ঢাকা, শুক্রবার 23 February 2018, ১১ ফাল্গুন ১৪২৪, ৬ জমদিউস সানি ১৪৩৯ হিজরী
Online Edition

রাবিতে ড. মাহফুজুর রহমান আখন্দ’র‘রোহিঙ্গা  সমস্যা ও বাংলাদেশ’ গ্রন্থের পাঠ উন্মোচিত

 

রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের গবেষণা সংগঠন শব্দকলা আয়োজিত বিশিষ্ট কবি ও গবেষক ড. মাহফুজুর রহমান আখন্দ রচিত ‘রোহিঙ্গা সমস্যা ও বাংলাদেশ’ গ্রন্থের পাঠ উন্মোচন অনুষ্ঠিত হয়। রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের ইসলামের ইতিহাস ও সংস্কৃতি বিভাগের সাবেক চেয়ারম্যান প্রফেসর ড. মোহাম্মদ মুহিবউল্যাহ ছিদ্দিকীর সভাপতিত্বে রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের শহীদুল্লাহ কলাভবনে অনুষ্ঠিত এ অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন, রাজশাহী বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রফেসর ইমেরিটাস বিশিষ্ট ইতিহাসবিদ ড. একেএম ইয়াকুব আলী। আলোচনা রাখেন বিশিষ্ট কলামিষ্ট ও সমাজবিজ্ঞানী প্রফেসর ড. আব্দুর রহমান সিদ্দিকী, রাবি ইসলামের ইতিহাস ও সংস্কৃতি বিভাগের সাবেক চেয়ারম্যান প্রফেসর ড. কাজী মো. মোস্তাফিজুর রহমান, প্রফেসর ড. সৈয়দা নূরে কাছেদা খাতুন, সমাজকর্ম বিভাগের প্রফেসর ড. গোলাম কিবরিয়া ফেরদৌস, নাট্যকলা বিভাগের অধ্যাপক ড. মোহাম্মদ আলমগীর স্বপন, ফারসি ভাষা ও সাহিত্য বিভাগের সভাপতি ড. মোহাম্মদ আতাউল্যাহ প্রমুখ। অনুষ্ঠানে প্রবন্ধ উপস্থাপন করেন কবি ও প্রাবন্ধিক খুরশীদ আলম বাবু। অনুষ্ঠানটি উপস্থাপনায় ছিলেন কবি শাহাদত সরকার।

অনুষ্ঠানে বক্তাগণ বলেন, রোহিঙ্গারা বর্তমান বিশ্বের সবচেয়ে নির্যাতিত ও অবহেলিত জনগোষ্ঠী। মিয়ানমারে বিভিন্ন সময়ে গণহত্যা চালিয়ে এ জনগোষ্ঠীকে নির্মূল করার প্রক্রিয়া প্রায় চূড়ান্ত পর্যায়ে উপনীত হচ্ছে। পত্র-পত্রিকাসহ বিভিন্ন মিডিয়ার মাধ্যমে বিষয়টি আলোচিত হলেও বাজারে নির্ভরযোগ্য গবেষণাগ্রন্থ তুলনামূলকভাবে কম। ড. মাহফুজুর রহমান আখন্দ দীর্ঘ বিশ বছর যাবৎ এ বিষয়ে গবেষণা করে আসছেন। রোহিঙ্গা ও আরাকান বিষয়েই তিনি এম.ফিল এবং পিএইচ.ডি ডিগ্রিও অর্জন করেছেন। তাঁর এ গ্রন্থটি রোহিঙ্গা বিষয়ক একটি তথ্যবহুল ও গবেষণামূলক নির্ভরযোগ্য গ্রন্থ। এ গ্রন্থ পাঠে ছাত্র-ছাত্রী, গবেষকসহ সাধারণ চিন্তাশীল পাঠক যেমন রোহিঙ্গা সমস্যাকেন্দ্রিক জ্ঞানগর্ভ তথ্য পাবেন তেমনি বাংলাদেশ সরকারের প্রশাসনে দায়িত্বে রত ব্যক্তিগণও রোহিঙ্গা সমস্যা সমাধানে গুরুত্বপূর্ণ দিকনিদের্শনা পাবেন। বর্তমান সময়ে বইটি পাঠকসমাজে ব্যাপকভাবে ছড়িয়ে দেয়া প্রয়োজন। 

-ড. মুহাম্মদ খলিলুর রহমান

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ