ঢাকা, রোববার 1 April 2018, ১৮ চৈত্র ১৪২৪, ১৩ রজব ১৪৩৯ হিজরী
Online Edition

তরুনীকে শ্বাসরোধে হত্যার ঘটনায় মামলা, গ্রেফতার-১

রূপগঞ্জ (নারায়ণগঞ্জ) সংবাদদাতা: নারায়ণগঞ্জের রূপগঞ্জে মুন্নি আক্তার (২২) নামে এক তরুনীকে শ^াসরোধে হত্যার ঘটনায় আবু তালেব নামে এক যুবককে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। মঙ্গলবার (২৭ মার্চ) দুপুরে উপজেলার ভুলতা এলাকা থেকে তাকে গ্রেফতার করা হয়। এর আগে, সোমবার দুপুরে উপজেলার সাওঘাট এলাকার বুলবুলের বাড়ির পার্শের একটি ডোবার পাড় থেকে ওই তরুনীর লাশটি উদ্ধার করা হয়। এ ঘটনায় ওই রাতেই ভুলতা পুলিশ ফাঁড়ির উপ-পরিদর্শক (এসআই) তারেকুজ্জামান বাদী হয়ে রূপগঞ্জ থানায় একটি হত্যা মামলা দায়ের করেন। মুন্নি আক্তার কুড়িগ্রাম জেলার উলিপুর থানার ফুলকারচর এলাকার সোবহান মিয়ার মেয়ে। বর্তমানে টাঙ্গাইল জেলার মির্জাপুর থানার গোড়াই হাটুভাঙ্গা এলাকায় বসবাস করে আসছেন। এছাড়া গ্রেফতারকৃত আবু তালেব উলিপুর থানার কাজীয়ারচর এলাকার মৃত হযরত আলীর ছেলে।
মামলার বাদী ভুলতা পুলিশ ফাঁড়ির উপ-পরিদর্শক (এসআই) তারেকুজ্জামান জানান, গত সোমবার সকালে সাওঘাট এলাকার বুলবুলের বাড়ির পাশে একটি ডোবায় এক তরুনীর লাশ পড়ে থাকতে দেখে স্থানীয়রা পুলিশে খরব দেন। পরে পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে ওই তরুনীর লাশটি উদ্ধার করে ময়না তদন্তের জন্য সদর হাসপাতালে পাঠান। ধারনা করা হচ্ছে, কে বা কারা ওই তরুনীকে শ্বাসরোধে হত্যার পর গুম করার উদ্দেশ্যে তরুনীকে ওই স্থানে ফেলে রেখে যায়।
ভুলতা পুলিশ ফাঁড়ির ইনচার্জ ইন্সপেক্টর শহিদুল আলম জানান, গত প্রায় ৪ বছর আগে, গ্রেফতারকৃত আবু তালেবের সঙ্গে মুন্নি আক্তার নামে ওই তরুণীর বিয়ে হয়েছিলো। বিয়ের তিন বছর পর তাদের মধ্যে বিবাহ বিচ্ছেদ ঘটে। লাশ উদ্ধারের পর থেকেই আবু তালেব ঘটনাস্থলের আশ-পাশে ঘুরা-ফেরার কারনে সন্দেহ হলে গ্রেফতার করা হয়। আপাতত জিজ্ঞাসাবাদ চলছে। তবে, হত্যাকান্ডের রহস্য উদঘাটন করে আসামীদের আইনের আওতায় আনা হবে।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ