ঢাকা, শুক্রবার 20 April 2018, ৭ বৈশাখ ১৪২৫, ৩ শাবান ১৪৩৯ হিজরী
Online Edition

বাবার সাথে পুকুরে সাঁতার শিখতে  গিয়ে এসএসসি ফলপ্রার্থীর মৃত্যু

 

খুলনা অফিস : খুলনা মহানগরীর বয়রা পুলিশ লাইনস্থ পুকুরে বাবার সাথে সাঁতার শিখতে গিয়ে পানিতে ডুবে মারা গেছে এসএসসি ফলপ্রার্থী সাজিদ আরেফিন সিদ্দিকী (১৫)। গতকাল বৃহস্পতিবার সকাল সাড়ে ১০ টার দিকে এ ঘটনাটি ঘটেছে। তার পিতা সেলিম রেজা সিদ্দিকী সাতক্ষীরার তালা সরকারি কলেজের ইংরেজী বিভাগের শিক্ষক। সে খুলনা পাবলিক কলেজ থেকে এবার এসএসসি পরীক্ষা দিয়েছে। এ ঘটনায় এলাকায় শোকের ছায়া নেমে এসেছে।  পুলিশ ও প্রত্যক্ষদর্শীরা জানায়, বৃহস্পতিবার সকাল ১০ টার দিকে শিক্ষক বাবা সেলিম রেজা সিদ্দিকী বড় ছেলে সাজিদকে সাঁতার শিখানোর জন্য পুলিশ লাইন স্কুল সংলগ্ন জোড়া পুকুরে আসে। ঘাটের সিঁড়িতে বসেছিল বাবা। আর ছেলে সিড়ির উপর হাত রেখে সাঁতার শিখছিল। একপর্যায়ে ছেলেটি পানিতে তলিয়ে যায়। কিছুক্ষণ পর ছেলেকে না দেখতে পেয়ে বাবা চিৎকার শুরু করে। পুলিশ লাইনের কন্ট্রোল রুমের মাইকে ঘোষণা দেয়-‘একটি ছেলে পানিতে ডুবে গেছে, সবাইকে উদ্ধার করতে পুকুরে নামার অনুরোধ জানান’। মুহূর্তে পুলিশ সদস্য ও আশপাশের লোকজন পুকুরে নেমে ছেলেটিকে উদ্ধার করে। তাকে দ্রুত খুলনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসকরা তাকে মৃত ঘোষণা করেন। সাজিদ পাবলিক কলেজ থেকে ৫ম শ্রেণি ও ৮ম শ্রেণিতে ট্যালেন্টপুলে বৃর্ত্তি পেয়েছিল। আগামী ৬ মে তার এসএসসি পরীক্ষার ফল প্রকাশের কথা রয়েছে। তার পিতা সেলিম রেজা সিদ্দিকী সাতক্ষীরার তালা সরকারি কলেজে শিক্ষকতা করলেও ছেলের পড়াশুনার জন্য মুজগুন্নী আবাসিক এলাকার ১৬ নম্বর রোডের ২১৪নং বাড়ির ৪র্থ তলায় বাসা ভাড়া নিয়ে থাকতেন। দুপুরে সাজিদের কফিন সাতক্ষীরার কালিগঞ্জে গ্রামের বাড়িতে নিয়ে যাওয়া হয়েছে। সেখানে জানাজা শেষে দাফন করা হয়। এ ব্যাপারে খালিশপুর থানায় সাধারণ ডায়েরি করা হয়েছে।                            

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ