ঢাকা, শনিবার 24 March 2018, ১০ চৈত্র ১৪২৪, ৫ রজব ১৪৩৯ হিজরী
Online Edition

দিনাজপুরের মধ্যপাড়া খনি থেকে পাথর উত্তোলন উদ্বোধন

ফুলবাড়ী দিনাজপুর সংবাদদাতা : দিনাজপুরের মধ্যপাড়া পাথর খনি থেকে পাথর উৎপাদনের লক্ষ্যমাত্রায় জিটিসি’র ব্যবস্থাপনায় ৯নং স্টোপের শুভ উদ্ভোধন। গতকাল শুক্রবার সকাল সাড়ে ১০টায় বাংলাদেশের একমাত্র দিনাজপুরের মধ্যপাড়া কঠিন শিলা প্রকল্পে প্রতিমাসে ১ লক্ষ ২০ হাজার টন পাথর উত্তোলনের লক্ষ্যে জিটিসি’র ব্যবস্থাপনায় নির্মাণকৃত ৯নং স্টোপ হতে পাথর উত্তোলনের শুভ উদ্বোধন করেন বিদ্যুৎ জ্বালানি ও খনিজ সম্পদ মন্ত্রণালয়ের প্রতিমন্ত্রী মোঃ নসরুল হামিদ (এমপি)। গতকাল শুক্রবার হেলিকপ্টারযোগে দিনাজপুরের মধ্যপাড়া পাথর খনিতে পৌছালে তাকে লাল গালিচা সংবর্ধনা দেওয়া হয়। প্রতিমন্ত্রী হেলিকপ্টার থেকে নামার পর পাথর খনিতে তাকে স্বাগত জানান জিটিসির ঊর্ধ্বতন বিদেশী ও দেশী কর্মকর্তাবৃন্দ এবং মধ্যপাড়া পাথর খনির সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষ। পাথর খনি চত্ত্বরে জিটিসি’র অফিস কমপ্লেক্স মাঠে খনির ৯নং স্টোপ হতে পাথর উৎপাদনের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে জিটিসি’র চেয়ারম্যান ড. মোঃ সিরাজুল ইসলাম কাজি’র সভাপতিত্বে অনুষ্ঠিত সভায় প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত থেকে বক্তব্য রাখেন জ্বালানি ও খনিজ সম্পদ প্রতিমন্ত্রী মোঃ নসরুল হামিদ (এমপি)। তিনি বলেন, মধ্যপাড়া পাথর খনির চেহারা বদলে যাচ্ছে, এই খনিটির কপাল থেকে মুছে যাচ্ছে লোকসানী প্রতিষ্ঠানের কলংকের চিহ্ন। পাথর খনির ঠিকাদারী প্রতিষ্ঠান জার্মানীয়া ট্রেষ্ট কনসোর্টিয়াম জিটিসি পাথর উৎপাদনের যে ধারা অব্যাহত রেখেছে আগামীতে যেন সেই ধারা বহাল থাকে সেই জন্য তিনি খনির সকল কর্মকর্তা ও কর্মচারীগণকে আন্তরিকতার সাথে কাজ করে যেতে আহবান জানান। বিশেষ অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন পেট্রোবাংলার চেয়ারম্যান আবুল মনসুর মোঃ ফয়েজ উল্লাহ্ এবং বিদ্যুৎ, জ্বালানি ও খনিজ সম্পদ মন্ত্রণালয়ের অতিরিক্ত সচিব ও এমজিএমসিএল বোর্ড এর চেয়ারম্যান মোঃ রুহুল আমিন। অন্যান্যদের মধ্যে উপস্থিত থেকে বক্তব্য রাখেন মধ্যপাড়া গ্রানাইট মাইনিং কোম্পানী লিঃ এর ব্যবস্থাপনা পরিচালক প্রকৌশলী এসএম নুরুল আওরঙ্গজেব, জিটিসির প্রকল্প পরিচালক মি. আলিসকসেন্দ্রো মালসভ, চিফ অফ মাইনিং অপারেশন ইউরি দেভিয়াতভ, জিএম অপারেশন মোঃ আসাদুজ্জামান আসাদ, জিটিসির মহা-ব্যবস্থাপক মোঃ জাবেদ সিদ্দিকী, ও মোঃ জামিল আহমেদ। উদ্ভোধনী অনুষ্ঠানে এমজিএমসিএল এর কর্মকর্তা ও কর্মচারীবৃন্দ, গণ্যমান্য ব্যক্তিবর্গ, রাজনৈতিক নেতৃবৃন্দ, বিভিন্ন প্রিন্ট ও ইলেকট্রিক মিডিয়ার সাংবাদিক সহ খনির সকল শ্রমিকগণ উপস্থিত ছিলেন। উদ্ভোধনী অনুষ্ঠান শেষে এক মনোজ্ঞ সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানের আয়োজন করে।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ