ঢাকা, রোববার 22 April 2018, ৯ বৈশাখ ১৪২৫, ৫ শাবান ১৪৩৯ হিজরী
Online Edition

কেশবপুরে বাংলাদেশ হিন্দু বৌদ্ধ খ্রিষ্টান ঐক্য পরিষদের অভিষেক অনুষ্ঠিত

 

কেশবপুর (যশোর) সংবাদদাতা : যশোরের কেশবপুরে বাংলাদেশ হিন্দু বৌদ্ধ খ্রিষ্টান ঐক্য পরিষদের নবগঠিত কমিটির অভিষেক অনুষ্ঠান শহরের আবু শারাফ সাদেক অডিটোরিয়ামে অনুষ্ঠিত হয়েছে। শুক্রবার সকাল ১১ টায় বাংলাদেশ হিন্দু বৌদ্ধ খ্রিষ্টান ঐক্য পরিষদ কেশবপুর উপজেলার শাখার সভাপতি অধ্যাপক অসিত কুমার মোদকের সভাপতিত্বে প্রধান অতিথির বক্তব্য রাখেন বাংলাদেশ হিন্দু বৌদ্ধ খ্রিষ্টান ঐক্য পরিষদের কেন্দ্রীয় কমিটির সাধারণ সম্পাদক ও আর্ন্তজাতিক অপরাধ ট্রাইব্যুনালের প্রসিকিউটর অ্যাড. রানা দাশ গুপ্ত। বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন যশোর-৫ আসনের সংসদ সদস্য হিন্দু বৌদ্ধ খ্রিষ্টান ঐক্য পরিষদ যশোর জেলা শাখার সভাপতি স্বপন ভট্টাচার্য এমপি, উপজেলা চেয়ারম্যান এইচ এম আমির হোসেন, পৌরসভার মেয়র রফিকুল ইসলাম, উপজেলা নির্বাহী অফিসার মো. মিজানূর রহমান, উপজেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি এস এম রুহুল আমিন, হিন্দু বৌদ্ধ খ্রিষ্টান ঐক্য পরিষদ যশোর জেলা শাখার সাধারণ সম্পাদক ও যশোর পৌরসভার কাউন্সিলর সন্তোষ দত্ত। এ সময় অন্যদের মধ্যে বক্তব্য রাখেন যশোর জেলার পাবলিক প্রসিকিউটর অ্যাড. রফিকুল ইসলাম পিটু, জেলা পরিষদ সদস্য হাসান সাদেক, উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান নাছিমা সাদেক, জাতীয় পার্টির সভাপতি অ্যাড. আব্দুল মজিদ, ওয়ার্কাস পার্টির নেতা অ্যাড.আবুবক্কর সিদ্দিকী, কেশবপুর প্রেসক্লাবের সভাপতি আশরাফ-উজ-জামান খান, বিদ্যানন্দকাটি ইউপি চেয়ারম্যান আমজাদ হোসেন, অধ্যাপক কানাই লাল ভট্টাচার্য প্রমুখ। অভিষেক অনুষ্ঠানে অন্যান্য অতিথিদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন হিন্দু বৌদ্ধ খ্রিষ্টান ঐক্য পরিষদের কেন্দ্রীয় কমিটির সভাপতি মন্ডলীর সদস্য রবিনসন আর বিশ্বাস, হিন্দু বৌদ্ধ খ্রিষ্টান ঐক্য পরিষদের জেলা যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক তপন ঘোষাল, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক জয়ন্ত দেব, হিন্দু বৌদ্ধ খ্রিষ্টান ঐক্য পরিষদ কেশবপুর উপজেলা শাখার উপদেষ্টা তপন কুমার ঘোষ মন্টু, উৃপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান আব্দুল লতিফ রানা, উপজেলা আওয়ামীলীগের সাংগঠনিক সম্পাদক পৌর কাউন্সিলর শেখ এবাদত সিদ্দিক বিপুলসহ বিভিন্ন রাজনৈতিক, সামাজিক সংগঠনের প্রতিনিধিরা। অনুষ্ঠান শুরুর আগে একটি বর্ণাঢ্য র‌্যালি শহরের প্রধান সড়ক প্রদক্ষিণ করে সাদেক অডিটোরিয়ামে এসে শেষ হয়। এরপর অডিটোরিয়াম চত্বরে প্রধান অতিথি অ্যাড. রানা দাশ গুপ্ত বিশেষ অতিথিদের নিয়ে জাতীয় সংগীতের সাথে সাথে জাতীয় ও সংগঠনের পতাকা উত্তোলন করেন। 

নির্যাতনের অভিযোগ : যৌতুকের দাবি পুরন না করায় এক এনজিও কর্মকর্তা তার স্ত্রীর ওপর শারীরিক ও মানুসিক নির্যাতন চালিয়ে যাচ্ছেন বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে। শুক্রবার সন্ধ্যায় নির্যাতনের শিকার এক গৃহবধুর ভাই রতন দাস কেশবপুর প্রেসক্লাবে সংবাদ সম্মেলনে এ অভিযোগ করেন। 

লিখিত বক্তব্যে তিনি উল্লেখ করেছেন, দীর্ঘ ৮ বছর পুর্বে তার বোন রত্না দাসের সাথে হিন্দু ধমৃীয় বিধান মতে একই উপজেলার বালিয়াডাঙ্গা গ্রামের নিতাই দাসের ছেলে খুলনাস্থ দলিত এনজিওর ইন্টারনাল অফিসার স্বপন দাসের সাথে বিবাহ হয়। বিবাহের পর থেকে স্বামী স্বপন দাস, তার  পিতা নিতাই দাস ও তার মামা অশোক দাস বিভিন্ন সময়ে যৌতুকের দাবিতে শারিরীক ও মানসিক নির্যাতন শুরু করে।  এরই ফাকে খুলনার দৌলতপুরে একটি এনজিওর মহিলা কর্মীর সাথে স্বপন দাসের পরকীয়ার ঘটনা ফাঁস হয়ে পড়ে। এরপর থেকে তার বোন রত্নার ওপর  নির্যাতনের মাত্রা আরও এক ধাপ বেড়ে যায। স্বপন দাস তার স্ত্রীকে বলে পিতার বাড়ি থেকে ৪ লাখ ৫০ হাজার টাকা যৌতুক হিসেবে না দিলে তাকে নিয়ে আর সে সংসার করবে না এবং টাকা না দেওয়া পর্যন্ত তাদের সংসারে সন্তান নিবে না। এরই মাঝে গত ১২ এপ্রিল খুলনা দলিত এনজিও অফিস থেকে একটি বিবাহ বিচ্ছেদ নোটিশ পাঠায় । বর্তমানে তার বোন স্ত্রী হিসেবে স্বপন দাসের বাসায় অবস্থান করছে। সংবাদ সম্মেলনের মাধ্যমে যৌতুক ও পরকীয়া প্রেমের প্রতিবাদ করায় তার বোন রত্নার উপর অমানুসিক নির্যাতন চালিয়ে যাচ্ছেন ওই এনজিও কর্মকর্তা। এ বিষয়ে মানবাধিকার সংগঠনসহ প্রশাসনের দৃষ্টি কামনা করা হয়েছে।  এ সময় রত্নার পিতা খোকন দাসসহ এলাকাবাসি উপস্থিত ছিলেন।

অনলাইন আপডেট

আর্কাইভ