ঢাকা, বুধবার 18 April 2018, ৫ বৈশাখ ১৪২৫, ১ শাবান ১৪৩৯ হিজরী
Online Edition

যৌতুক না দেয়ায় স্ত্রী হত্যা

ছাতক সংবাদদাতা: ছাতকে যৌতুক না দেয়ায় গৃহবধু সুজিতা বেগম (৩০)কে পরিকল্পিতভাবে হত্যা করা হয়েছে। সম্প্রতি স্বামীসহ পরিবারের লোকজন তাকে মধ্যযূগীয় কায়দায় নির্যাতন করলে সে গুরুতর আহত হয়। এসময় তাকে কৈতক হাসপাতালে নেয়ার পর কর্তব্যরত ডাক্তার অবস্থা আশংকাজনক থাকায় তাকে সিলেট ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে প্রেরণ করেন। সেখানে চিকিৎসাধিন অবস্থায় রোববার বেলা ২টায় সে মৃত্যুবরণ করে। সুজিতা উপজেলার সিংচাপইড় ইউপির বড় সৈদেরগাঁও গ্রামের আব্দুল জলিলের স্ত্রী। মৃত্যুর পর স্বামির বাড়ির লোকজন বাড়ি ঘর ছেড়ে পালিয়ে গেছে। এঘটনার ব্যাপারে বোন ফিরোজা বেগম বলেন, তার বোন সুজিতাকে দীর্ঘদিন থেকে যৌতুকের জন্য তার স্বামি ও পরিবারের লোকজন নির্যাতনকরে আসছিল। ঘটনার রাতে ও সকালে তাকে নির্যাতনের পর তার মুখে বিষ ঢেলে তাকে হত্যা করে। ইউপি সদস্য আব্দুল জলিল ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করেছেন। এ রিপোর্ট লেখা পর্যন্ত লাশ সিলেট ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল মর্গে ময়না তদন্ত চলছিল।
দখলমুক্ত করে
ছাতকে অবৈধভাবে জবর-দখলকৃত রেলওয়ের একটি গুদাম দখলমুক্ত করে সীলগালা করেছে জিআরপি পুলিশ। রোববার সকালে উপজেলা ভূমি অফিস সংলগ্ন রেল স্টেশনের গুদামকে জবর-দখলমুক্ত করা হয়। এসময় কয়েকটি ব্যাটারি ও অন্যান্য সরঞ্জাম উদ্ধার করা হয়। জানা যায়, স্থানীয় কতিপয় লোক গুদাম জবর-দখল করে রিকশার গেরেজ দিয়ে এখানে ব্যাটারি চালিত রিকশার ব্যাটারি চার্জ করে আসছিল। খবর পেয়ে সিলেট জিআরপি পুলিশ ঘটনাস্থলে পৌছে গুদাম দখলমুক্ত ও সীলগালা করে। এসময় কয়েকটি ব্যাটারি ও অন্যান্য সঞ্জামাদি উদ্ধার করা হয়। তবে জিআরপি পুলিশ যাবার পর পূনরায় গুদামটি জবরদখল হয়েছে বলে জানা গেছে। এব্যাপারে রেলওয়ের দায়িত্বশীল সূত্র ঘটনার সত্যতা স্বীকার করেছেন।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ