ঢাকা, শনিবার 24 March 2018, ১০ চৈত্র ১৪২৪, ৫ রজব ১৪৩৯ হিজরী
Online Edition

রূপগঞ্জে ইউএস বাংলা মেডিকেল কলেজে আলোচনা সভা

রূপগঞ্জ (নারায়ণগঞ্জ) সংবাদদাতা  : বাংলাদেশ স্বল্পোন্নত থেকে উন্নয়নশীল দেশে উন্নতি হওয়ায় ৫ দিনের কর্মসূচীর দ্বিতীয় দিনে নারায়ণগঞ্জের রূপগঞ্জের ইউএস বাংলা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের উদ্যেগে আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে। গতকাল শুক্রবার সকালে উপজেলার কর্ণগোপ এলাকায় ইউএস বাংলা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের অডিটোরিয়ামে এ আলোচনা সভা আনুষ্ঠিত হয়। ইউএস বাংলা মেডিকেল কলেজের অধ্যক্ষ মেজর জেনারেল প্রফেসর ডাক্তার বিজয় কুমার সরকার (অবঃ) এর সভাপতিত্বে উপস্থিত ছিলেন, ইউএস বাংলা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের পরিচালক মেজর ডাক্তার একেএম মাহাবুবুল হক (অবঃ) , ইউএস বাংলা মেডিকেল কলেজের অধ্যাপক ডাক্তার সৈয়দা নুরুননেছা বেগম, অধ্যাপক ডাক্তার মেহেরুননেছা বেগম, অধ্যাপক ডাক্তার আবিদা আহম্মেদ, ডাক্তার সিএম রেজা কোরাইশী ফরহাদ প্রমুখ এতে উপস্থিত ছিলেন।

অনুষ্ঠানের সভাপতি তার বক্তব্যে বলেন, প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে বাংলাদেশ স্বল্পোন্নত থেকে উন্নয়নশীল দেশে উন্নতি হওয়ায়  চিকিৎসা, শিক্ষা ও স্বাস্থ্য খাতের আবদান রাখছে। দেশের কমিউনিটি ক্লিনিক স্থাপন করায় জনগণ তার কাছে থেকে স্বাস্থ্যসেবা পাচ্ছে । আমরাও এ লক্ষ্যে জনগণের সেবা দিয়ে যাচ্ছি।

দাবিকৃত যৌতুকের টাকা না পেয়ে-

নারায়ণগঞ্জে রূপগঞ্জে যৌতুকলোভী স্বামী দাবিকৃত যৌতুকের টাকা না পেয়ে এক গৃহবূধকে নির্যাতন করে বাড়ি থেকে বিতারিত করেছে বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে। 

শুক্রবার সকালে উপজেলার মাহমুদাবাদ এলাকায় এ ঘটনা ঘটে। নির্যাতিত গৃহবধূ শান্তা মনি (২১) উপজেলার আউখাবো এলাকার মোস্তফা মিয়ার মেয়ে। 

গৃহবধূ শান্তা মনি জানান, গত ৩ বছর আগে উপজেলার মাহমুদাবাদ এলাকার আব্দুল আজিজের ছেলে জহিরুল ইসলামের সঙ্গে শান্তা মনির বিয়ে হয়। বিয়ের সময় তার বাবা মেয়ের সুখের কথা চিন্তা করে নগদ ৬০ হাজার টাকাসহ স্বর্ণলংকার ও আসবাবপত্রসহ ১ লাখ ৮৫ হাজার টাকার মালামাল প্রদান করেন। বিয়ের কিছুদিন পর থেকেই স্বামী জহিরুল ইসলাম ঠিক মতো সংসার চালানোর জন্য খরচ দিতো না। গৃহবধূ শান্তা মনি সংসার চালানোর খরচ দিতে বললে স্বামী জহিরুল ইসলাম তাকে মারধর করতো। বেশকয়েক দিন ধরেই স্বামী জহিরুল ইসলাম গৃহবধূ শান্তা মনিকে তার বাবার বাড়ি থেকে ১ লাখ টাকা যৌতুক এনে দিতে চাপ প্রয়োগ করে আসছিল। এর জের ধরেই শুক্রবার সকালে জহিরুল ইসলাম গৃহবধূ শান্তা মনিকে তার বাবার বাড়ি থেকে ১ লাখ টাকা যৌতুক এসে দিতে বলে। শান্তা মনি তার বাবার বাড়ি থেকে কোন ধরনের টাকা এনে দিতে পারবে না বলে সাফ জানিয়ে দেয়।  স্বামী জহিরুল ইসলামকে টাকা এনে দিতে অস্বীকার করায় সে ক্ষিপ্ত হয়ে শান্তা মনিকে এলোপাথারিভাবে পিটিয়ে আহত করে বাড়ি থেকে বিতারিত করে দেয়। জহিরুল ইসলামের দাবিকৃত টাকা না এনে দিলে সে শান্তা মনিকে বাড়িতে উঠতে দেবে না বলে হুমকি ধামকি প্রদান করেন। পরে স্থানীয়রা শান্তা মনিকে উদ্ধার করে চিকিৎসা করান। 

এ ব্যাপারে রূপগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মনিরুজ্জামান মনির বলেন, এ ধরনের একটি অভিযোগ পেয়েছি। তদন্ত মোতাবেক ব্যবস্থা নেয়া হবে।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ