ঢাকা, মঙ্গলবার 17 April 2018, ৪ বৈশাখ ১৪২৫, ২৯ রজব ১৪৩৯ হিজরী
Online Edition

হায়দ্রাবাদের মক্কা মসজিদে বিস্ফোরণের ঘটনায় সকল অভিযুক্ত খালাস

হায়দ্রাবাদের মক্কা মসজিদের হামলার ফাইল ফটো

১৬ এপ্রিল, এনডিটিভি : ভারতের হায়দ্রাবাদ শহরের মক্কা মসজিদে বিস্ফোরণের ঘটনায় সব অভিযুক্তকে খালাস দিয়েছে হায়দ্রাবাদের একটি আদালত। ২০০৭ সালের ১৮ মে, শুক্রবার জুমার নামাজ চলাকালে ওই বিস্ফোরণে নয় জন নিহত ও ৫৮ জন আহত হয়েছিল। ওই বোমা হামলার ঘটনায় জড়িত থাকার কথা স্বীকার করে হিন্দু জাতীয়তাবাদী ডানপন্থি গোষ্ঠী রাষ্ট্রীয় স্বয়ংসেবক সংঘের (আরএসএস) সাবেক সদস্য স্বামী অসীমানন্দ লিখিত স্বীকারোক্তি দিয়েছিলেন। 

আদালত জানিয়েছে, ভারতের শীর্ষ সন্ত্রাসবিরোধী সংস্থা ন্যাশনাল ইনভেস্টিগেশন এজেন্সি (এনআইএ) কারো অপরাধ প্রমাণে ব্যর্থ হয়েছে। হায়দ্রাবাদের স্থানীয় পুলিশের তদন্তের পর মামলাটি সিবিআইয়ের কাছে হস্তান্তর করা হয়েছিল। ঘটনার তদন্তের পর সিবিআই চার্জশীট দাখিল করেছিল।

২০১১ সালে সিবিআইয়ের কাছ থেকে মামলাটির দায়িত্বভার নিয়েছিল এনআইএ।  ওই মসজিদে হামলায় ঘটনায় আরএসএস-র ১০ সদস্য জড়িত বলে অভিযোগ পত্রে বলা হয়েছিল। স্বামী আসীমানন্দ ছাড়াও দেবেন্দ্র গুপ্ত, লোকেশ শর্মা, ভারত মোহনলাল রাতেশ্বর ওরফে ভারত ভাই এবং রাজেন্দ্র চৌধুরি বিচারের মুখোমুখি হন।

বিচার চলাকালে অভিযুক্ত অপর দুজন সন্দীপ ভি ডাঙ্গে ও রামচন্দ্র কালসানগ্রা নিখোঁজ থাকেন এবং অপর অভিযুক্ত সুনিল যোশি মারা যান। বিচারে মোট ২২৬ জন প্রত্যক্ষদর্শী সাক্ষ্য দেন এবং প্রায় ৪১১টি নথি প্রদর্শন করা হয়।  

বিচার চলাকালে স্বামী অসীমানন্দ ও ভারত মোহনলাল রাতেশ্বর জামিনে ছিলেন এবং অপর তিন জন হায়দ্রাবাদের কেন্দ্রীয় কারাগারে বন্দি ছিলেন। গত বছরের মার্চে অসীমানন্দকে আজমির বিস্ফোরণের মামলা থেকেও খালাস দেওয়া হয়েছিল।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ