ঢাকা, সোমবার 2 April 2018, ১৯ চৈত্র ১৪২৪, ১৪ রজব ১৪৩৯ হিজরী
Online Edition

লিফলেট বিতরণ কালে বিভিন্ন স্থানে বাধা হামলা গ্রেফতার

স্টাফ রিপোর্টার: কারাবন্দী দলের  চেয়ারপার্সন বেগম খালেদা জিয়ার মুক্তির দাবিতে সারাদেশে লিফলেট বিতরণ করছেন বিএনপি নেতারা। কর্মসূচি পালনকালে চেয়ারপার্সনের উপেদষ্টাসহ বেশ কিছু নেতাকর্মীকে গ্রেফতার করার খবর পাওয়া গেছে। এছাড়া বিভিন্ন স্থানে সরকারি দল ও আইনশৃঙ্খলা বাহিনী লিফলেট বিতরণে বাধা ও হামলা করেছে বলে বিএনপির পক্ষ থেকে অভিযোগ করা হয়েছে। গত মঙ্গলবার নয়াপল্টনে দলটির কেন্দ্রীয় কার্যালয়ে সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব রুহুল কবির রিজভী আহমেদ এ কর্মসূচি ঘোষণা করেন।
পূর্ব ঘোষণা অনুযায়ী গতকাল রোববার বেলা ১১টা থেকে রাজধানীর বিভিন্ন স্থানে দলটির দায়িত্বশীল নেতারা এ লিফলেট বিতরণ শুরু করেন। বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর বেলা সাড়ে ১২টায় নয়াপল্টন এলাকায় লিফলেট বিতরণ শুরু করেন। এসময় বিএনপির ঢাকা বিভাগীয় সহ-সাংগঠনিক সম্পাদক আব্দুস সালাম আজাদ; খুলনা বিভাগীয় সহ-সাংগঠনিক সম্পাদক- অনিন্দ্য ইসলাম অমিত, সহ-দফতর সম্পাদক- তাইফুল ইসলাম টিপু, নির্বাহী কমিটির সদস্য- অধ্যাপক আমিনুল ইসলাম; ফরহাদ হোসেন আজাদ, খান রবিউল ইসলাম রবি; শ্রমিক দল সভাপতি- আনোয়ার হোসেন; ঢাকা মহানগর উত্তর বিএনপি’র যুগ্ম সম্পাদক- এস এম আশরাফুর রহমান; সাম্যবাদী দলের চেয়ারম্যান- সাঈদ আহম্মেদ; শ্রমিক দলের যুগ্ম সম্পাদক- মোস্তাফিজুর রহমান প্রমুখ লিফলেট বিতরণকালে উপস্থিত ছিলেন।
এছাড়া মহাখালী টিভি গেটে ড. খন্দকার মোশাররফ হোসেন, স্থায়ী কমিটির সদস্য ড.আব্দুল মঈন খান উত্তরা আজমপুর বাসস্ট্যান্ডে, মুক্তিযোদ্ধা মার্কেট মিরপুরে আব্দুল আউয়াল মিন্টু, মিরপুর কাজীপাড়ায় অধ্যাপক ডা. এজেডএম জাহিদ হোসেন, পল্লবীতে জয়নুল আবেদিন ফারুক লিফলেট বিতরণ করেন। দুর্নীতি দমন কমিশনের (দুদক) দায়ের করা জিয়া অরফানেজ ট্রাস্ট দুর্নীতি মামলায় খালেদা জিয়ার পাঁচ বছরের সাজা হয়েছে। গত ৮ ফেব্রুয়ারি রায় ঘোষণার পর থেকে তিনি কারাগারে বন্দী রয়েছেন।
বিএনপি’র কেন্দ্রীয় কর্মসূচির অংশ হিসাবে বিএনপি’র স্থায়ী কমিটির সিনিয়র সদস্য ড. খন্দকার মোশাররফ হোসেন গতকাল রাজধানীর মহাখালী এলাকায় কয়েকটি স্পটে লিফলেট বিতরণ করেছেন। মহাখালী ওয়্যারলেস গেট এলাকায় লিফলেট বিতরণকালে পুলিশ ড. মোশাররফকে বাধা দেয়। পুলিশ নেতাকর্মীদের ওপর চড়াও হয় এবং তাদের ছত্রভঙ্গ করে দেয়।
এই সময় বিএনপি’র এই নীতিনির্ধারক নেতা ড. মোশাররফ সাংবাদিকদের বলেন, আমাদের নেত্রী কারান্তরীণ বিএনপি চেয়ারপার্সন বেগম খালেদা জিয়ার স্বাস্থ্য ও তার মুক্তি নিয়ে আমরা গভীরভাবে উদ্বিগ্ন। দেশনেত্রীর মুক্তির দাবিতে জনগণের মাঝে লিফলেট বিতরণের মতো শান্তিপূর্ণ কর্মসূচিতেও পুলিশের বাধা অনভিপ্রেত। সরকারের এই আচরণ গণতন্ত্রবিরোধী এবং গণতন্ত্রের জন্য অশুভ কালো ছায়া। সংক্ষিপ্ত বক্তব্য দিয়ে বিএন’িপর এই জেষ্ঠ্য নেতা পুলিশি বাধার মুখে চলে যাবার পর ওয়্যারলেস-গেট এলাকা থেকে পুলিশ বিএনপি চেয়ারপার্সনের উপদেষ্টা ডা. ফারহাদ হালিম ডোনারসহ ৫ জনকে গ্রেফতার করেছে। মহাখালী এলাকায় লিফলেট বিতরণ কর্মসূচিতে অন্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন, বিএনপি চেয়ারপার্সনের উপদেষ্টা ডা. ফরহাদ হালিম ডোনার, বিএনপি’র জাতীয় নির্বাহী কমিটির সদস্য নাজিম উদ্দিন আলম, ঢাকা মহানগর (উত্তর) বিএনপি’র সাধারণ সম্পাদক মো. হাসান উদ্দিন, যুগ্ম সম্পাদক মো. শামসুল হক, সাংগঠনিক সম্পাদক সৈয়দ মঞ্জুরুল ইসলাম ও কেন্দ্রীয় ছাত্রদলের সহ সাধারণ সম্পাদক এম. এ আউয়াল খাঁন প্রমুখ।
বিএনপি চেয়ারপার্সনের উপদেষ্টা কাউন্সিলের সদস্য ডাঃ ফরহাদ হালিম ডোনারকে গ্রেফতারের ঘটনায় ঘটনায় তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানিয়ে বিবৃতি দিয়েছেন বিএনপি’র ভারপ্রাপ্ত চেয়ারম্যান  তারেক রহমান। তিনি অবিলম্বে বিএনপি চেয়ারপার্সনের উপদেষ্টা কাউন্সিলের সদস্য ডাঃ ফরহাদ হালিম ডোনার এর নি:শর্ত মুক্তির জোর দাবি জানান।
সাবেক প্রধানমন্ত্রী বেগম খালেদা জিয়ার নিঃশর্ত মুক্তির দাবিতে বিএনপির কেন্দ্রীয় কর্মসূচির অংশ হিসাবে গতকাল রাজধানীর বিভিন্ন স্থানে বিএনপির লিফলেট বিতরণ কর্মসূচি অনুষ্ঠিত হয়। বিএনপির ভাইস চেয়ারম্যান আব্দুল আউয়াল মিন্টুর নেতৃত্বে সকাল ১১ টায় মিরপুর ০১ নম্বর শাহ্ আলী শপিংমলসহ অত্র এলাকার বিভিন্ন দোকানপাটে বিভিন্ন শ্রেণি পেশার মানুষের কাছে লিফলেট বিতরণ করা হয়। এ সময় বিএনপি ঢাকা মহানগর উত্তরেরসহ সভাপত্বি একেএম মোয়াজ্জেম হোসেন, সহ সভাপতি আলতাব উদ্দিন মোল্লা, আনোয়ার হোসেন, ফেরদৌসী আহাম্মেদ মিষ্টি, যুগ্ম সম্পাদক চেয়ারম্যান বেল্লাল হোসেনসহ সাধারণ সম্পাদক মোঃ ইকবাল হোসেন, মিরপুর থানা বিএনপির সাধারণ সম্পাদক দেলোয়ার হোসেন দুলু , হাজী আব্দুল মতিন, বিএনপি নেতা আব্দুল মান্নান ও আকতার হোসেন সহ বিএনপি ও অংগ সংগঠনের বিপুল সংখ্যক নেতাকর্মী উপস্থিত ছিলেন।
বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য নজরুল ইসলাম খানের নেতৃত্বে কল্যাণপুরের মিজান টাওয়ারসহ বিভিন্ন বিপণিবিতান ও দোকানপাটে মানুষদের মাঝে লিফলেট বিতরণ করা হয়। এ সময় মিরপুর থানা বিএনপির সাধারণ সম্পাদক দেলোয়ার হোসেন দুলু, হাজী আব্দুল মাতিন, এসএ সিদ্দিক সাজু, আজাদুল্লাহ আজম, সাইদুর ইসলাম সাইদুর সহ বিএনপির অংগ সংগঠনের নেতৃবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।
বিএনপি ঢাকা মহানগর দক্ষিণের দ্বিতীয় যুগ্ম সম্পাদক শ্যামপুর থানা বিএনপি সাধারণ সম্পাদক আনম সাইফুল ইসলামের নেতৃত্বে সকাল সাড়ে ১১ টায় ধোলাইপাড় প্রধান সড়ক, মিরহাজারীবাগ শিট মার্কেট এবং মির হাজারীবাগ বাজারে লিফলেট কার্যক্রম কর্মসূিচ অনুষ্ঠিত হয়। এ সময় বিএনপি নেতা মোঃ ইমতিয়াজ আহম্মেদ টিপু, মোঃ সালাহউদ্দিন রতন, গোলাম মোস্তফা, নজরুল ইসলাম, সেলিম গফুর, শাহ্ নেওয়াজ, রাশেদ খান, মোঃ রিপন, মোঃ প্রিন্স, মোঃ রমজান, মোঃ শাহিন, মোঃ মিন্টু, মোঃ শামীম, মোঃ রাব্বী, মোঃ হাসান, মোঃ স্বপন,মোঃ হাবিব স্থানীয় বিএনপি ও সকল অংগ সংগঠনের বহু নেতাকর্মী উপস্থিত ছিলেন।
বিএনপি ঢাকা মহানগর উত্তরের কোষাধ্যক্ষ ভাটারা থানা বিএনপির সাধারণ সম্পাদক ভাটারা ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান আতাউর রহমানের নেতৃত্বে সকাল ১১ টায় স্থানীয় নতুনবাজার, কোকাকোলা ও ৩৯ নং ওয়ার্ডে বিভিন্ন দোকানপাট ও বাসাবাড়ীতে গিয়ে লিফলেট বিতরণ করা হয়। স্থানীয় বিএনপি ও সকল অংগ সংগঠনের নেতৃবৃন্দ লিফলেট বিতরণে অংশ নেন।
উত্তরার মাসকট প্লাজা হাউজ বিল্ডিং আব্দুল্লাহপুর এলাকার সুলতান চেয়ারম্যানের বাজার এলাকায় সকালে উত্তরা পশ্চিম থানা বিএনপি নেতা দুলালের নেতৃত্বে লিফলেট বিতরণ কার্যক্রম অনুষ্ঠিত হয় এবং ১৭ নং ওয়ার্ডে বিএনপি নেতা ফরিদ আহাম্মেদ টিটু ও রেজাউল কবিরের নেতৃত্বে লিফলেট বিতরণ কার্যক্রম অনুষ্ঠিত হয়।
বিএনপি ভাইস চেয়ারম্যান ডাঃ এ জেড এম জাহিদ হোসেন এর নেতৃত্বে লিফলেট বিতরণ করা হয়। হাতিরপুল-এ্যালিফ্যান্ট রোড- বিএনপি জাতীয় নির্বাহী কমিটির সাংগঠনিক সম্পাদক (ঢাকা বিভাগ)- ফজলুল হক মিলন; প্রচার সম্পাদক- শহিদ উদ্দিন চৌধুরী এ্যানী; সহ-সাংগঠনিক সম্পাদক- (ঢাকা বিভাগ) শহিদুল ইসলাম বাবুল; সদস্য ও যুবদলের সিনি: যুগ্ম সম্পাদক- নুরুল ইসলাম নয়ন, সদস্য- হায়দার আলী লেলিন ও আব্দুল মতিন; স্বেচ্ছাসেবক দলের সিনি: সহ-সভাপতি- মোস্তাফিজুর রহমান এর নেতৃত্বে লিফলেট বিতরণ করা হয়। বনানী এলাকায় বিএনপি’র ভাইস চেয়ারম্যান- মেজর (অবঃ) হাফিজ উদ্দিন আহমেদ বীর বিক্রম এর নেতৃত্বে লিফলেট বিতরণ করা হয়।
২০ দলীয় জোট নেত্রী ও বিএনপি চেয়ারপারসন বেগম খালেদা জিয়ার মুক্তির দাবিতে বিএনপি ঘোষিত লিফলেট বিতরন কর্মসূচির অংশ হিসাবে ২০ দলীয় জোট শরিক লিবারেল ডেমোক্রেটিক পার্টি-এলডিপি, বাংলাদেশ ন্যাশনাল আওয়ামী পার্টি-বাংলাদেশ ন্যাপ, ন্যাশনাল ডেমোক্রেটিক পার্টি-এনডিপি বাংলাদেশ মুসলিম লীগ-বিএমএল, বাংলাদেশ লেবার পার্টি রাজধানীর বিভিন্ন স্থানে লিফলেট বিতরণ করেছে।
এলডিপি সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব শাহাদাত হোসেন সেলিমের নেতৃত্বে রাজধানীর তোপখানা রোড, পল্টন মোড়, বিজয়নগরে লিফলেট বিতরণকালে উপস্থিত ছিলেন বাংলাদেশ ন্যাপ মহাসচিব এম. গোলাম মোস্তফা ভুইয়া, বিএমএল মহাসচিব এডভোকেট শেখ জুলফিকার বুলবুল চৌধুরী, লেবার পার্টি (একাংশ) মহাসচিব হামদুল্লাহ আল মেহেদী, এনডিপি ভারপ্রাপ্ত মহাসচিব মো. মঞ্জুর হোসেন ঈসা, এলডিপি তমিজউদ্দিন টিটু, বেলাল হোসেন মিয়াজী, উপাধক্ষ্য মাহবুবুর রহমান, লেবার পার্টির হিন্দুরতœ রামকৃষ্ঞ সাহা, বাংলাদেশ ন্যাপ মো. শহীদুননবী ডাবলু, মো. কামাল ভুইয়া প্রমুখ।
এসময় এলডিপি সিনিয়র যুগ্ম মহাসচিব শাহাদাত হোসেন সেলিম বলেন, আন্দোলনের মাধ্যমে বেগম খালেদা জিয়াকে মুক্ত করতে হবে। এর কোন বিকল্প নাই। আমাদের ঐক্যকে আরো সুদৃঢ় করতে হবে। তিনি বলেন, গণতান্ত্রিক অধিকার আদায় করার জন্য বুকের উপর চেপে বসে থাকা দানব সরকারকে সরাতে হবে। এজন্য সবাইকে দলমত নির্বিশেষে জাতীয় ঐক্য গড়ে তুলতে হবে।
বাংলাদেশ ন্যাপ মহাসচিব এম. গোলাম মোস্তফা ভুইয়া বলেন, আওয়ামী লীগ জোর করে ক্ষমতা দখল করে রেখে স্বাধীনতার চেতনা ধ্বংস করে দিয়েছে। বন্দুক, অস্ত্রের জোরে তারা জনগণকে জিম্মি করে রেখেছে। এভাবে অবৈধ ক্ষমতাকে চিরস্থায়ী করা যাবে না।
খালেদা জিয়ার মুক্তির দাবিতে লিফলেট বিতরণ করেছে বাংলাদেশ জাতীয়তাবাদী যুবদল। সংগঠনটির দফতরের দায়িত্বে থাকা কামরুজ্জামান দুলালের পাঠানো ইমেইল বার্তায় এ তথ্য জানানো হয়েছে। তাতে বলা হয়, ‘বাংলাদেশের তিনবারের সফল প্রধানমন্ত্রী, বর্ষীয়ান রাজনীতিবিদ, বাংলাদেশের সংসদীয় সরকার ব্যবস্থার প্রবর্তক, বিএনপি চেয়ারপার্সন, দেশনেত্রী বেগম খালেদা জিয়ার মুক্তির দাবিতে রাজধানীর মহাখালী কাঁচাবাজার এলাকায় লিফলেট বিতরণ করেছে বাংলাদেশ জাতীয়তাবাদী যুবদল।
যুবদল ঢাকা মহানগর উত্তর আয়োজিত এই কর্মসূচিতে যুবদল সভাপতি সাইফুল আলম নীরব ও সাধারণ সম্পাদক সুলতান সালাউদ্দিন টুকু বলেন, বাংলাদেশের স্বাধীনতা ও স্বার্বভৌমত্বের প্রতিক, স্বৈরাচারবিরোধী আন্দোলনের আপসহীন নেত্রী, মহান স্বাধীনতার ঘোষক শহীদ রাষ্ট্রপতি জিয়াউর রহমানের স্ত্রী, সাবেক প্রধানমন্ত্রী দেশনেত্রী বেগম খালেদা জিয়া বিনা দোষে ষড়যন্ত্র ও প্রতিহিংসামূলক মামলায় নির্জন পরিত্যক্ত কারাগারে চরম অসুস্থ অবস্থায় ক্যাঙ্গারু কোর্টের মামলায় সাজা খাটছেন। আর দেশের শেয়ারবাজার লুণ্ঠনকারী, রাষ্ট্রীয় ব্যাংকসহ অন্যান্য ব্যাংক ডাকাডি, বিদেশে ছয় লাখ কোটি টাকা পাচারকারীরা দেশ দাবড়িয়ে বেড়াচ্ছে। যুবদল সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদক অবিলম্বে খালেদা জিয়ার মুক্তি দাবি করে বলেন, যদি নির্জন কারাগারে খালেদা জিয়ার কিছু হয় তাহলে কেউ রক্ষা পাবে না। জনতার হৃদয়ের আগুন যখন রাস্তায় প্রজ্বলিত হবে তখন কোনো দুর্ভেদ্য দুর্গও রক্ষা পাবে না।
কর্মসূচিতে আরও উপস্থিত ছিলেন যুবদলের সিনিয়র সহ-সভাপতি মোরতাজুল করিম বাদরু, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক নুরুল ইসলাম নয়ন, ঢাকা মহানগর উত্তরের সভাপতি এস এম জাহাঙ্গীর হোসেন, সাধারণ সম্পাদক শফিকুল ইসলাম মিল্টন, সিনিয়র সহ-সভাপতি মোস্তফা কামাল রিয়াদ, সাংগঠনিক সম্পাদক মোস্তফা জগলুল পাশা পাপেল প্রমুখ।
নিন্দা ও প্রতিবাদ: বিএনপি চেয়ারপার্সনের উপদেষ্টা কাউন্সিলের সদস্য ডাঃ ফরহাদ হালিম ডোনার এবং কুমিল্লা জেলাধীন চৌদ্দগ্রাম থানা বিএনপি’র যুগ্ম আহবায়ক, মোঃ সাজেদুর রহমান হিরণকে গত ৩০ মার্চ ২০১৮ ঢাকা এয়ারপোর্ট এলাকা থেকে ডিবি পুলিশ কর্তৃক গ্রেফতারের ঘটনায় ঘটনায় তীব্র নিন্দা ও প্রতিবাদ জানিয়েছেন বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর।
এক বিবৃতিতে বিএনপি মহাসচিব বলেন, বর্তমান শাসকগোষ্ঠী দেশকে বিরোধী দলশুণ্য করে নিজেদের একচ্ছত্র শাসন দীর্ঘায়িত করার গভীর চক্রান্তে লিপ্ত। বিএনপি দেশের সবচেয়ে জনপ্রিয় বৃহত্তম রাজনৈতিক দল, এই দলটিকে ধ্বংস করে দেশে এক ব্যক্তির শাসন কায়েম করতেই জাতীয় নেতৃবন্দসহ সকল পর্যায়ের নেতাকর্মীকে কারারুদ্ধ করার মাধ্যমে লক্ষ্য বাস্তবায়নে নিরন্তর অপচেষ্টা চালানো হচ্ছে। বিএনপি চেয়ারপার্সনের উপদেষ্টা কাউন্সিলের সদস্য ডাঃ ফরহাদ হালিম ডোনার এবং চৌদ্দগ্রাম থানা বিএনপি’র সাবেক যুগ্ম আহবায়ক ও কুমিল্লা জেলা বিএনপি’র সদস্য মোঃ সাজেদুর রহমান হিরণ সরকারের রাজনৈতিক প্রতিহিংসার শিকার বলেই তাদেরকে গ্রেফতার করা হয়েছে। সরকারের লাগামহীন অত্যাচার-নির্যাতনে বিএনপিসহ দেশের সকল বিরোধী দলের নেতাকর্মী এবং সাধারণ মানুষ আজ অসহায় হয়ে পড়েছে। এ সকল অন্যায়-অত্যাচার আর দুর্বিনীত শাসনের হাত থেকে রেহাই পেতে দলমত নির্বিশেষে সকলের সোচ্চার হওয়ার আহবান জানাচ্ছি। বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর অবিলম্বে ডাঃ ফরহাদ হালিম ডোনার এবং মোঃ সাজেদুর রহমান হিরণ এর বিরুদ্ধে দায়েরকৃত সকল মিথ্যা মামলা প্রত্যাহার করে তাদের নি:শর্ত মুক্তির জোর দাবি জানান।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ