ঢাকা, শনিবার 24 March 2018, ১০ চৈত্র ১৪২৪, ৫ রজব ১৪৩৯ হিজরী
Online Edition

সবুজের হ্যাটট্রিকে ব্যাংকক গ্লাসকে হারিয়ে বাংলাদেশের জয়

 

স্পোর্টস রিপোর্টার : থাইল্যান্ডে দ্বিতীয় প্রস্তুতি ম্যাচে জয় পয়েছে বাংলাদেশ। তৌহিদুল আলম সবুজের চমৎকার হ্যাটট্রিক ব্যাংকক গ্লাস এফসির বিপক্ষে বাংলাদেশকে এনে দিয়েছে ৪-৩ গোলের জয়। প্রথম প্রস্তুতি ম্যাচে রাচাবুড়ি মিতর ফল এফসির কাছে শেষ মুহূর্তে গোলে হেরেছিল বাংলাদেশ দল। ২৭ মার্চ লাওসের মুখোমুখি হবে বাংরাদেশ দল। যে ম্যাচটি হবে ১৭ মাস পর বাংলাদেশ জাতীয় ফুটবল দলের কোনো আন্তর্জাতিক ম্যাচ। এই জয় অ্যান্ড্রু ওর্ডের শিষ্যদের অনুপ্রাণিত করবে। ২০১৬ সালে ভুটানের বিপক্ষে হারের পর আর মাঠে নামা হয়নি মামুনুলদের। লাওসের বিপক্ষে মাঠে নামার আগে প্রস্তুতি হিসেবেই বাংলাদেশ দলের এই প্রস্তুতি ম্যাচ। থাইল্যান্ড থেকে ২৫ মার্চ লাওস যাবে বাংলাদেশ দল। গতকাল ব্যাংককের বিপক্ষে প্রথমার্ধে ৩-১ গোলে এগিয়ে যায় বাংলাদেশ। প্রতপক্ষের আক্রমণাত্মক ফুটবলের বিপরীতে বাংলাদেশ খেলেছে পাল্টা আক্রমণ নির্ভর। তাতে সাফল্যও এসেছে। বাংলাদেশের হয়ে প্রথম গোল করেছেন আবু সুফিয়ান সুফিল। ম্যাচের ষষ্ঠ মিনিটে এই তরুণ ফরোয়ার্ড বাঁ দিক দিয়ে ঢুকে কোনাকুনি শটে এগিয়ে দিয়েছেন দলকে। ১৭ মিনিটে ব্যাংকক সমতা ফেরানোর পর ৩০ মিনিটে পাল্টা আক্রমণ থেকে আবার বাংলাদেশের গোল। 

এবার মামুন মিয়ার পাস ধরে বাঁ দিক দিয়ে বক্সে ঢুকে গোলরক্ষকের মাথার ওপর দিয়ে বল জালে পাঠিয়েছেন সবুজ। বিরতির মিনিট তিনেক আগে জাফর ইকবালের পাস থেকে সবুজেরই প্লেসিং শট ৩-১ গোলে এগিয়ে দিয়েছে দলকে। দ্বিতীয়ার্ধে একাধিক খেলোয়াড় পরিবর্তন করেছে ব্যাংকক গ্লাস, নামিয়েছে বিদেশী খেলোয়াড়। তার সুফলও পেয়েছে থাই প্রিমিয়ার লিগের দলটি। ৭৬ আর ৮২ মিনিটে পর পর দুই গোল করে সমতা নিয়ে এসেছে তারা। তবে বাংলাদেশকে জয়বঞ্চিত করতে পারেনি। ৮৭ মিনিটে সবুজের হ্যাটট্রিক গোল জয় নিশ্চিত করেছে দলের। এই জয়ে উচ্ছ্বসিত জাতীয় দলের ম্যানেজার সত্যজিত দাশ রুপু। তিনি বলেছেন, ‘দলকে যেভাবে খেলানো দরকার সেভাবেই খেলানো হচ্ছে। আগের ম্যাচে সুযোগ পেয়েও ছেলেরা গোল করতে পারেনি, তবে গতকাল পেয়েছে। আমরা তাই খুব খুশি।’

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ