ঢাকা, বৃহস্পতিবার 5 April 2018, ২২ চৈত্র ১৪২৪, ১৭ রজব ১৪৩৯ হিজরী
Online Edition

একটি সেতুর অভাবে-

রংপুর অফিস : রংপুরের কাউনিয়া উপজেলার হারাগাছ ইউনিয়নের পল্লীমারী গ্রামে যাতায়াতের একমাত্র সড়কের উপর একটি নড়বড়ে বাঁশের সাঁকো জনজীবনে দুর্ভোগের কারণ হয়ে দাঁড়িয়েছে। এ পথে ঝুঁকি নিয়ে সেতু পারাপার করতে গিয়ে পথচারীরা প্রতিনিয়ত দুর্ঘটনার শিকার হচ্ছে।

জানাগেছে চরাঞ্চলের শিক্ষা বিস্তারের অন্যতম শিক্ষা প্রতিষ্ঠান পল্লীমারী উচ্চ বিদ্যালয় ও পল্লীমারী সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের পার্শবর্তি সড়কের খালের উপর নির্মিত পাকা সেতুটি ছোট হওয়ায় পানির প্রবল ¯্রােতে সেতুর সামনের অংশ ভেঙ্গে পড়ে প্রতিবছর বড় খাদের সৃষ্টি হয়। ফলে ঐ এলাকাটি যোগাযোগ বিচ্ছিন্ন হয়ে পরে। এলাকাবাসী নিরুপায় হয়ে চলাচলের স্বার্থে প্রতিবছর বাঁশের সাঁকো নির্মাণ করে নেয়। বর্তমানে বাঁশের সাঁকোটি ভেঙ্গে নড়বড়ে হওয়ায় জীবনের ঝুঁকি নিয়ে স্কুল-কলেজর শিক্ষার্থীরাসহ পথচারীদের চলাচল করতে হচেছ। এলাকাবাসী অবিলম্বে ঐ স্থানে একটি বড় পরিসরের সেতু নির্মাণের দাবি জানিয়েছেন। সড়কটি দিয়ে যানবাহন চলাচল করতে না পারায় চরে উৎপাদিত কৃষি পণ্য চাষিরা সুষ্ঠুভাবে বাজারজাত করতে পারছেনা। ফলে ফাড়িয়াদের কাছে কমদামে তাদের কৃষিপণ্য বিক্রি করতে বাধ্য হচ্ছে। 

এব্যাপারে হারাগাছ ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান রকিবুল হাসান পলাশ জানান, সড়কটির ভাঙ্গা অংশে প্রাথমিকভাবে মাটি ভরাট করে দেয়া হবে । পাশাপাশি ঐ এলাকায় একটি প্রশস্ত সেতু নির্মাণের জন্য চেষ্টা করা হচ্ছে।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ