ঢাকা, শুক্রবার 16 March 2018, ২ চৈত্র ১৪২৪, ২৭ জমদিউস সানি ১৪৩৯ হিজরী
Online Edition

এন্টিবায়োটিক যুক্ত খাদ্যকে না বলুন

স্টাফ রিপোর্টার: ভোক্তাদের অধিকার সংরক্ষণে সচেতনতা বৃদ্ধির পাশাপাশি ভোক্তার অধিকার বাস্তবায়নে সবাইকে ঐক্যবদ্ধ থাকতে হবে, যাতে করে কেউ ভোক্তা অধিকার হরণ করতে না পারে।

গতকাল বৃহস্পতিবার জাতীয় প্রেসক্লাবের সামনে ভোক্তা অধিকার আইন বাস্তবায়নের দাবিতে আন্তর্জাতিক ভোক্তা অধিকার দিবস উদযাপন উপলক্ষে বেশ কয়েকটি সংগঠন আয়োজিত মানববন্ধন এ সব কথা বলেন বক্তারা।

এ সময় ভোক্তাদের অধিকার নিশ্চিতের বিষয়ে বিভিন্ন সচেতনতামূলক ফেস্টুন, ফিতা ও ব্যানার নিয়ে র‌্যালিও বের করেন তারা। এ বছর দিবসটির প্রতিপাদ্য হচ্ছে ‘এন্টিবায়োটিক যুক্ত খাদ্যকে না বলুন’।

মানববন্ধনের আয়োজন করে, বাংলাদেশ ক্রেতা-ভোক্তা অধিকার সংরক্ষণ ফাউন্ডেশন, বাংলাদেশ কনজ্যুমার রাইটস সোসাইটি, ভেজাল প্রতিরোধ ফাউন্ডশন, ভলান্টারি কনজ্যুমারস ট্রেনিং এন্ড অ্যাওয়ারনেস সোসাইটি,  কনজ্যুমারস ফোরাম ও বাংলাদেশ সাংবাদিক কল্যাণ সোসাইটি।

মানববন্ধনে বক্তারা বলেন, জাতিসংঘের স্বীকৃতি অনুযায়ী ৮টি ভোক্তা অধিকার থাকলেও সরকার ভোক্তা অধিকার অধিদপ্তর নামে একটি নামমাত্র প্রতিষ্ঠান করে রেখেছে। যা সাধারণ জনগণের কোনো কাজে আসছে না। খাদ্যে বিষক্রিয়া এমন পর্যায়ে পৌঁছে গেছে যে সরকার কোনোভাবেই তা নিয়ন্ত্রণ করতে পারছে না।

 ভোক্তা অধিকার অধিদপ্তর মাঝেমধ্যে নামমাত্র অভিযান পরিচালনা করে। আর ১৫ মার্চ এলে নামমাত্র একটি অনুষ্ঠান করেই দায়িত্ব শেষ করে বলেও অভিযোগ করেন বক্তারা।

এ ছাড়া আদালত প্রতি জেলায় খাদ্য আদালত গঠন করে খাদ্যে ভেজাল নিরোধে কাজ করতে নির্দেশ দিলেও সরকার চার বছরেও তা বাস্তবায়ন করেনি। তাই জনসাধারণকে রক্ষায় অবিলম্বে ভোক্তা অধিকার আইন বাস্তবায়ন ও ভোক্তা অধিকার অধিদপ্তরকে আরো কার্যকর করার দাবিও জানান বক্তারা।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ