসনের অফিসারবৃন্দ ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেন। চুরির ঘটনায় হিসাব রক্ষক ইকবাল হোসেন বাদী হয়ে থানায় একটি মামলা দায়ের করেন। অভিযোগ সূত্রে জানা গেছে রোববার সন্ধ্যা পর্যন্ত মফস্বলে বিক্রয়ের ১০লাখ ৮৭হাজার ৪শ ৬৭টাকা ও ২৩লাখ ৬৯হাজার ৮শ ৩৬টাকার প্রি-পেইড কার্ড লুট হয়েছে। ম্যানেজার মাহবুবুর রহমান জানান, আলামত নিশ্চিহ্ন করার কৌশল হিসেবে হার্ড ডিস্কসহ সিসি ক্যামেরা নিয়ে গেছে দুর্বৃত্তরা। কর্মচারী ও প্রতিবেশীদের ধারণা পাশের মসজিদের ছাদ বেয়ে দুর্বৃত্তরা উপরে উঠে টাকাসহ সমুদয় মালামাল নিয়ে গেছে।
নকল রোধে প্রশাসন সক্রিয় : গতকাল বুধবার হোমনার খাদিজা মেমোরিয়াল বালিকা উচ্চ বিদ্যালয় কেন্দ্রে শান্তিপূর্ণভাবে দাখিল পরীক্ষা চলতে দেখা যায়। এখানে ৯টি মাদ্রাসার মোট ২৭৪জন পরীক্ষার্থী রয়েছে। কেন্দ্র সচিব মো. ইমাম হোসাইন জানান, অতিরিক্ত ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা হিসেবে মো. রিয়াজুল ইসলাম ও হল সুপার এএসএম সাইফুল্লাহ্ দায়িত্ব পালন করছেন। নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট হিসেবে কেন্দ্র পরিদর্শণ করেন মেঘনা উপজেলা সহকারী কমিশনার ভূমি এএসএম মোসা। তিতাসের বাতাকান্দি সরকার সাহেব আলী আবুল হোসেন মেমোরিয়াল উচ্চ বিদ্যালয় কেন্দ্রে এসএসসির মোট পরীক্ষার্থী ৬০১জন। কেন্দ্র সচিব মো. মোখলেছুর রহমান জানান, এখানে অতিরিক্ত ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা রয়েছেন উপজেলা কৃষি অফিসার মো. কামরুল হাসান মিতু ও সহকারী ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা উপজেলা সাব-রেজিষ্টার জামসেদুল আলম। হল সুপার হলেন মো. রেজাউল হক। বুধবার ইংরেজি দ্বিতীয় পত্রের পরীক্ষা নকল মুক্ত পরিবেশে চলতে দেখা গেছে এখানে। বরাবরের মত কেন্দ্র পরিদর্শণ করেন নির্বাহী ম্যাজিষ্ট্রেট ইউএনও মোহাম্মদ আলমগীর হোসেন এবং জেলা প্রশাসকের প্রতিনিধি নির্বাহী ম্যাজিষ্ট্রেট এএসএম মোসা। দাউদকান্দির গৌরীপুর সুবল-আফ্তাব উচ্চ বিদ্যালয় কেন্দ্রে মোট পরীক্ষার্থী ৮৯০জন ও স্কুলের সংখ্যা ৫টি। কেন্দ্র সচিব মো. সেলিম জানান, এই কেন্দ্রে অতিরিক্ত ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা উপজেলা কৃষি উপ-সহকারী মো. জাহাঙ্গীর আলম এবং এলজিইডির উপ-সহকারী আব্দুল কাইয়ুম দায়িত্ব পালন করছেন। কেন্দ্রে হল সুপার হলেন গৌরাঙ্গ দেবনাথ এবং সহ-সুপার মো. মোমেন ভূঁইয়া। গতকালও দাউদকান্দি উপজেলা নির্বাহী অফিসার মো. আল-আমিন গৌরীপুর সহ বিভিন্ন কেন্দ্র পরিদর্শণ করেন।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ