ঢাকা, শনিবার 17 February 2018, ৫ ফাল্গুন ১৪২৪, ৩০ জমদিউল আউয়াল ১৪৩৯ হিজরী
Online Edition

মোদির অরুনাচল সফর নিয়ে ক্ষুব্ধ চীন

১৬ ফেব্রুয়ারি, রয়টার্স : ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদির দুর্গম অরুণাচল প্রদেশ সফর নিয়ে চীন গতকাল বৃহস্পতিবার ক্ষোভ প্রকাশ করেছে। এই অঞ্চলটিকে চীন নিজেদের বলে দাবি করে বলেছে, ভারতের এই ধরনের পদক্ষেপ সমস্যাকে আরো জটিল করে তুলবে। চীন এই পূর্ব হিমালয় অঞ্চলটি নিজের বলে দাবি করে। তারা এর নাম দিয়েছে ‘দক্ষিণ তিব্বত’। বেইজিং ভারতীয় নেতাদের এই এলাকা সফরের নিন্দা জানিয়েছে। অঞ্চলটির ওপর ভারতের দাবিকে প্রমাণ করার চেষ্টা হিসেবে দেশটির নেতারা অঞ্চলটি সফর করছে বলে তারা মনে করছে।

রাষ্ট্র পরিচালিত সংবাদ সংস্থা সিনহুয়ায় প্রকাশিত চীনের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের মুখপাত্র জিং সুয়াং-এর বিবৃতিতে বলা হয়েছে, ‘চীন-ভারত সীমান্ত প্রশ্নে চীনের অবস্থান খুবই সুস্পষ্ট এবং পরিষ্কার।’ তিনি বলেন, ‘চীন সরকার তথাকথিত অরুণাচল প্রদেশকে স্বীকৃতি দেয়নি এবং বিরোধপূর্ণ অঞ্চলে ভারতীয় নেতার সফরের দৃঢ়ভাবে বিরোধিতা করে।’ সুয়াং বলেন, ‘আমরা ভারতীয় পক্ষের কাছে এ ব্যাপারে তীব্র প্রতিবাদ জানাব।’ ভারতের উত্তর-পূর্বাঞ্চলীয় রাজ্য সফরের অংশ হিসেবে মোদি বিতর্কিত এই এলাকায় গিয়েছিলেন। একটি টুইটার পোস্টে মোদি বলেছেন, ‘আমি অরুণাচল প্রদেশ এবং সেখানকার মানুষদের দেখতে পেরে আনন্দিত।’ সাম্প্রতিক বছরগুলোতে চীন ও ভারতের সম্পর্ক অনেক জোরদার হয়েছে, তবে দুই দেশের মধ্যে দীর্ঘ দিন ধরে চলা সীমান্তবিরোধ এখানো গভীর সঙ্কটের মধ্যে রয়েছে।

১৯৬২ সালে সীমান্ত নিয়ে দুই দেশের মধ্যে সংক্ষিপ্ত যুদ্ধের সূচনা হয়েছিল। ওই যুদ্ধে ভারত শোচনীয়ভাবে পরাজিত হয়েছিল। সর্বশেষ গত বছর চীন-ভারতের সেনারা বিতর্কিত সীমান্তে মুখোমুখি অবস্থায় দাঁড়িয়েছিল।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ